যুক্তরাষ্ট্রে আজ মঙ্গলবার, ২২ মে, ২০১৮ ইং

|   ঢাকা - 05:26am

|   লন্ডন - 12:26am

|   নিউইয়র্ক - 07:26pm

  সর্বশেষ :

  দ্বিতীয় বিয়ে বাধ্যতামূলক যেখানে   চীনে মসজিদে মসজিদে জাতীয় পতাকা ওড়ানোর নির্দেশ   করাচিতে দাবদাহে হিট-স্ট্রোকে ৬৫ জনের মৃত্যু   যুদ্ধক্ষেত্রে সর্বাধুনিক এফ-৩৫ উড়িয়েছে ইসরায়েল   মিলানে ছাত্রলীগের আলোচনা সভা ও ইফতার মাহফিল   নিউজার্সিতে কুলাউড়া এসোসিয়েশনের ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত   তথাকথিত ‘বন্দুকযুদ্ধে’ এবার ৯ জেলায় নিহত ১২   আর্জেন্টিনার চূড়ান্ত দল ঘোষণা   মাদকের আন্ডারওয়ার্ল্ডে ১৪১ গডফাদার   মদিনায় বিমান দুর্ঘটনা থেকে বাঁচলেন ১৫১ বাংলাদেশি   রাজীবের দুই ভাইকে কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়ার আদেশ স্থগিত   বান্দরবানে পাহাড় ধসে ৪ শ্রমিক নিহত   ইবাদতের মৌসুম মাহে রমজান   শান্তিনিকেতনে শুক্রবার হাসিনা-মোদি-মমতার সাক্ষাৎ   ইরানের ওপর ‘ইতিহাসের বড় নিষেধাজ্ঞা’ দিচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র

>>  খেলাধুলা এর সকল সংবাদ

আর্জেন্টিনার চূড়ান্ত দল ঘোষণা

মাত্র ২৪ ঘণ্টা আগে অনন্য পারফরম্যান্স প্রদর্শন করে ইন্টার মিলানকে ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়নস লিগে খেলার টিকিট পাইয়ে দিয়েছেন। ২৯ গোল করে হয়েছেন সিরিআ’র সর্বোচ্চ গোলদাতা। তবুও মন গলল না আর্জেন্টিনার কোচ হোর্হে সাম্পাওলির। বিশ্বকাপ দলে মাউরো ইকার্দিকে রাখলেন না তিনি।

ইতিমধ্যে রাশিয়া বিশ্বকাপের জন্য ২৩ সদস্যের চূড়ান্ত দল ঘোষণা করেছেন সাম্পাওলি। তাতে ঠাঁই হয়নি ইকার্দির। তবে ঠিকই জায়গা করে নিয়েছেন সাম্প্রতিক সময়ে বাজে পারফরম্যান্সের মধ্য দিয়ে যাওয়া পাওলো দিবালা।

অবশ্য ইকার্দিকে দলে না রাখা নিয়ে সমালোচনার ঝড় উঠেছে। অনেকে বলছেন, ২৪ বছর বয়সী

বিস্তারিত খবর

যে পাঁচ কারণে ব্যালন ডি’অর পাবেন না মেসি!

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৫-১৭ ১৪:১০:৩৭

বর্তমান সময়ে ফুটবলের অন্যতম সেরা খেলোয়াড়দের তালিকায় শীর্ষে রয়েছেন লিওনেল মেসি ও ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো। এখন পর্যন্ত ফুটবল ইতিহাসে যত ভাল খেলোয়াড়ের আবির্ভাব ঘটেছে, মেসি তাদের মধ্যে অন্যতম। মাঠের যেকোনো প্রতিপক্ষের জন্যই হুমকি স্প্যানিশ জায়ান্ট বার্সেলোনার এই তারকা। যে কোনো দলকে যে কোনো সময় ধরাশায়ী করতে পারেন তিনি। চলতি মৌসুমেও দুর্দান্ত ফর্ম ছিল তার।

যদিও চ্যাম্পিয়নস লিগে রোমার বিপক্ষে ন্যাক্কারজনক পরাজয়ে প্রতিযোগিতা থেকে ছিটকে পড়তে হয়েছিল তার দলকে, তবে এরই মধ্যে কাতালান ক্লাবটিকে এনে দিয়েছেন কোপা দেল রে ও লা লিগা শিরোপা।

ফুটবল ক্যারিয়ারে এরই মধ্যে পাঁচবার ব্যালন ডি’অরসহ নানা অ্যাওয়ার্ড ঘরে তুলেছেন আর্জেন্টাইন এই ফুটবল যাদুকর। তবে চলতি মৌসুমের দুর্দান্ত ফর্ম সত্ত্বেও চ্যাম্পিয়নস লিগ থেকে তার দল বার্সেলোনা আগে ভাগে ছিটকে পড়ায় এবারও ব্যালন ডি’অর অর্জন নিয়ে শঙ্কা দেখা দিয়েছে মেসির।

আসুন জেনে নিই যে পাঁচ কারণে এবার ব্যালন ডি’অর ফসকে যেতে পারে আর্জেন্টাইন তারকার মেসির।

রোনালদো-মেসি যুগের অবসান
গত এক দশক ধরে ইউরোপিয়ান ফুটবলে রাজত্ব করে আসছেন রিয়াল মাদ্রিদের ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো ও বার্সেলেনার লিওনেল মেসি। গত ১০ বছরে দুজনই পাঁচবার করে ব্যালন ডি’অর জিতেছেন।

রোনালদো-মেসির বাইরে সর্বশেষ ব্যালন ডি’অর অর্জন করেছিলেন ব্রাজিলিয়ান তারকা কাকা। সেটি ছিল ২০০৭ সালে। এরপর আর কেউ এই সুযোগ পায়নি। ঘুরে ফিরে রোনালদো-মেসির হাতেই উঠেছে মর্যাদাপূর্ণ এই অ্যাওয়ার্ড।

তবে চলতি মৌসুমে এই দুজন ছাড়াও বেশ কয়েকজন খেলোয়াড় তাদের পারফম্যান্স দিয়ে নজর কেড়েছে ফুটবল বিশ্বের। তাদের মধ্যে বায়ার্ন মিউনিখের রবার্ট লেভানোভস্কি অন্যতম। এই মৌসুমে তার অর্জন মেসির সমান। বায়ার্ন ও বার্সেলোনাও নিজ নিজ ঘরোয়া লিগে চ্যাম্পিয়ন।

তবে লেভানোভস্কি ও তার দল বায়ার্ন চ্যাম্পিয়নস লিগে ভাল করেছে। এবার চ্যাম্পিয়নস লিগে বায়ার্ন সেমিফাইনাল থেকে বাদ পড়ে। আর মেসির দল বার্সেলোনা ছিটকে পড়ে কোয়ার্টার ফাইনালেই।

অবশ্য, শুধু লেভানোভস্কিই নন, এই মৌসুমে দুর্দান্ত পারফম্যান্স করে এই দৌঁড়ে এগিয়ে আছেন আরও কয়েকজন খেলোয়াড়।

মোহাম্মাদ সালাহ
চলতি মৌসুমে দুর্দান্ত ফর্ম দেখিয়েছেন লিভারপুলের মিশরীয় স্ট্রাইকার মোহাম্মাদ সালাহ। ফুটবলে তেমন উল্লেখযোগ্য কোনো অর্জন না থাকলেও, এই মৌসুমে নিজেকে প্রমাণ করতে সক্ষম হয়েছেন সালাহ। ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে তার পারফম্যান্স এবার আকাশচুম্বী। এমনকি তার প্রভাব এবার পড়েছে ইউরোপীয় ফুটবলেও। চ্যাম্পিয়নস লিগেও দেখিয়েছেন দুর্দান্ত ফর্ম। এই প্রতিযোগিতায় সালাহ’র প্রভাব এবার মেসির চেয়েও বেশি।

প্রিমিয়ার লিগের এক মৌসুমে ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো, লুইস সুয়ারেজ এবং অ্যালান শিয়েরারের রেকর্ড ভেঙে দিয়ে নিজের সক্ষমতার জানান দিয়েছেন মিশরীয় এই তারকা। এরই মধ্যে প্রফেশনাল ফুটবলারস অ্যাসোসিয়েশন (পিএফএ) এর বর্ষসেরা খেলোয়াড়ের খ্যাতি অর্জন করেছেন সালাহ।

সাদিও মানে ও রবার্টো ফিরমিনোকে সঙ্গে নিয়ে এরই মধ্যে নিজের দল লিভারপুলকে প্রিমিয়ার লিগের ফাইনালে তুলেছেন মুসলিম এই খেলোয়াড়। আগামী ২৬ দিবাগত রাত বাংলাদেশ সময় ১২টা ৪৫ মিনিটে ফাইনালে ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর রিয়াল মাদ্রিদের মুখোমুখি হবে তার দল।

এখন পর্যন্ত সালাহ’র ওপর ভর করেই কঠিন প্রতিযোগিতাগুলো স্বাচ্ছন্দে পাড়ি দিয়েছে ইংলিশ ক্লাব লিভারপুল। বর্তমানে যে ফর্মে রয়েছেন সালাহ তা ধরে রেখে এবার চ্যাম্পিয়নস লিগের শিরোপা অর্জন করতে পারলে এবার তার ব্যালন ডি’অর অর্জনের পথে সম্ভবত আর কোনো বাধা থাকবে না।

চ্যাম্পিয়নস লিগের দৈন্য
দুর্দান্ত খেলেই চ্যাম্পিয়নস লিগের কোয়ার্টার ফাইনালে উঠেছিল মেসির বার্সেলোনা। এই পর্বের প্রথম লেগে ঘরের মাঠে রোমার বিপক্ষে দুর্দান্ত ৪-১ গোলের জয়ও পেয়েছিল বার্সা। কিন্তু দ্বিতীয় লেগে অ্যাওয়ে ম্যাচে ৩-০ গোলে হেরে যায় রোমার বিপক্ষে। ফলে অ্যাওয়ে গোলের ব্যবধানে কোয়াটার ফাইনাল থেকেই ছিটকে পড়তে হয় কাতালান ক্লাবটিকে, যা মেসির দুর্দান্ত ফর্মের এই মৌসুমে দুঃখ হয়ে আবির্ভূত হয়। ব্যালন ডি’অর জয়ের জন্য চ্যাম্পিয়নস লিগের পারফম্যান্স খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

তাছাড়া এবারের ব্যালন ডি’অরে তার শক্ত দুই প্রতিদ্বন্দ্বী সালাহ ও রোনালদো চ্যাম্পিয়নস লিগের ফাইনালে মুখোমুখি হচ্ছেন। সুতরাং এটা নিশ্চিত করেই বলা যায়, এবারও ব্যালন ডি’অর হাত ছাড়া হচ্ছে মেসির।

আর্জেন্টিনার সঙ্গে বিশ্বকাপ জয়ের অনিশ্চয়তা
গত বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনাকে ফাইনাল পর্যন্ত টেনে তুলে তুললেও শেষ পর্যন্ত জার্মানির বিপক্ষে হেরে গিয়ে শিরোপা হারান মেসির দল। ফলে অল্পের জন্য ইতিহাস গড়া থেকে বঞ্চিত হন ফুটবল জাদুকর মেসি।

ব্যালন ডি’অরে বিশ্বকাপের পারফম্যান্সকেও গুরুত্বের সঙ্গে বিবেচনায় নেয়া হয়।

গতবার নিজের পারফম্যান্স দিয়ে আর্জেন্টিনাকে ফাইনালে টেনে তুললেও এবার বাছাইপর্বে খুবই কষ্ট করতে হয়েছে মেসিদের। অবশেষে একক কৃতিত্বে দলটিকে বাছাইপর্বে টিকিয়ে বিশ্বকাপ নিশ্চিত করেছে মেসি। কিন্তু তারপরও বিশ্বকাপের মতো প্রতিযোগিতার শিরোপা অর্জন এতটা সহজ হবে না। কেননা, মেসির একক কৃতিত্ব দিয়ে এই শিরোপা অর্জন সত্যিই কঠিন।

কেননা, বিশ্বকাপের আরেক শক্তিশালী দল স্পেনের বিপক্ষে প্রীতি ম্যাচে ৬-১ গোলের বিশাল ব্যবধানে হেরে যায়। এই ম্যাচে মেসি ছিলেন না। আর তাতেই বোঝা যায়, মেসি ছাড়া আর্জেন্টিনা দলটির সক্ষমতা কতটুকু?

