যুক্তরাষ্ট্রে আজ বুধবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী, ২০২০ ইং

|   ঢাকা - 01:17pm

|   লন্ডন - 07:17am

|   নিউইয়র্ক - 02:17am

  সর্বশেষ :

  ফ্রেন্ডস সোসাইটির অমর একুশে পালন, ক্যাপ্টেন টিলি পার্কে স্থায়ী শহীদ মিনারের দাবী   নিউইয়র্কে ব্যাপক আয়োজনে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন   বিশ্বের ৯৭তম ভাষা সিলেটি, কথা বলেন ১ কোটি ১৮ লাখ   ১ হাজার ৫৯৬ কোটি টাকা নিয়ে পিকে হালদার কানাডায়   বাংলাদেশের সংসদে ভাষণ দেবেন ভারতের সাবেক রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জী   দিল্লিতে প্যান্ট খুলে সাংবাদিকের ধর্ম যাচাই   দিল্লিতে মসজিদে আগুন, মিনারে হনুমানের পতাকা   ইসলামিক সন্ত্রাস রুখতে নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে কাজ করে যাব: ট্রাম্প   নয়াদিল্লি রণক্ষেত্র: সহিংসতায় নিহত বেড়ে ২