যদিও মেসি বিশ্বসেরা খেলোয়াড়। কিন্তু তার একার পক্ষে আর্জেন্টিনার মতো দলকে বিশ্বকাপের শিরোপা অর্জন সত্যিই কঠিন। তাছাড়া ফ্রান্স, জার্মানি, স্পেন, বেলজিয়াম ও ব্রাজিলের মতো কঠিন দলগুলো বিশ্বকাপে দারুণ পারফম্যান্স দেখাবে।

যেহেতু চ্যাম্পিয়নস লিগে মেসির পারফম্যান্স খুব একটা ভাল নয়। সুতরাং ব্যালন ডি’অর পেতে হলে বিশ্বকাপে দুর্দান্ত পারফম্যান্সের বিকল্প নেই, যা খুবই কঠিন।

শেষ মুহূর্তে রোনালদোর জ্বলে ওঠা
গত এক দশক ধরে ব্যালন ডি’অর রোনালদো ও মেসির কাছেই ঘুরে ফিরে আসছে। তবে চলতি মৌসুমের শুরুর দিকে রিয়াল তারকা রোনালদোর ফর্ম কিছুটা খারাপ ছিল। তবে এই কঠিন মুহূর্ত পার করে মৌসুমের মাঝামাঝিতে আবার জ্বলে ওঠেন সিআর সেভেন। একের পর এক ম্যাচে দুর্দান্ত গোল করেন তিনি। বিশেষ করে চ্যাম্পিয়নস লিগের বেশ কিছু ম্যাচে দারুণ পারফম্যান্সে ফিরে আসেন পর্তুগিজ এই তারকা।

মৌসুমের প্রথম সেশনে লা লিগায় রোনালদোর গোল ছিল মাত্র একটি। অথচ দ্বিতীয় সেশনে দুর্দান্ত ফর্মে ফিরলে তার লা লিগা শেষ হয় ২৬ ম্যাচে ২৫ গোল ও ৫ অ্যাসিস্ট দিয়ে। এছাড়া চ্যাম্পিয়নস লিগে ১২ ম্যাচে ১৫ গোল ও ৩ অ্যাসিস্ট রয়েছে তার। সামনে রয়েছে ফাইনাল। ফাইনালে লিভারপুলকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়নস শিরোপা অর্জন করতে পারলে নিশ্চিতভাবেই ব্যালন ডি’অর জয়ে মেসির থেকে এগিয়ে যাবেন রোনালদো।

এলএবাংলাটাইমস/এএল/এলআরটি

বিস্তারিত খবর

প্রথমবারের মতো টেস্ট র‌্যাঙ্কিংয়ে আটে বাংলাদেশ

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৫-০১ ০৮:২০:২৩

প্রথমবারের মতো আইসিসি টেস্ট র‌্যাঙ্কিংয়ে আটে উঠেছে বাংলাদেশ।

বার্ষিক হালনাগাদের পর আজ নতুন র‌্যাঙ্কিং প্রকাশ করেছে আইসিসি। যেখানে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে টপকে আটে উঠেছে বাংলাদেশ।

এই হালনাগাদে বাদ হয়ে গেছে ২০১৪-১৫ মৌসুমের পারফরম্যান্স। ২০১৫-১৬ ও ২০১৬-১৭ মৌসুমের পারফরম্যান্স বিবেচনায় নেওয়া হয়েছে ৫০ শতাংশ।

হালনাগাদের আগে ৭২ পয়েন্ট নিয়ে র‌্যাঙ্কিংয়ে আট নম্বরে ছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজ। আর বাংলাদেশ ৭১ পয়েন্ট নিয়ে ছিল নয় নম্বরে। ক্যারিবীয়দের সঙ্গে বাংলাদেশের ব্যবধান ছিল ১ পয়েন্ট।


হালনাগাদের পর আটে উঠে আসা বাংলাদেশের বেড়েছে ৪ পয়েন্ট। নয়ে নেমে যাওয়া ওয়েস্ট ইন্ডিজ হারিয়েছে ৫ পয়েন্ট। বাংলাদেশের পয়েন্ট এখন ৭৫, ওয়েস্ট ইন্ডিজের ৬৭। 

হালনাগাদের পর শীর্ষস্থান আরো সংহত হয়েছে ভারতের। দুইয়ে থাকা দক্ষিণ আফ্রিকার সঙ্গে ভারতের ব্যবধান আগে ছিল ৪ পয়েন্ট, সেটি বেড়ে হয়েছে ১৩ পয়েন্ট। ভারতের বেড়েছে ৪ পয়েন্ট, দক্ষিণ আফ্রিকার কমেছে ৫ পয়েন্ট।

তবে হালনাগাদ দুঃসংবাদ বয়ে এনেছে নিউজিল্যান্ডের জন্য। কিউইরা তিন থেকে নেমে গেছে চার নম্বরে। চার থেকে তিনে উঠেছে অস্ট্রেলিয়া। হালনাগাদের আগে দুই দলের পয়েন্ট ছিল সমান ১০২। হালনাগাদের পর নিউজিল্যান্ডের পয়েন্ট পরিবর্তন না হলেও অস্ট্রেলিয়ার বেড়েছে ৪ পয়েন্ট।

এলএবাংলাটাইমস/এএল/এলআরটি

বিস্তারিত খবর

অবশেষে স্ত্রীকে সামনে আনলেন রুবেল

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৪-২৮ ১২:০৭:১১

অভিনেত্রী নাজনীন আক্তার হ্যাপির সঙ্গে সম্পর্কে জড়িয়ে প্রচণ্ড সমালোচনার মুখে পড়েছিলেন জাতীয় ক্রিকেট দলের পেসার রুবেল হোসেন।

২০১৪ সালের ১৩ ডিসেম্বর হ্যাপির করা মামলার কারণে দুদিন কারাগারেও থাকতে হয়েছিল তাকে। এর মধ্য দিয়েই হ্যাপির সঙ্গে সম্পর্কের ইতি ঘটে তার।

সেই ঝড় সামলে উঠে অস্ট্রেলিয়ায় অনুষ্ঠিত বিশ্বকাপে অসাধারণ নৈপুণ্য দেখান রুবেল। পরে হঠাৎ করেই ২০১৬ সালে হুট করে সবার অগোচরেই বিয়ের পিঁড়িতে বসেন তিনি। পরিবারের পছন্দে সাধারণ একটি মেয়ের সঙ্গে গাঁটছড়া বাঁধেন রুবেল। সেই থেকেই রুবেলের স্ত্রীকে দেখার অপেক্ষায় ছিলেন ভক্তরা। তবে কোনো সময়ই স্ত্রীকে সামনে নিয়ে আসেননি তিনি।

অবশেষে দীর্ঘদিন পর ভক্তদের অপেক্ষার অবসান হয়েছে। নিজের স্ত্রীকে ভক্ত-সমর্থকদের সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দিয়েছেন রুবেল। শনিবার সকালে নিজের ফেসবুক পেজে স্ত্রীর সঙ্গে দুটি ছবি প্রকাশ করেছেন রুবেল। ছবির ক্যাপশনে শুধু লিখেছেন, ‘মাই ওয়াইফ’।

তবে স্ত্রীর নাম জানাননি রুবেল। ছবিটি প্রকাশের সঙ্গে সঙ্গেই লাইক-কমেন্টের ঝড় শুরু হয়েছে।

এলএবাংলাটাইমস/এএল/এলআরটি

বিস্তারিত খবর

বিসিবির চুক্তি থেকে বাদ সৌম্য-তাসকিন-সাব্বির

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৪-১৮ ১৪:০০:০১

ক্রিকেটারদের বেতন বাড়ছে।  কয়েকদিন আগে এমন একটি খবর বের হয়েছিল।  তারপর থেকেই গুঞ্জন ছিল চুক্তিবদ্ধ ক্রিকেটারের সংখ্যা কমিয়ে আনা হচ্ছে ২ জন।  এরপর শোনা গেলো, ৪ জনকে বাদ দেয়া হচ্ছে বিসিবির কেন্দ্রীয় চুক্তি থেকে।  ১৬ থেকে নামিয়ে সংখ্যাটা করা হচ্ছে ১২ জনে; কিন্তু গুঞ্জনের এটাও ঠিক হলো না।  মোট ৬ জনকে বাদ দেয়া হয়েছে বিসিবির কেন্দ্রীয় চুক্তি থেকে।  বাদ পড়া ক্রিকেটারদের মধ্যে রয়েছেন সৌম্য সরকার, মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত, কামরুল ইসলাম রাব্বি, ইমরুল কায়েস, তাসকিন আহমেদ এবং সাব্বির রহমান।

শুধু ৬জন কমানোই নয়, ক্রিকেটারদের বেতন বাড়ানোর যে গুঞ্জন ছিল, সেটাও সত্য হয়নি।  নতুন চুক্তিবদ্ধ ১০ ক্রিকেটারের কোনো বেতন-ভাতা বাড়ানো হয়নি।  বুধবার বিসিবির কার্যনির্বাহী কমিটির সভা শেষে সাংবাদিকদের সামনে এ ঘোষণা দেন বিসিবি প্রেসিডেন্ট নাজমুল হাসান পাপন।

বিস্তারিত খবর

বাংলা মর্নিং সান ক্রিকেট ক্লাব ইতালীর ক্রীড়াঙ্গনে সফলতার স্বাক্ষর রাখতে চায়

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৪-১০ ১৪:৩৪:০৬

ইতালী ফুটবল প্রিয় দেশ হলেও, বর্তমানে ক্রিকেট খেলার জনপ্রিয়তা বাড়ছে। তার সাথে প্রবাসী বাংলাদেশী ক্রিকেট খেলোয়াররা সুযোগ পাচ্ছে দেশকে তুলে ধরে ইতালীর ক্রীড়াঙ্গনে নিজেদের অবস্থান করে নিতে।
‘রোম বাংলা মর্নিং সান ক্রিকেট ক্লাব, ইতালী’ তাদের অর্জন এবং সহযোগিতার কথা জানাতে বিশেষ অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে। রোমের স্থানীয় একটি হলে ২০১৭ সালে ওপেন টি-টুয়েন্টি খেলায় চ্যাম্পিয়ান হওয়ার গৌরব সহ বিভিন্ন পর্যায়ের অর্জন তুলে ধরা হয় এবং অনুষ্ঠানে বছরের সেরা খেলোয়াড়দের বিশেষ সন্মাননা প্রদান করে।
রোম বাংলা মর্নিং সান ক্রিকেট ক্লাবের সভাপতি ফরহাদ খানের সভাপতিত্বে এবং সাংবাদিক লাবন্য চৌধুরী‘র পরিচালনায় অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন ইতালীর জাতীয় ক্রিকেট দলের ক্যাপ্টেন  গায়াসাং রাঙ্গা ও স্থানীয় ব্যবসায়ী মাহমুদুল হাসান।
তারা বলেন, খেলাধূলা যেমন সুস্থ বিনোদন দিতে পারে, তেমনি জীবনের সঠিক পথের সন্ধানের সাথে দেশ ও জাতির জন্য সম্মান এনে দিতে পারে।
এসময় আরও বক্তব্য রাখেন, ক্লাবের কোচ রাহাদ আহমেদ ও ক্যাপ্টেন আব্দর কাদির সহ খোলোয়ারবৃন্দ।
খেলোয়াররা বলেন, সাফল্যের ধারাবিহিকতা এগিয়ে যেতে হলে এখন প্রয়োজন স্পন্সর সহ বিভিন্ন ধরনের সহযোগিতার। আর এ সহযোগিতা পেলে ইতালীর ক্রীড়াঙ্গনে রোম বাংলা মর্নিং সান ক্রিকেট ক্লাব সফলতার স্বাক্ষর রাখতে সক্ষম হবে।
এসময় দলের নতুন জার্সি উন্মোচণ এবং বছরের সেরা খেলায়ারদের পুরস্কার প্রদান করা হয়। বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে বর্ষ সেরা সম্মাননা পান.. গায়াসাং রাঙ্গা, আল আমিন, রাহাত, সামির, বিকাশ ও বাপ্পী। এছাড়াও দীপ্তা, দরমেনদো, প্রবাদ, কাদির, ম্যাক্সিস আমিন ও রাজু আহমেদকে বিশেষ সম্মাননা পুরস্কার দেয়া হয়।

এলএবাংলাটাইমস/এএল/এলআরটি

বিস্তারিত খবর

দ্রততম মানব আকানি, মানবী লি আইছে

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৪-১০ ১৪:১৯:৫৯

কমনওয়েলথ গেমসের সবচেয়ে আকর্ষণীয় ইভেন্ট পুরুষ ও নারী বিভাগের ১০০ মিটার ইভেন্ট। ইভেন্টে সবার আগে দূরত্ব অতিক্রম করে আসরের দ্রুততম মানবের মুকুট মাথায় পরেছেন দক্ষিণ আফ্রিকান স্প্রিন্টার আকানি সিম্বনি। আর দ্রুততম মানবীর মুকুট পড়েছেন ত্রিনিদাদ অ্যান্ড টোবাগোর মিশেল লি আইছে।

উসাইন বোল্টের সঙ্গে প্রতিদ্বন্দ্বিতাকারী এবং তার অনুশীলনের সঙ্গী জ্যামাইকান তারকা ইয়োহান ব্লেককে ঘিরে সবার জল্পনা কল্পনা দেখা গেলেও তাকে পাত্তাই দেননি দক্ষিণ আফ্রিকান স্প্রিন্টাররা। ব্ল্যাককে পিছেনে রেখে আসরের সোনা ও রূপার পদক সংগ্রহ করেছে আফ্রিকান দুই দৌড়বিদ।


সোমবার দর্শক ঠাসা গোল্ডকোস্টের কারারা স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত প্রতিযোগিতায় দক্ষিণ আফ্রিকার সিম্বনি ১০.০৩ সেকেন্ডে দৌঁড় শেষ করে জয় করেন স্বর্ণপদক। তার স্বদেশী ব্রুন টিয়েস হ্যারিস ১০.১৭ সেকেন্ডে দৌঁড় শেষ করে দখল করেন রূপার পদক। আর জ্যামাইকান স্প্রিন্টার ইয়োহান ব্লেক ১০.১৯ সেকেন্ড সময় নিয়ে তৃতীয় হন। ফলে গলায় পড়তে হয় ব্রোঞ্জের পদক।

একই ভেন্যুতে অনুষ্ঠিত নারীদের ১০০ মিটার স্প্রিন্টে ত্রিনিদাদ অ্যান্ড টোবাগোর মিশেল লি আইছে ১১.১৪ সেকেন্ড সময় নিয়ে জিতে নেন স্বর্ণপদক।

জ্যামাইকার ক্রিস্টিনা উইলিয়ামস ১১.২১ সেকেন্ড সময় নিয়ে পান রৌপ্য এবং স্বদেশী গায়োন ইভান্স ১১.২২ সেকেন্ড সময় নিয়ে ব্রোঞ্জপদক লাভ করেন।

এলএবাংলাটাইমস/এস/এলআরটি

বিস্তারিত খবর

বিশ্বকাপে নেইমারের নতুন হেয়ারস্টাইল!

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৪-০৪ ০৩:০৯:৪৩

বিশ্রামে আছেন ব্রাজেলীয় সুপারস্টার নেইমার। পায়ের অস্ত্রোপচারের পর এখন রিও ডি জেনেরোর বিলাসবহুল রিসোর্টে রিহ্যাবে আছেন। সামনে লক্ষ্য একটাই, পুরোপুরি সুস্থ হয়ে রাশিয়া বিশ্বকাপে খেলতে নামা। এর আগে নতুনরূপে দেখা যাচ্ছে তাকে। চুলের নতুন ছাঁটের ছবি ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করেছেন তিনি।

অস্ত্রপচারের পর তার সুস্থ হয়ে ওঠার বিভিন্ন রিহ্যাব পদ্ধতি অনুরাগীদের জানাতে কয়েক সপ্তাহ ধরেই সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং ওয়েবসাইটে পোস্ট করছেন নেইমার। সেই ধারাবাহিকতায় চুলের নতুন ছাঁটের ছবিও পোস্ট করেন।

এখন ভক্তদের মনে প্রশ্ন, চুলের এই নতুন ছাঁটেই কি বিশ্বকাপে দেখা যাবে নেইমারকে? এ জন্য অবশ্য অপেক্ষা করতে হবে জুন মাস পর্যন্ত।

বিস্তারিত খবর

মালয়েশিয়ার জালে ১০ গোল দিয়েছে বাংলাদেশের মেয়েরা

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৩-৩০ ১০:৪০:০৩

বাংলাদেশ-মালয়েশিয়া সিনিয়র পর্যায়ে আগে দেখা হলেও বয়সভিত্তিক ফুটবলে কখনো মুখোমুখি হয়নি । হংকংয়ে অনুর্ধ্ব-১৫ চার জাতি আমন্ত্রণমূলক নারী ফুটবল প্রথমবারের মতো দুই দেশের বয়সভিত্তিক দল সামনাসামনি হয়েছিল শুক্রবার।

এই ম্যাচে মালয়েশিয়ার জালে গুনে গুনে ১০ গোল দিয়ে বাংলাদেশের মেয়েরা হংকংয়ে লিখেছে নারী ফুটবলে লাল-সবুজদের এগিয়ে যাওয়ার নতুন এক গল্প। ২০১৭ সালের ডিসেম্বরে সাফজয়ী মেয়েরা ১০-১ গোলে বিশাল জয় দিয়ে শুরু করেছে হংকংয়ের টুর্নামেন্টে।

সকালে অনুষ্ঠিত ম্যাচে জোড়া গোল করেছেন বাংলাদেশের তহুরা খাতুন, অনাই মগিনি, শামসুন্নাহার। একটি করে গোল করেছেন সাজেদা, অনুচিং, শামসুন্নাহার (ছোট) ও নিলুফার ইয়াসমিন নিলা।

বাংলাদেশ দ্বিতীয় ম্যাচ খেলবে শনিবার স্থানীয় সময় সকাল সাড়ে ১১টায় ইরানের বিরুদ্ধে। শেষ ম্যাচ রবিবার বিকেল সাড়ে ৩টায় স্বাগতিক হংকংয়ের বিরুদ্ধে।

চার দলের টুর্নামেন্টে খেলা হচ্ছে লিগ ভিত্তিতে। পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষ দল হবে চ্যাম্পিয়ন। বাংলাদেশ শিরোপায় চোখ রেখেই খেলতে গেছে এ টুর্নামেন্ট।


এলএবাংলাটাইমস/এস/এলআরটি

বিস্তারিত খবর

জিম্বাবুয়ের এক কর্মকর্তাকে ২০ বছর নিষিদ্ধ করল আইসিসি

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৩-২৮ ০২:৪৩:২৩

আন্তর্জাতিক ম্যাচ ভুলভাবে প্রভাবিত করার অভিযোগে জিম্বাবুয়ের এক ম্যাচ অফিসিয়ালকে নিষিদ্ধ করেছে আইসিসি। রাজন নায়ার নামক জিম্বাবুয়ের ওই ঘরোয়া ক্রিকেট অফিসিয়ালকে ২০ বছরের জন্য নিষিদ্ধ করেছে ক্রিকেটের সর্বোচ্চ সংস্থা।

ঘটনাটি ঘটেছে গত বছরের অক্টোবরে। দুর্নীতির জন্য জিম্বাবুয়ে অধিনায়ক গ্রায়েম ক্রেমারকে বেছে নেন রাজন নায়ার। ম্যাচ পাতানোর জন্য ক্রেমারকে ৩০ হাজার ডলার দেওয়ার প্রস্তাব দেন তিনি। প্রস্তাব পাওয়ার পরই ঘটনাটি আইসিসিকে জানিয়ে দেন ক্রেমার। তদন্ত শেষে নায়ারের বিপক্ষে এ শাস্তি ঘোষণা করে আইসিসি।

ওই সময়ে হারারে মেট্রোপলিটন ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের মার্কেটিং ডিরেক্টর হিসেবে কাজ করেছিলেন নায়ার। এবার তার বিরুদ্ধে তোলা অভিযোগ সত্য প্রমানীত হয়েছে। এর জন্য শাস্তি পাচ্ছেন তিনি। তার শাস্তি শুরু হবে ১৬ জানুয়ারি ২০১৮ থেকে।

আইসিসির দুর্নীতি দমন কমিশনের জেনারেল ম্যানেজার অ্যালেক্স মার্শাল এ প্রসঙ্গে বলেন, ‘তদন্তের ফলাফল এবং মি. নায়ারের ওপর এমন শাস্তিকে আমি স্বাগত জানাই। তার এমন শাস্তি ভব্যিষতে অন্যদের কাছেও শিক্ষনীয় হয়ে থাকবে। এ কাজে সহায়তা করার জন্য আমি গ্রায়েম ক্রেমারকেও ধন্যবাদ দিতে চাই।’


এলএবাংলাটাইমস/এস/এলআরটি

বিস্তারিত খবর

নেতৃত্ব থেকে সরে দাঁড়ালেন স্মিথ-ওয়ার্নার

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৩-২৫ ০৬:২০:২০

বল টেম্পারিংয়ের ঘটনায় পদত্যাগ করতে রাজি ছিলেন না স্টিভেন স্মিথ। কিন্তু চতুর্থ দিনে এসে নাটকীয় ঘটনার জন্ম দিলেন খোদ অস্ট্রেলিয়া অধিনায়ক। অধিনায়কত্ব থেকে সরে দাঁড়িয়েছেন চলমান টেস্ট থেকেই। একই সঙ্গে তার সহকারী হিসেবে দায়িত্বে থাকা ডেভিড ওয়ার্নারও সরে দাঁড়িয়েছেন।

দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে চলমান টেস্টে টিম পেইনের অধীনে খেলবে পুরো দল। এ প্রসঙ্গে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার প্রধান নির্বাহী জেমস সাদারল্যান্ড জানিয়েছেন, ‘স্টিভেন স্মিথ ও ডেভিড ওয়ার্নারের সঙ্গে কথা বলার পর তারা দায়িত্ব থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে। টিম পেইন নেতৃত্ব দেবেন এই দলকে।’

এর আগে অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রীও হতাশা ব্যক্ত করেছেন বল টেম্পারিংয়ের ঘটনায়। বিষয়টি পুরো দলই অবগত ছিল বলে জানিয়েছেন স্টিভেন স্মিথ। ব্যানক্রফটকে এই অভিযোগে অভিযুক্তও করা হয়েছে।


এলএবাংলাটাইমস/এস/এলআরটি

বিস্তারিত খবর

বিশ্ব একাদশের অধিনায়ক মরগ্যান

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৩-২২ ১১:৫৭:৩৮

আগামী ৩১ মে লর্ডসে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে একটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলবে বিশ্ব একাদশ। এই ম্যাচ আয়োজনের মূল উদ্দেশ্য তহবিল সংগ্রহ করা। গত বছর ‍দুইটি ঘূর্ণিঝড় ইরমা ও মারিয়ার কারণে ওয়েস্ট ইন্ডিজের ক্ষতিগ্রস্থ হওয়া দুইটি স্টেডিয়ামের সংস্কারের কাজে সংগৃহীত অর্থ ব্যয় করা হবে।

বৃহস্পতিবার এই ম্যাচে বিশ্ব একাদশের অধিনায়ক হিসাবে রঙিন পোশাকের ক্রিকেটে ইংল্যান্ড দলের অধিনায়ক ইয়ন মরগ্যানের নাম ঘোষণা করেছে ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি)। অধিনায়ক হিসাবে নাম ঘোষণা হওয়ার পর এতে আনন্দ প্রকাশ করেছেন ইয়ন মরগ্যান।

ইয়ন মরগ্যান বলেছেন, ‘আইসিসি ওয়ার্ল্ড ইলেভেনের অধিনায়ক হতে পেরে আমি খুশি। আশা করি, বিশ্বের সেরা ক্রিকেটারদের অংশগ্রহণে দারুণ একটি ম্যাচ হবে। আমি মনে করি, ক্রীড়াপ্রেমীরা ম্যাচটি দেখতে আসবে এবং তহবলি সংগ্রহের ক্ষেত্রে ভূমিকা রাখবে।’

এই ম্যাচের টিকিট ছাড়া হবে স্কাই স্পোর্টসে। ম্যাচের টিকিটের মূল্য প্রাপ্ত বয়স্কদের জন্য ২০ পাউন্ড। আর শিশুদের জন্য দশ পাউন্ড।


এলএবাংলাটাইমস/এস/এলআরটি

বিস্তারিত খবর

শ্রীলঙ্কাকে কাঁদিয়ে নিহাদাস ট্রফির ফাইনালে বাংলাদেশ

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৩-১৬ ১৫:১৪:৫১

সাকিব আল হাসান। এলেন, খেললেন আর জয় করলেন। তার আগমণেই দলে পরিবেশ পরিবর্তনের হাওয়া লাগে। মাঠে খেলোয়াড়দের শারীরী ভাষা গেল বদলে। যে যার জায়গা থেকে শতভাগ দিলেন। তাতে শুরুতেই শ্রীলঙ্কাকে খুব করে চেপে ধরে বাংলাদেশ। কুশাল পেরেরা ও থিসারা পেরেরার ব্যাটে সেখানে থেকে শ্রীলঙ্কা ঘুরে দাঁড়ালেও ১৫৯ রানের বেশি করতে পারেনি।

সেই রান তাড়া করতে নেমে পেন্ডুলামে দুলে দুলে একে সময় খাদের কিনারায় দাঁড়িয়ে যায় বাংলাদেশ। কিন্তু ক্ষণে ক্ষণে রঙ বদলানো ম্যাচটি রংধনুর সাত রঙে রাঙান মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। উত্তেজনা আর নাটকীয়তার রেশ দূরে রেখে ঠাণ্ডা মাথায় লঙ্কান দর্শকদের হৃদয় খানখান করেন বড় ম্যাচের তারকা মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। তার বীরোচিত ব্যাটিংয়ে শ্রীলঙ্কাকে কাঁদিয়ে নিদাহাস ট্রফির দ্বিতীয় আসরের ফাইনালে উঠে যায় বাংলাদেশ। শ্বাসরুদ্ধকর ম্যাচ শেষে কাঁদলেন শ্রীলঙ্কার খেলোয়াড় ও দর্শকরা। কাঁদলেন বাংলাদেশের সমর্থকরাও। সে কান্না যে আনন্দের। হারতে বসা ম্যাচ জিতে ফাইনালে যাওয়ার।

সংক্ষিপ্ত স্কোর :
শ্রীলঙ্কা : ১৫৯/৭ (২০ ওভারে)
বাংলাদেশ : ১৬০/৮ (১৯.৫)
ফল : বাংলাদেশ ২ উইকেটে জয়ী ও ফাইনালে।
ম্যাচসেরা : মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ।

শুক্রবার টস হেরে ব্যাট করতে নেমে ৪১ রানেই স্বাগতিকরা হারিয়ে বসে পাঁচ-পাঁচটি উইকেট। প্রথমে সাকিব আল হাসান শ্রীলঙ্কার শিবিরে আঘাত করেন। দলীয় ১৫ রানের মাথায় দানুস্কা গুনাথিলাকাকে (৪) সাব্বির রহমানের হাতে ক্যাচ বানিয়ে সাজঘরে ফেরান। ২২ রানের মাথায় দ্বিতীয় আঘাত করেন মুস্তাফিজ। তার বলে সৌম্য সরকারের হাতে ক্যাচ দিয়ে আউট হন কুশাল মেন্ডিস (১১)। এরপর মুস্তাফিজের ওভারে রান-আউটে কাটা পড়েন উপল থারাঙ্গা। দলীয় রান তখন মাত্র ৩১।

এক বল পরেই মুস্তাফিজের অফ-কাটারে দিশেহারা হয়ে উইকেটের পেছনে মুশফিকের হাতে ক্যাচ দেন দাসুন শানাকা। তিনি গোল্ডেন ডাক মেরে সাজঘরে ফেরেন। দলীয় রান তখন ৪ উইকেট হারিয়ে ৩২। নবম ওভারের প্রথম বলেই জীভান মেন্ডিসকে শর্ট ফাইন লেগে মুস্তাফিজুর রহমানের হাতে ক্যাচ বানিয়ে আউট করেন মেহেদী হাসান মিরাজ। তাতে ৪১ রানেই ৫ উইকেট হারিয়ে বসে শ্রীলঙ্কা। এর পরের গল্পটুকু কুশাল পেরেরা ও থিসারা পেরেরার। প্রথম ১০ ওভারে শ্রীলঙ্কার উপর প্রভাব বিস্তার করে খেলে বাংলাদেশ।

এরপর সেই বলয় থেকে বেরিয়ে এসে হাতখুলে মারতে শুরু করেন কুশাল পেরেরা ও থিসারা পেরেরা। ষষ্ঠ উইকেটে তারা দুজন ৯৭ রান তোলেন। দলীয় ১৩৮ রানের মাথায় কুশাল পেরেরা আউট হন। যাওয়ার আগে ৪৭ বলে ৭টি চার ও ১ ছক্কায় ৬১ রান করে যান। এরপর থিসারা পেরেরা ৩৭ বলে ৩ চার ও সমান সংখ্যক ছক্কায় ৫৮ রানের ঝোড়ো ইনিংস খেলে দলীয় সংগ্রহকে ১৫৪ পর্যন্ত টেনে নেন। উদানা ও ধনঞ্জয়া শেষদিকে ৫ রান যোগ করলে শ্রীলঙ্কা ২০ ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে ১৫৯ রান সংগ্রহ করে।

বল হাতে বাংলাদেশের মুস্তাফিজুর রহমান ২টি উইকেট নেন। ১টি করে উইকেট নেন সাকিব আল হাসান, মেহেদী হাসান মিরাজ, সৌম্য সরকার ও রুবেল হোসেন।

১৬০ রানের জয়ের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে শুরুটা ভালো হয়নি বাংলাদেশেরও। ১১ রানের মাথায় ডাক মেরে সাজঘরে ফেরেন লিটন কুমার দাস। ৩৩ রানের মাথায় সাব্বির রহমানও ফিরে যান। ৮ বলে ৩ চারে ১৩ রান করে যান তিনি। তৃতীয় উইকেটে তামিম ও মুশফিকের ব্যাটে ঘুরে দাঁড়ায় বাংলাদেশ। তারা দুজন ৬৭ রানের জুটি গড়ে দলকে জয়ের ভিত এনে দেন। এরপর কিছুটা ছন্দপতন ঘটে বাংলাদেশের ব্যাটিংয়ে।

৯৭-১০৯ রানের মধ্যে তিনজন ব্যাটসম্যান সাজঘরে ফিরে ব্যাকফুটে ঠেলে দেন বাংলাদেশকে। ৯৭ রানের মাথায় দারুণ ধারাবাহিক মুশফিক ২৮ রানে আউট হন। ১০৫ রানের মাথায় হাফ সেঞ্চুরি করেই ফিরেন তামিম। ৪২ বলে ৪টি চার ও ২ ছক্কায় ফিফটি করে যান দেশসেরা ওপেনার। সৌম্য সরকারও এসে বেশিক্ষণ টিকতে পারেননি। ১১ বলে ১০ রান করে আউট হন সৌম্য। ষষ্ঠ উইকেটে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ও সাকিব আল হাসান ২৮ রান তোলেন। তাতে আবারো ম্যাচে ফেরে বাংলাদেশ।

১৩৭ রানের মাথায় সাকিব আউট হওয়ার পর আগের তিন ম্যাচের ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক দায়িত্বভার নিয়ে লড়াই চালিয়ে যান। ১৪৮ রানের মাথায় মেহেদী হাসান মিরাজ রান-আউট হলে চাপে পড়ে যায় বাংলাদেশ। এরপর মুস্তাফিজ এসে প্রথম বলে ব্যাটে বলে করতে পারেননি। পরের বলে প্রান্ত-বদল করতে গিয়ে রান-আউট হন। পরের চার বল কে মোকাবেলা করবে সেটা নিয়ে তৈরি হয় দ্বন্দ্ব। যেহেতু প্রান্ত-বদল হয়েছে সেহেতু মাহমুদউল্লাহর স্ট্রাইক পাওয়ার কথা। কিন্তু স্ট্রাইকে দেখানো হয়েছে রুবেল হোসেনকে।

তার উপর পর পর দুটো বল বাউন্সার (শোল্ডারের উপর দিয়ে) দেওয়ায় লেগ আম্পায়ার নো বল কল করেন। আরেক আম্পায়ার সেটা নাচক করে দেন। সেটা নিয়ে তৈরি হয় দ্বন্দ্ব। ডাগ-আউট থেকে সাকিব উঠে আসতে বলেন মাহমুদউল্লাহ ও রুবেলকে। শেষে দ্বন্দ্ব মিটে মাহমুদউল্লাহ স্ট্রাইকে যান। উদানার তৃতীয় বলটিকে কাভার অঞ্চল দিয়ে বাউন্ডারিতে পাঠান। পরের বলটি ডিপ মিড-উইকেটে ঠেলে দিয়ে ঝুঁকিপূর্ণ ২ রান নিয়ে স্ট্রাইক নিজের কাছে রাখেন মাহমুদউল্লাহ। তখন জয়ের জন্য ২ বলে ৬ রান প্রয়োজন হয় বাংলাদেশের। উদানার করা পঞ্চম বলটি ব্যাকওয়ার্ড স্কয়ার লেগ দিয়ে উড়িয়ে মেরে শ্রীলঙ্কাকে কাঁদিয়ে বাংলাদেশকে ফাইনালে তোলেন।

ঠাণ্ডা মাথার মাহমুদউল্লাহ ১৮ বল মোকাবেলা করে ৩ চার ও ২ ছক্কায় ৪৩ রানে অপরাজিত থাকেন। ম্যাচসেরার পুরস্কারটিও তার হাতেই ওঠে।

রোববার নিদাহাস ট্রফির ফাইনালে ভারতের মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ। এ নিয়ে দ্বিতীয়বারের মতো ফাইনালে ভারতের মুখোমুখি হচ্ছে বাংলাদেশ। ২০১৬ সালে এশিয়া কাপ টি-টোয়েন্টির ফাইনালে ভারতের বিপক্ষে মিরপুরে খেলেছিল বাংলাদেশ। সেবার অবশ্য হার মেনেছিল। এবার সেই ভারতকে হারিয়ে শিরোপা নিয়ে দেশে ফিরতে পারে কিনা বাংলাদেশ, সেটাই দেখার বিষয়।

বিস্তারিত খবর

ছয় বলে ছয় ছক্কা, ১৫৩ বলে ডাবল সেঞ্চুরি!

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৩-১৬ ১১:১৭:২২

ডান ভন বাঙ্গয়ের ওপর দিয়ে কী ঝড়টাই না বয়ে গিয়েছিল সেদিন! ঘটনাস্থল সেন্ট কিটসের ওয়ার্নার পার্ক। ঝড়ের নাম হার্সেল গিবস! নেদারল্যান্ডসের লেগ স্পিনার ভন বাঙ্গয়ের এক ওভারে ছয় বলে ছয় ছক্কা হাঁকিয়ে ইতিহাস গড়েন দক্ষিণ আফ্রিকান ব্যাটসম্যান। ঘটনাটা আজকের এই দিনেই (১৬ মার্চ)।

২০০৭ বিশ্বকাপে সেদিন ‘এ’ গ্রুপে বৃষ্টির কারণে ৪০ ওভারে নেমে আসা ম্যাচে টস হেরে ব্যাট করতে নেমেছিল দক্ষিণ আফ্রিকা। কিন্তু ইনিংসের দ্বিতীয় বলে শূন্য রানেই এবি ডি ভিলিয়ার্সের উইকেট হারায় প্রোটিয়ারা। সেখান থেকে ১১৪ রানের জুটিতে দলকে এগিয়ে নেন গ্রায়েম স্মিথ ও জ্যাক ক্যালিস।

১৯তম ওভারে স্মিথ ৬৭ রান করে ফেরার পর উইকেটে আসেন গিবস। ডানহাতি ব্যাটসম্যান প্রথম ৩০ বলে করেছিলেন ৩২ রান। এরপর এক ওভারের ব্যবধানে তার রান হয়ে যায় ৩৬ বলে ৬৮! ছয় বলে ছয় ছক্কা যে সেই ওভারেই।

ইনিংসের সেটি ৩০তম ওভার, ভন বাঙ্গয়ের চতুর্থ। লেগ স্পিনারের প্রথম বলে ডাউন দ্য ট্র্যাকে এসে লং অনের ওপর দিয়ে ছক্কা হাঁকান গিবস। পরের বলটা ছিল লেগ অ্যান্ড মিডল স্টাম্পে, এবার লং অফের ওপর দিয়ে বল সীমানার বাইরে। তৃতীয় বলে আবারো লং অফের ওপর দিয়ে ছক্কা।

ভন বাঙ্গ চতুর্থ বলটা দিয়েছিলেন কিছুটা নিচু ফুলটস। ফলাফল? ওভার ডিপ মিড উইকেটের ওপর দিয়ে ছক্কা! পঞ্চম বলটা গিবস আছড়ে ফেললেন লং অফের ওপর দিয়ে। আর ষষ্ঠ বলটা ওভার ডিপ মিড উইকেটের ওপর দিয়ে সীমানার বাইরে পাঠিয়েই গড়ে ফেললেন ইতিহাস।

ওয়ানডে ক্রিকেট তো বটেই, আন্তর্জাতিক ক্রিকেটেই এক ওভারে ছয় বলে ছয় ছক্কার প্রথম ঘটনা এটি। পরের ওভারে আউট হওয়ার আগে ৪০ বলে ৭ ছক্কা ও ৪ চারে ৭২ রানের টর্নেডো ইনিংস খেলেন গিবস। ক্যালিসের ১০৯ বলে ১২৮* ও মার্ক বাউচারের ৩১ বলে ৭৫* রানের সুবাদে ৪০ ওভারে ৩ উইকেটে ৩৫৩ রান তুলেছিল দক্ষিণ আফ্রিকা। প্রোটিয়ারা ম্যাচ জিতেছিল ২২১ রানে।

টেস্টের দ্রুততম ডাবল সেঞ্চুরি
টেস্ট ক্রিকেটের দ্রুততম ডাবল সেঞ্চুরির ঘটনাও ঘটেছিল আজকের এই দিনেই, ২০০২ সালে ক্রাইস্টচার্চে নিউজিল্যান্ড-ইংল্যান্ড প্রথম টেস্টের শেষ দিনে। নিউজিল্যান্ডের নাথান অ্যাস্টল ডাবল সেঞ্চুরি পূর্ণ করেন মাত্র ১৫৩ বলে! তার দ্বিতীয় সেঞ্চুরি (১০০ থেকে ২০০) এসেছে মাত্র ৩৯ বলে।

২০০২ সালের ২৩ ফেব্রুয়ারি জোহানেসবার্গে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে টেস্টে ২১২ বলে ডাবল সেঞ্চুরি করেছিলেন অ্যাডাম গিলক্রিস্ট। অস্ট্রেলিয়ান ব্যাটসম্যানের রেকর্ড টেকেনি এক মাসও! ২০১৬ সালে অ্যাস্টলের রেকর্ড ভাঙার খুব কাছে গিয়েছিলেন ইংল্যান্ডের বেন স্টোকস। কেপ টাউনে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ইংলিশ ব্যাটসম্যান ডাবল সেঞ্চুরি পূর্ণ করেন ১৬৩ বলে।


এলএবাংলাটাইমস/এস/এলআরটি

বিস্তারিত খবর

নিদাহাস ট্রফিতে ৫ উইকেটে শ্রীলংকাকে হারালো বাংলাদেশ

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৩-১১ ০০:৪৯:৫৫

শেষ ওভারে দরকার ছিলো ৯ রান। দুই বল বাকি থাকতেই জিতে নিলো টাইগাররা। টি-২০তে নিজেদের ইতিহাসে সর্বোচ্চা রান তাড়া করে জেতার রেকর্ড গড়েলো বাংলাদেশ। ২১৫ রানই টি-২০ ক্রিকেটে টাইগারদের সর্বোচ্চ ইনিংস।

এর আগে টি-২০তে বাংলাদেশের সর্বোচ্চ ইনিংস ছিলো ১৯৩। গত মাসে ঢাকায় এই শ্রীলঙ্কার বিপক্ষেই ইনিংসটি খেলোছিলো বাংলাদেশ। আর সর্বোচ্চ ১৬৫ রান তাড়া করে জেতার রেকর্ড ছিলো আগে।

ষোলতম ওভারে ৫টি বল হয়ে যাবার পর বাংলাদেশের রান ছিলো ১৬৪। অর্থাৎ জয়ের জন্য ২৫ বলে দরকার ছিলো ৫১ রান। মুশফিক ১৯ বলে ৩৬ রান এবং মাহমুদুল্লাহ ব্যাট করছিলেন ৬ বলে ৭ রান নিয়ে। তিসারা পেরেরা ওভারের শেষ বলটি হয় ‘নো’ সঙ্গে ছক্কা হাঁকান মাহমুদুল্লাহ। ফ্রি হিটের বলটিকেও বাউন্ডারি পার করেন।

ম্যাচ অনেকটাই সহজ হয়ে যায় বাংলাদেশের জন্য। তবে ম্যাচ শেষ হবার দুই ওভার আগে চামিরার স্লোয়ারে কুশাল মেন্ডিসের হাতে ক্যাচ দেন টাইগার অধিনায়ক। আবারও ঘুরে দাঁড়ায় শ্রীলঙ্কা। ১৯তম ওভারে কোন রান না করেই রানআউট হন সাব্বির। তবে একপাশে অটল ছিলেন মুশফিক। ক্যারিয়ারসেরা ৭২ রানে অপরাজিত থেকেই মাঠ ছাড়েন মুশি। বল খেলেন মাত্র ৩৫টি।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:
বাংলাদেশ: ২১৫/৫ তামিম ৪৭*, লিটন ৪৩, মুশফিক ৭২*; প্রদীপ ২/৩৭।
শ্রীলঙ্কা: ২১৪/৬ মেন্ডিস ৫৭, কুশাল পেরেরা ৭৪, উপল থারাঙ্গা; মাহমুদুল্লাহ ২/১৫, মোস্তাফিজ ৩/৪৮।

ম্যাচসেরা মুশফিকুর রহিম।

বিস্তারিত খবর

মুশফিককে সম্মাননা দিল জাবি অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন

 প্রকাশিত: ২০১৮-০২-১৬ ১২:৩০:৫৬

তারকা ক্রিকেটার মুশফিকুর রহীমকে সম্মাননা দিয়েছে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় (জাবি) অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন। শুক্রবার তৃতীয় অ্যালামনাই দিবসে বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ছাত্র মুশফিককে গুণীজন সম্মাননা দেয়া হয়।

দুপুরে সেলিম আল দীন মুক্তমঞ্চে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ফারজানা ইসলামের হাত থেকে মুশফিকুর রহীমের পক্ষে সম্মাননা গ্রহণ করেন তার বন্ধু আব্দুল্লাহিল মামুন নিলয়।

মামুন নিলয় পরিবর্তন ডটকমকে বলেন, ‘মুশফিকের সিরিজ চলাকালীন ব্যস্ততার কারণে সে থাকতে পারেনি। তার হয়ে আমাকে সম্মাননা গ্রহণ করতে হয়েছে।’

তিনি বলেন, ‘মুশফিককে সম্মাননা দিতে পেরে আমাদের বিশ্ববিদ্যালয় পরিবার গর্বিত। বিশ্ববিদ্যালয় পরিবার মুশফিকের উপস্থিতি বিশ্ববিদ্যালয়ে আরও অনেক বেশি প্রত্যাশা করে।’

সম্মাননা দেয়ায় কৃতজ্ঞতা জানিয়ে মুশফিক আমরাই জাহাঙ্গীরনগর নামে বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি গ্রুপে লিখেছেন, ‘আমি সত্যিই গর্বিত এবং সম্মানিত বোধ করছি। দুঃখিত যে, আমি নিজে থাকতে পারিনি।’

মুশফিকুর রহীম বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগে ৩৬ ব্যাচের ছাত্র ছিলেন। বর্তমানে বিভাগটিতে এমফিল পর্যায়ের শিক্ষার্থী হিসেবে অধ্যয়নরত রয়েছেন মুশফিক।


এলএবাংলাটাইমস/এস/এলআরটি

বিস্তারিত খবর

রেকর্ডের পাতায় সবার শীর্ষে মুমিনুল

 প্রকাশিত: ২০১৮-০১-৩১ ১০:২৬:৫৩

টেস্ট ক্রিকেটে ২ হাজার রান পূর্ণ করেছেন মুমিনুল হক। ১ হাজার ৮৪০ রান নিয়ে চট্টগ্রাম টেস্ট শুরু করেছিলেন মুমিনুল হক। সেঞ্চুরি করেছেন চা-বিরতির আগেই। বিরতির পর নিজেকে নিয়ে গেছেন নতুন এক উচ্চতায়। ষষ্ঠ বাংলাদেশি ক্রিকেটার হিসেবে মুমিনুল হক ছুঁয়েছেন ২ হাজার রানের মাইলফলক। তবে সবার থেকে কম ইনিংস খেলে এ মাইলফলক ছুঁয়েছেন বাংলাদেশের লিটল মাস্টার।

রঙ্গনা হেরাথের হাওয়ায় ভাসানো বল এগিয়ে এসে লং অফ দিয়ে বাউন্ডারিতে পাঠান মুমিনুল হক। ১৫৭ রান থেকে এক লাফে পৌঁছে যান ১৬০ রানে। তাতেই রেকর্ডের চূড়ায় মুমিনুল। মাত্র ৪৭ ইনিংসেই মুমিনুলের ২ হাজার রানের রেকর্ড গড়েছেন।

শীর্ষে উঠতে মুমিনুল পিছনে ফেলেছেন তামিম ইকবালকে। মুমিনুলের থেকে ৬ ইনিংস বেশি খেলে ২ হাজার রান করেছিলেন তামিম। তালিকার এরপরই আছেন সাকিব আল হাসান (৫৭ ইনিংস), হাবিবুল বাশার (৫৮ ইনিংস), ‍মুশফিকুর রহিম (৬৭ ইনিংস) ও মোহাম্মদ আশরাফুল (৯১ ইনিংস)।


এলএবাংলাটাইমস/এস/এলআরটি

বিস্তারিত খবর

অস্ট্রেলিয়ান ওপেন ফেদেরারের ২০ শিরোপা

 প্রকাশিত: ২০১৮-০১-২৮ ১০:১১:২০

মারিন চিলিচকে হারিয়ে বছরের প্রথম গ্র্যান্ড স্লাম প্রতিযোগিতা অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের শিরোপা জিতেছেন রজার ফেদেরার। সুইস তারকার গ্র্যান্ড স্লাম শিরোপা-সংখ্যা হয়ে গেল ২০টি।

রোববার ফাইনালে মেলবোর্ন পার্কের রড লেভার অ্যারেনায় প্রথম সেট জিততে ফেদেরারের সময় লেগেছে মাত্র ২৪ মিনিট। তবে টাইব্রেকে দ্বিতীয় সেট জিতে ঘুরে দাঁড়ান ক্রোয়েশিয়ার চিলিচ। এবারের অস্ট্রেলিয়ান ওপেনে এটাই ফেদেরারের প্রথম সেট হার।

পরের দুই সেট আবারো দুইজনের একটি করে। প্রথম চার সেট শেষে ২-২ সমতা। তবে পঞ্চম সেট সহজেই জিতে শিরোপা উৎসবে মাতেন ফেদেরার। সুইস তারকা ম্যাচ জেতেন ৬-২, ৬-৭ (৫-৭), ৬-৩, ৩-৬, ৬-১ গেমে।

অস্ট্রেলিয়ান ওপেনে এটি ফেদেরারের ষষ্ঠ শিরোপা। অস্ট্রেলিয়ান ওপেনে সর্বোচ্চ ৬টি শিরোপা জেতা রয় এমারসন ও নোভাক জকোভিচের রেকর্ডে ভাগ বসালেন ৩৬ বছর বয়সি এই তারকা।

সেই সঙ্গে পুরুষ ও নারী একক মিলিয়ে টেনিসের ইতিহাসে মার্গারেট কোর্ট, সেরেনা উইলিয়ামস ও স্টেফি গ্রাফের পর চতুর্থ খেলোয়াড় হিসেবে ২০টি গ্র্যান্ড স্লাম শিরোপা জয়ের কীর্তি গড়লেন ফেদেরার।

শেষ পাঁচটি গ্র্যান্ড স্লামের তিনটিই জিতলেন ফেদেরার। মেলবোর্নে জয়ের পর ফেদেরার বলেছেন, ‘স্বপ্ন সত্যি হলো এবং এই রুপকথা চলবে।’

ফেদেরারের গ্র্যান্ড স্লাম শিরোপা
উইম্বলডন – ৮টি (২০০৩, ২০০৪, ২০০৫, ২০০৬, ২০০৭, ২০০৯, ২০১২, ২০১৭)
অস্ট্রেলিয়ান ওপেন – ৬টি (২০০৪, ২০০৬, ২০০৭, ২০১০, ২০১৭, ২০১৮)
ইউএস ওপেন – ৫টি (২০০৪, ২০০৫, ২০০৬, ২০০৭, ২০০৮)
ফ্রেঞ্চ ওপেন – ১টি (২০০৯)


এলএবাংলাটাইমস/এস/এলআরটি

বিস্তারিত খবর

বাংলা চ্যানেল জয় করলেন ব্রিটিশ সাংবাদিক বেকি

 প্রকাশিত: ২০১৮-০১-২৮ ১০:০৭:৩৩

‘এলেন, দেখলেন, জয় করলেন’—এমনটাই বলা যায় ব্রিটিশ সাংবাদিক বেকি হর্সব্রো সম্পর্কে। তিনিই প্রথম ব্রিটিশ, যিনি বাংলা চ্যানেল জয় করলেন। অবশ্য এপির সাংবাদিক বেকি শুধু নিজের নামের পাশে বাংলা চ্যানেল জয়ের রেকর্ড যোগ হবে এর জন্যই নয়, আরো কিছু মহৎ উদ্দেশ্যও ছিল তাঁর।

বাংলাদেশে  প্রতিদিন পানিতে ডুবে শিশুমৃত্যুর হার দারুণভাবে ব্যথিত করে বেকিকে। ইন্টারনেট ঘেঁটে বাংলাদেশের পানিতে ডুবে শিশুমৃত্যুর সংখ্যা দেখে তিনি অবাক হন। বাংলাদেশে প্রতিদিন গড়ে  ৫০ জন শিশু পানিতে ডুবে মারা যায়, যেখানে যুক্তরাজ্যে বছরে মারা যায় মাত্র ১৫ জন।

শিশুমৃত্যুর এ ভয়াবহতা নিয়ে সচেতনতা সৃষ্টি ও তহবিল সংগ্রহের লক্ষ্যে বেকি ১৬ কিলোমিটার দৈর্ঘ্যের বাংলা চ্যানেল সাঁতরে পার হওয়ার লক্ষ্য নিয়ে বাংলাদেশে এসেছিলেন। এ ছাড়া তিনি বাংলা চ্যানেলকে ব্রিটিশদের কাছে সুপরিচিত করে তুলতে চান। পাশাপাশি বাংলাদেশকে বিশ্বের দরবারে ‘ক্রীড়াপ্রেমী’ দেশ হিসেবে পরিচয় করিয়ে দিতে চান। গত বৃহস্পতিবার এক সংবাদ সম্মেলনে বেকি বলেছিলেন, ‘১৯৫৮ সালে ব্রজেন দাশ একজন বাংলাদেশি হিসেবে ইংলিশ চ্যানেল অতিক্রম করেছিলেন। আর আমি প্রথম ব্রিটিশ নাগরিক হিসেবে বাংলা চ্যানেল অতিক্রম করতে এসেছি। আমি খুব উজ্জীবিত।’

সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশের প্রথম এভারেস্টজয়ী মুসা ইব্রাহীম, গবেষণা সংস্থা সিআইপিআরবির ড. জাহাঙ্গীর, আন্তর্জাতিক বার্তা সংস্থা এপির ঢাকা ব্যুরোপ্রধান জুলহাস আলম, বেলী গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. ওয়াহিদুজ্জামান।

এ প্রসঙ্গে বেকির সহকর্মী জুলহাস আলম বলেন, ‘গত জুলাই মাসে সাঁতার প্রশিক্ষণ সম্পর্কিত কিছু প্রকল্প দেখতে বাংলাদেশে এসেছিলেন। এসব প্রকল্প দেখে তিনি সত্যিই অভিভূত। তাই ফিরে যাওয়ার পর থেকেই বলছিলেন, পানিতে ডুবে শিশুমৃত্যুর বিষয়ে সচেতনতা তৈরি করতে তিনি আবার আসতে চান এবং সেটি সত্যি হতে চলেছে।’

সরকারিভাবে পানিতে ডুবে শিশুমৃত্যুর হার কমানোর কোনো উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে কি না—সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে মুসা ইব্রাহীম মনে করিয়ে দেন, কয়েক দিন আগে শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেছিলেন, স্কুল পর্যায়ে শিশুদের সাঁতার শেখানো হবে। সরকারি পর্যায়ে এটা করতে পারলে যথেষ্ট সুফল বয়ে আনবে।

আজ রোববার সকাল ৮টায়  টেকনাফ থেকে সেন্টমার্টিনের ১৬ কিলোমিটারের পথ পাড়ি দেন বেকি। এই দীর্ঘ পথ পাড়ি দিতে বেকির সময় লেগেছে চার ঘণ্টা ৪৫ মিনিট।

বেকি ফ্রিস্টাইলে সাঁতার কাটেন। তাঁকে সহায়তা দিতে থাকে দুটি নৌযান। দুটি নৌযান থাকা  প্রসঙ্গে বৃহস্পতিবার সংবাদ সম্মেলনে মুসা ইব্রাহীম বলেছিলেন, ‘অনেক সময় সাঁতারু পথ ভুলে গভীর সমুদ্রে কিংবা মিয়ানমারের দিকে চলে যান। গাইড বোট সাঁতারুকে সঠিক পথ দেখাবে। তা ছাড়া সমুদ্রে সাঁতারের প্রধান দুটো সমস্যা জেলিফিশের উপদ্রব ও লবণাক্ত পানি। আরেকটি নৌযানে ফিজিওথেরাপিস্টসহ অন্যরা থাকবেন।’

বেকি সফলভাবে সাঁতার সম্পন্ন করেছেন এবং আগামীতে তাঁর যুক্তরাজ্যের সাঁতারপ্রেমী বন্ধুদের সঙ্গে নিয়ে আবার বাংলাদেশে আসতে চান। বাংলাদেশ বেকির জন্য একটি চমকপ্রদ মুহূর্ত।

এর আগে বাংলাদেশের প্রথম এভারেস্টজয়ী মুসা ইব্রাহীম (ছয় ঘণ্টা ১৫ মিনিট), ভারতের ইংলিশ চ্যানেলজয়ী সাঁতারু রিতু কেডিয়া (তিন ঘণ্টা ৪০ মিনিট), ১০ বার বাংলা চ্যানেল পাড়ি দেওয়া লিপটন সরকার (ছয় ঘণ্টা দুই মিনিট), গুলশান ইয়ুথ ক্লাবের সাঁতারের প্রশিক্ষক ফজলুল কবির সিনা (পাঁচ ঘণ্টা ৩০ মিনিট), চারবার পাড়ি দেওয়া বাংলাদেশ টেলিভিশনের চিত্রগ্রাহক মনিরুজ্জামান (ছয় ঘণ্টা ১০ মিনিট), ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভূগোল ও পরিবেশ বিভাগের শিক্ষার্থী শাহাদাত বাশার (পাঁচ ঘণ্টা) ও সাবেক শিক্ষার্থী শামসুজ্জামান আরাফাত (চার ঘণ্টা ৪০ মিনিট) এবং এআইইউবির ফ্যাকাল্টি পারভেজ রশিদ (পাঁচ ঘণ্টা ৪০ মিনিট) বাংলা চ্যানেল পাড়ি দিয়েছিলেন।

টেকনাফ থেকে সেন্টমার্টিন দ্বীপ পর্যন্ত বাংলা চ্যানেল সাঁতার প্রতিযোগিতা ২০০৬ সাল থেকে শুরু হয়েছিল।


এলএবাংলাটাইমস/এস/এলআরটি

বিস্তারিত খবর

টানা ৩ জয়ের পর টাইগারদের লজ্জাজনক হার

 প্রকাশিত: ২০১৮-০১-২৫ ১১:০০:৪৪

ত্রিদেশীয় ওয়ানডে সিরিজে লিগ পর্বের শেষ ম্যাচে বাংলাদেশকে ১০ উইকেটের বড় ব্যবধানে হারিয়ে টুর্নামেন্টের ফাইনালে উঠলো শ্রীলঙ্কা। বড় জয়ে বোনাস পয়েন্ট নিয়ে ফাইনালে জায়গা করে নেয় লঙ্কানরা। ফলে সিরিজ থেকে বিদায় ঘটলো জিম্বাবুয়ের।

এই জয়ে ৪ খেলায় ৯ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের দ্বিতীয়স্থানে থেকে ফাইনালে খেলবে শ্রীলঙ্কা। ৪ খেলায় ১৫ পয়েন্ট নিয়ে আগেই ফাইনাল নিশ্চিত করে রেখেছিলো বাংলাদেশ। আর ৪ খেলায় ৪ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের তৃতীয় স্থানে থেকে সিরিজ শেষ করলো জিম্বাবুয়ে। আগামী ২৭ জানুয়ারি টুর্নামেন্টের ফাইনালে মুখোমুখি হবে স্বাগতিক বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কা।

মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে বৃহস্পতিবার টস ভাগ্যে জিতে প্রথমে ব্যাট করার সিদ্বান্ত নেন বাংলাদেশের অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা। শ্রীলঙ্কার বোলারদের তোপে শুরু থেকেই নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারাতে থাকে বাংলাদেশ। দলীয় ৫ রানে প্রথম উইকেট হারায় তারা। শুন্য হাতে প্যাভিলিয়নে ফিরেন ওপেনার এনামুল হক বিজয়।

এরপর জুটি বাঁধেন আরেক ওপেনার তামিম ইকবাল ও সাকিব আল হাসান। প্রথম তিন ম্যাচের মতো এবারও দু’বন্ধুর ব্যাটিং কারিশমা দেখায় অপেক্ষায় ছিলো বাংলাদেশ। কিন্তু এবার ব্যর্থ হলেন তারা। জুটিতে ১০ রানের বেশি যোগ করতে পারেননি তামিম ও সাকিব। তামিমের সাথে ভুল বুঝাবুঝিতে রান আউটের ফাঁদে পড়েন সাকিব। ২টি চারে শুরুটা দুর্দান্তই করেছিলেন সাকিব। তাই ঐ ৮ রানেই থেমে যেতে হয় তাকে।

সাকিবের বিদায়ের পরের ওভারেই বিদায় নেন তামিম। সাকিবের মতো শুরুটা করতে নাম পারলেও বেশ সর্তক ছিলেন তামিম। তাই কোন বাউন্ডারি ছাড়াই ১৪ বলে ৫ রান করে ফিরেন লিগ পর্বে প্রথম তিন ম্যাচে ৮৪, অপরাজিত ৮৪ ও ৭৬ রান করা তামিম।

দলীয় ১৬ রানে তামিমের বিদায়ের পর শুরুর ধাক্কা সামাল দেয়ার চেষ্টা করেন সাবেক অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। প্রতিপক্ষ বোলারদের সমীহ করেই খেলতে থাকেন তারা। উইকেটে টিকে থাকাটাই ছিল তাদের মূল মন্ত্র। তারপরও রানের চাকা সচলই ছিলো মুশফিকুর ও মাহমুদউল্লার ব্যাটিং দৃঢ়তায়।

কিন্তু মাহমুদউল্লাহকে তুলে নিয়ে শ্রীলঙ্কাকে ব্রেক-থ্রু এনে দেন অলরাউন্ডার থিসারা পেরেরা। ২০ বলে ৭ রান করেন মাহমুদুল্লাহ। মুশফিকুরের সাথে ১৮ রানের জুটি গড়েন তারা।

এই জুটির স্কোরই পেরিয়ে যান পরবর্তীতে মুশফিকুর ও সাব্বির রহমান। পঞ্চম উইকেটে ২৩ রানের জুটি গড়ে বাংলাদেশকে খেলায় ফেরানোর চেষ্টা করেছিলেন মুশফিকুর ও সাব্বির। কিন্তু এবারও বাংলাদেশের চলার পথে বাঁধা হয়ে দাঁড়ান পেরেরা। সাকিবের মত ২টি চারে ইনিংস শুরু করা সাব্বির ১২ বলে ১০ রান করে ফিরেন।

দলীয় ৫৭ রানে সাব্বিরের বিদায়ের পর বাংলাদেশের ভরসা হিসেবে উইকেটে টিকে ছিলেন মুশফিকুর। কিন্তু টেল-এন্ডারদের নিয়ে লড়াই করতে পারেননি মুশফিকুর। দলীয় ৭৯ রানে তার বিদায়ের পর ২৪তম ওভারে মাত্র ৮২ রানেই গুটিয়ে যায় বাংলাদেশের ইনিংস। নিজেদের মাটিতে ওয়ানডে ক্রিকেটে এটি নবম সর্বনিম্ন রান বাংলাদেশের। তবে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে এটি দ্বিতীয় সর্বনিম্ন রান। লংকানদের বিপক্ষে বাংলাদেশের সর্বনিম্ন রান ৭৬। ২০০২ সালে কলম্বোতে ৭৬ রানেই গুটিয়ে গিয়েছিলো টাইগাররা।

এ ম্যাচে বাংলাদেশের পক্ষে সর্বোচ্চ ২৬ রান করেন মুশফিকুর। তার ৫৬ বলের ইনিংসে ১টি চার ছিলো। শ্রীলঙ্কার পক্ষে সুরাঙ্গা লাকমল ৩টি, চামিরা-পেরোর-সান্দাকান ২টি করে উইকেট নেন।

জবাবে ফাইনাল নিশ্চিতের জন্য ৮৩ রান দরকার পড়ে শ্রীলঙ্কার। এই টার্গেট মারমুখী মেজাজেই টপকে যান শ্রীলঙ্কার দুই ওপেনার দানুস্কা গুনাথিলাকা ও উপুল থারাঙ্গা। ৭১ বল বল মোকাবেলা করে ৮৩ রান তুলে ফেলেন তারা। ফলে এই নিয়ে তৃতীয়বারের মতো ওয়ানডেতে বাংলাদেশকে ১০ উইকেটে হারালো শ্রীলঙ্কা। গুনাথিলাকা ৩৫ ও থারাঙ্গা ৩৯ রানে অপরাজিত থাকেন। ম্যাচ সেরা হয়েছেন লাকমল।


এলএবাংলাটাইমস/এস/এলআরটি

বিস্তারিত খবর

ত্রিদেশীয় ক্রিকেটে আরেকটি বিশাল জয় বাংলাদেশের

 প্রকাশিত: ২০১৮-০১-২৩ ১২:১১:৩৯

ত্রিদেশীয় ক্রিকেট সিরিজে আরেকটি বিশাল জয় পেয়েছে বাংলাদেশ। আজ মঙ্গলবার মিরপুরে জিম্বাবুয়ের বিরুদ্ধে ৯১ রানে জয় পায় বাংলাদেশ। টসে জিতে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে বাংলাদেশ করেছিল ২১৬ রান। ভাষ্যকাররা তখন বলেছিল, বাংলাদেশ কম করেছে অন্তত ৪০ রান। ম্যাচ নিরাপদ রাখার জন্য ২৬০-২৭০-এর মতো রান করা দরকার ছিল। কিন্তু বাংলাদেশের বোলাররা ওই স্বল্প পুঁজিও বেশ ভালোভাবে রক্ষা করে। জিম্বাবুয়ে অল আউট হয়ে যায় ১২৫ রানে, ৩৬.৩ ওভারে।

সাকিব আল হাসান ৩টি এবং মাশরাফি মর্তুজা, সানজামুল ইসলাম ও মোস্তাফিজুর রহমান ২টি করে উইকেট লাভ করেন।
জিম্বাবুয়ের পক্ষে সর্বোচ্চ ৩৯ রান করেন সিকান্দার রাজা।

বাংলাদেশের সংগ্রহ ২১৬ রান
তামিম ইকবাল ও সাকিব আল হাসানের জোড়া হাফ-সেঞ্চুরিতে ত্রিদেশীয় ওয়ানডে সিরিজের পঞ্চম ম্যাচে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে টস জিতে প্রথমে ব্যাটিং করে ৫০ ওভারে ৯ উইকেটে ২১৬ রান করেছে স্বাগতিক বাংলাদেশ। তামিম ৭৬ ও সাকিব ৫১ রান করেন।

মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামের ম্যাচে টস জিতে প্রথমে ব্যাট করার সিদ্বান্ত নেন বাংলাদেশের অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা। তৃতীয় ওভারের প্রথম বলেই আউট হন ওপেনার এনামুল হক বিজয়। ৭ বলে ১ রান করে জিম্বাবুয়ের ডান-হাতি পেসার কাইল জার্ভিসের শিকার হন বিজয়।
এরপর জিম্বাবুয়ের বোলারদের বিপক্ষে সর্তকতার সাথে ব্যাট চালান আরেক ওপেনার তামিম ও সাকিব।

তাই রান তোলার গতিও ছিলো মন্থর। তবে দলের স্কোর তিন অংকে পৌঁছে দিতে পেরেছেন এ জুটি।
দলকে শতকে পৌঁছাতে গিয়ে হাফ-সেঞ্চুরির স্বাদ নিয়েছেন তামিম-সাকিব। তামিম ওয়ানডে ক্যারিয়ারের ৪১তম ও সাকিব ৩৭তম হাফ-সেঞ্চুরির দেখা পান। হাফ-সেঞ্চুরির পর বেশি দূর যেতে পারেননি সাকিব। ৬টি চারে ৮০ বলে ৫১ রানে থামেন তিনি।

দলীয় ১১২ রানে সাকিবের বিদায়ে উইকেটরক্ষক মুশফিকুর রহিমকে নিয়ে ইনিংস মেরামতের সিদ্বান্ত নেন তামিম। কিন্তু বড় জুটিতে ব্যর্থ তারা। জুটিতে ৩৫ রান আসার পর বিচ্ছিন্ন মুশফিকুর। ১টি ছক্কায় ২৫ বলে ১৮ রান করেন মুশি।

মুশফিকুরের বিদায়ের পর যাওয়া আসার মিছিল শুরু করে বাংলাদেশের পরের দিকের ব্যাটসম্যানরা। দলীয় ১৭০ই রানে অষ্টম উইকেট হারিয়ে বসে বাংলাদেশ। এসময় মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ ২, সাব্বির রহমান ৬, নাসির ২, মাশরাফি শুন্য রানে সাজ ঘরে ফেরেন। এছাড়া ৭৬ রানে থামেন তামিম।

স্বীকৃত ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতায় দ্রুত গুটিয়ে যাবার শংকায় পড়ে বাংলাদেশ। তবে সেটি হতে দেননি শেষ তিন ব্যাটসম্যান সানজামুল ইসলাম, মুস্তাফিজুর রহমান ও রুবেল হোসেন।
সানজামুল ১৯ রান করে ফিরলেও, মোস্তাফিজুর ১৮ ও রুবেল ৮ রান নিয়ে অপরাজিত থাকেন। জিম্বাবুয়ের অধিনায়ক গ্রায়েম ক্রেমার ৪টি ও জার্ভিস ৩টি উইকেট নেন।


এলএবাংলাটাইমস/এস/এলআরটি

বিস্তারিত খবর

মাশরাফির সামনে নতুন মাইলফলক

 প্রকাশিত: ২০১৮-০১-২২ ১১:৫৯:২৯

ওয়ানডে ক্রিকেটে বাংলাদেশের অধিনায়ক হিসেবে সবচেয়ে বেশি ম্যাচ জয়ের মাইলফলক থেকে একধাপ দূরে দাঁড়িয়ে বর্তমান দলপতি মাশরাফি বিন মর্তুজা। মঙ্গলবার ত্রিদেশীয় সিরিজের পঞ্চম ম্যাচে জিম্বাবুয়ের মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ। ওই ম্যাচে জয় পেলেই বাংলাদেশের হয়ে ওয়ানডেতে সবচেয়ে বেশি জয় পাওয়া অধিনায়ক হিসেবে রেকর্ড গড়বেন মাশরাফি।

ওয়ানডে ক্রিকেটে অধিনায়ক হিসেবে বর্তমানে বাংলাদেশের হয়ে সর্বোচ্চ ম্যাচ জয়ের রেকর্ড ভাগাভাগি করছেন মাশরাফি ও সাবেক অধিনায়ক হাবিবুল বাশার। ৬৯ ওয়ানডেতে বাংলাদেশকে নেতৃত্ব দিয়ে বাশার ২৯টি ম্যাচে দলকে জিতিয়েছেন। অপরদিকে, ৫২টি ওয়ানডেতে নেতৃত্ব দিয়ে টাইগারদের ২৯টি জয়ের স্বাদ দিয়েছেন মাশরাফি। বাশারের নেতৃত্বে ৪০টি ম্যাচ হেরেছে বাংলাদেশ। তবে মাশরাফির নেতৃত্বে ২১টি ম্যাচ হারে বাংলাদেশ।

বাশার-মাশরাফির পর বাংলাদেশকে তৃতীয় সর্বোচ্চ ২৩টি ওয়ানডেতে জয়ের স্বাদ দিয়েছেন ৫০টি ম্যাচে নেতৃত্ব দেয়া সাকিব আল হাসান।

এলএবাংলাটাইমস/এস/এলআরটি

বিস্তারিত খবর

শ্রীলঙ্কাকে হারিয়ে ফাইনালে বাংলাদেশ

 প্রকাশিত: ২০১৮-০১-১৯ ১০:৪৩:৩৪

ত্রিদেশীয় ওয়ানডে সিরিজে আজ সফরকারী শ্রীলঙ্কাকে ১৬৩ রানে হারিয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল।
মিরপুর শেরে বাংলা স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত ম্যাচে টসে জিতে আগে ব্যাটিং করে নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে ৩২০ রানের বিশাল সংগ্রহ দাঁড় করায় টাইগাররা। জয়ের জন্য ৩২১ রানের লক্ষ্যে খেলতে নেমে ১৫৭ রানে গুটিয়ে যায় শ্রীলঙ্কা।

 শ্রীলঙ্কার ব্যাটসম্যানরা ব্যাট করতে পেরেছেন ৩২.২ ওভার পর্যন্ত। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ২৯ রানের ইনিংসটি খেলেছেন থিসারা পেরেরা। বাংলাদেশের পক্ষে দারুণ বোলিং করে তিনটি উইকেট নিয়েছেন সাকিব। দুটি করে উইকেট গেছে অধিনায়ক মাশরাফি ও রুবেল হোসেনের ঝুলিতে।

এর আগে গ্রুপ পর্বে নিজেদের প্রথম ম্যাচে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে জয় পাওয়া বাংলাদেশ ফাইনালের পথে আরো এক ধাপ এগিয়ে গেল।


এলএবাংলাটাইমস/এস/এলআরটি

 

বিস্তারিত খবর

উড়তে থাকা বার্সার অপরাজেয় যাত্রা থামলো

 প্রকাশিত: ২০১৮-০১-১৭ ২৩:৫৬:৩৯

গত আগস্টে সবশেষ স্পানিশ সুপার কাপে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী রিয়াল মাদ্রিদের বিপক্ষে হেরেছিল বার্সেলোনা। এরপর বলতে গেলে এক প্রকার হারের স্বাদই ভুলে গিয়েছিল কাতালান ক্লাবটি। তবে কোপা দেল’রের কোয়ার্টার ফাইনালের প্রথম লেগের ম্যাচে এবার উড়তে থাকা বার্সেলোনাকে ১-০ ব্যবধানে হারিয়ে মাটিতে নামিয়ে এনেছে কাতালান ক্লাব এস্পানিওল।

নতুন কোচ আরনেস্তো ভালভর্দের অধীনে এই প্রথম কোপা দেল’রের ম্যাচে হারল বার্সা। সব প্রতিযোগিতায় টানা ২৯ ম্যাচে অপরাজিত থেকে হারের স্বাদ পেয়েছে এবার সব প্রতিযোগাতায় শিরোপার দৌড়ে থাকা ক্লাবটি।

গতকাল রাতে এস্পানিওলের বিপক্ষে বার্সেলোনার শুরুর একাদশে ছিলেন না লুইস সুয়ারেজে। ফলে ম্যাচের প্রথমার্ধেই বেশ ভুগতে দেখা যায় ব্লুগ্রেনাদের। আক্রমণের ধার বাড়াতে ৬০তম মিনিটে কার্লোস আলেনাকে বসিয়ে লুইস সুয়ারেজকে নামান কোচ।
 
ম্যাচের ৬২ মিনিটে গোলের সহজতম সুযোগটি নষ্ট করেন মেসি। এস্পানিওলের ডি-বক্সে সার্জিও রবের্তো ফাউলের শিকার হলে পেনাল্টি পায় বার্সেলোনা। কিন্তু আর্জেন্টাইন অধিনায়কের স্পট কিক বাঁ-দিকে ঝাঁপিয়ে ঠেকিয়ে দেন গোলরক্ষক দিয়েগো লোপেস। সব মিলিয়ে দিনটি বার্সেলোনার ছিল না ।

ম্যাচের শেষ সময়ে বার্সার সমর্থকদের হতাশ করে এস্পানিওল। ৮৮তম মিনিটে ডি-বক্সের ডান দিক থেকে নাভারোর পাস পেয়ে কোনাকুনি শটে জয়সূচক গোলটি করেন এস্পানিওলের স্প্যানিশ মিডফিল্ডার অস্কার মেলেন্দো। আগামী সপ্তাহে ফিরতি লেগে ঘরের মাঠে খেলবে গতবারের চ্যাম্পিয়ন বার্সেলোনা। কোয়ার্টার ফাইনালে প্রথম লেগে ১-০ ব্যবধানে পিছিয়ে থাকলেও ফিরতি লেগে ঘরের মাঠে বার্সা জ্বলে উঠবে বলে বিশ্বাস দলটির ভক্তদের।

এলএবাংলাটাইমস/এস/এলআরটি

বিস্তারিত খবর

ত্রিদেশীয় সিরিজে দাপুটে জয়ে টাইগারদের দুর্দান্ত শুরু

 প্রকাশিত: ২০১৮-০১-১৫ ১৩:৪০:২৫

এই জিম্বাবুয়ে দল শ্রীলঙ্কার মাটিতে গিয়ে লঙ্কানদের ওয়ানডে সিরিজ হারিয়ে এসেছিল গত বছরের মাঝামাঝিতে! ওই দলে সাতটি পরিবর্তন থাকলেও নতুন দুই অভিজ্ঞের অন্তর্ভুক্তিও তো আছে। সেই দলটাকে কিভাবেই না ত্রিদেশীয় সিরিজের প্রথম ম্যাচে স্রেফ উড়িয়ে দিল মাশরাফি বিন মুর্তজার দল। টুর্নামেন্টটা তাই ৮ উইকেটের বড় জয়ে দুর্দান্তভাবেই শুরু হল স্বাগতিকদের।

মিরপুর শেরে বাংলা স্টেডিয়ামে সোমবারের খেলাটা ছিল দুই দলের। কিন্তু খেলল আক্ষরিক অর্থেই একটা দল। বাংলাদেশ। আগে গোছানো বোলিং আর পরিকল্পনায় ৪৯ ওভারেই ১৭০ রানে গুটিয়ে দেওয়া প্রতিপক্ষকে। আর তারপর নির্ভার ব্যাটিংয়ে ২৮.৩ ওভারে ২ উইকেট হারিয়ে করে ফেলা ১৭১ রান। গল্পটা তো শুধু এক দলেরই।

তবে এই গল্পের মাঝে আরো গল্প আছে। যে গল্পে বাংলাদেশের টেস্ট এবং টি-টুয়েন্টি অধিনায়ক সাকিব আল হাসান খুবই উজ্জ্বল। ম্যাচের নায়কও বটে। ওয়ানডে অল রাউন্ড র‍্যাঙ্কিংয়ে রবীন্দ্র জাদেজার সাথে পয়েন্টের ব্যবধানটা যে এই সিরিজ থেকে আরো বেশ বাড়িয়ে নেবেন সেটা প্রথম ম্যাচেই বুঝিয়ে দিয়েছেন বিশ্বসেরা অল রাউন্ডার সাকিব। বল হাতে ম্যাচের প্রথম ওভারেই তিন বলের মধ্যে দুই উইকেট। ওখান থেকেই প্রতিপক্ষকে পঙ্গু করে দেওয়ার শুরু। ১০ ওভারে ৪৩ রানে ৩ উইকেট।

এরপর আসে ব্যাটিংয়ের গল্প। প্রায় তিন বছর পর ওয়ানডেতে ফিরে দারুণ শুরুর পরও ১৯ রানে এনামুল হক বিজয়ের বিদায়। তাতে লক্ষ্য ছোটো হলেও তিন নম্বর জায়গাটাতে ফিরে ওটা স্থায়ী করার জন্য সময়টা বেশি মিলল সাকিবের। উইকেটে পা রাখতে না রাখতেই টানা তিন বলে তিন বাউন্ডারি। এক সময়ে বন্ধু-পার্টনার তামিম ইকবালকেও ছাড়িয়ে যান। দ্রুত ছুটেছে রানের চাকা। তামিমের সাথে জুটিটা ৭৮ রানের। তামিম অপরাজিত থেকেছেন ৯৩ বলে ৮৪ রান করে। মেরেছেন ৮টি চার ও একটি ছক্কা। ১৬ রানের আক্ষেপ তো থাকতেই পারে তার! মুশফিকুর রহীম তার সাথে জয় নিয়ে বেরিয়েছেন ১৪ রান করে।

তবে সাকিবকে বিদায় নিতে হয় এলবিডাব্লিউর শিকার হয়ে। নামের পাশে ৪৬ বলে ৫ চারে ৩৭ রান। তামিমের গল্পে কি নিজের দশম সেঞ্চুরিটা না পাওয়ার আক্ষেপ মিশে থাকবে? ঘরের প্রস্তুতি ম্যাচে সেঞ্চুরি করে নিজেকে পরখ করে দেখেছিলেন। এবার ইনফর্ম ব্যাটসম্যান চাপহীন এই ম্যাচে শুরু থেকে আগ্রাসী হতে চাইলে অনেকটা লো স্কোরিং এই ম্যাচেও একটা সেঞ্চুরির গল্প লেখা থাকতে পারতো।

কিন্তু এই ম্যাচের মূল গল্পটা আসলে বোলারদেরই। তারাই না ব্যাটসম্যানদের সহজ একটা জয় তুলে আনার সুযোগটা করে দিয়ে গেছেন আগে। টস হেরেছিল জিম্বাবুয়ে। আর ব্যাট করতে নেমে তারা প্রথমেই সামনে পেল দুই বাঁহাতি স্পিনারকে। সাকিব দুই উইকেট প্রথম ওভারটাতে তুলে নিয়ে শুরুতেই চাপের মুখে ফেলে দিলেন জিম্বাবুইয়ানদের। সানজামুলও অন্য প্রান্ত থেকে যেভাবে বল করছিলেন তাতে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে নবীন মনে হচ্ছিল না। আগের দিন মাশরাফি বলেছিলেন, স্পিন তাদের মূল শক্তি। কিন্তু গত কয়েক বছরের সাফল্যে বড় ভূমিকা পেসারদের। হালে সেই পেসারদের সময়টা ভালো না গেলেও তাদের ওপর আস্থা রাখার কথা বলেছিলেন অধিনায়ক।

তিন পেসার তাই ছিল মাঠে। মাশরাফি বরাবর পথ দেখাতে ভালোবাসেন। দলের ৩০ রানের সময় তাই এই মাটিতে বরাবর ভালো খেলা হ্যামিল্টন মাসাকাদজা (১৫) নেই। কাটার মাস্টার মোস্তাফিজুর রহমানের বোলিংয়ে ছিল পুরোনো নিজেকে নতুন করে খুঁজে পাওয়ার দারুণ চেষ্টা। চতুর্থ আঘাতটি তারই। কলপ্যাক চুক্তি থেকে জিম্বাবুয়ে দলে ফিরে প্রথম ওয়ানডেতে তাই ব্রেন্ডন টেইলর ২৪ রানে বিদায় নেন।

৫১ রানে নেই ৪ উইকেট। সিকান্দার রাজা এশিয়ার মাটিতে সাফল্য পান। এবার ৩০ রানের একটা জুটি গড়েছেন দুটি জীবন পাওয়া ম্যালকম ওয়ালারের (১৩) সাথে। ওয়ালার শেষ পর্যন্ত মাত্র দ্বিতীয় ম্যাচ খেলতে নামা সানজামুলের একমাত্র শিকার। রাজা তবু টিকে থাকতে চান। রানের গতি বাড়ে না। এর মাঝে পিটার মুরকে (৩৩) নিয়ে ৫০ রানের একটি জুটি ষষ্ঠ উইকেটে। ৯৯ বলে ২টি করে চার ও ছক্কা তার ইনিংসে। তাতেই প্রমাণ, বাংলাদেশি বোলারদের এই বিপদেও খুব ভালোভাবে সামলেছেন একমাত্র রাজাই। দলীয় সর্বোচ্চ তারই।

এসবের মাঝে আরেকটা গল্প ফুটে ওঠে ম্যাচের ৪৮তম ওভারে। ৪ ওভার বল করেও তখনো কোনো উইকেট নেই রুবেল হোসেনের। পেসার শেষটায় গিয়ে টানা দুই বলে দুই উইকেট নিয়ে হ্যাটট্রিকের সুযোগ তৈরি করলেন। তাতে উইকেট শিকারের সেঞ্চুরি হয়ে গেল তার। এই মাইলফলকে রুবেলের আগে মাত্র ৪ জন বোলার পৌঁছাতে পেরেছেন। রুবেলের ওই আঘাতের পর শেষ উইকেটটা মোস্তাফিজের। ৫০ ওভার খেলা হয় না জিম্বাবুয়ের।

শুরুর মতো ম্যাচের শেষটাও বাংলাদেশের দারুণ। শেষেও কথা সেই একটা। খেলেছে তো শুধু বাংলাদেশই!

সংক্ষিপ্ত স্কোর :

জিম্বাবুয়ে : ৪৯ ওভারে ১৭০ (মাসাকাদজা, মিরে ০, আরভিন ০, টেইলর ২৪, রাজা ৫২, ওয়ালার ১৩, মুর ৩৩, ক্রেমার ১২, জার্ভিস ৪*, চাতারা ০, মুজারাবানি ১; সাকিব ৩/৪৩, সানজামুল ১/২৯, মাশরাফি ১/২৫, মোস্তাফিজ ২/২৯, রুবেল ২/২৪, নাসির ০/১৫)।

বাংলাদেশ : ২৮.৩ ওভারে ১৭১/২ (তামিম ৮৪*, এনামুল ১৯, সাকিব ৩৭, মুশফিক ১৪*; জার্ভিস ০/১৫, চাতারা ০/২৬, রাজা ২/৫৩, মুজারাবানি ০/৩১, ক্রেমার ০/৪৬)

ফল : বাংলাদেশ ৮ উইকেটে জয়ী।
ম্যান অব দ্যা ম্যাচ : সাকিব আল হাসান।

এলএবাংলাটাইমস/এস/এলআরটি

বিস্তারিত খবর

সাম্প্রতিক খবর

সর্বাধিক পঠিত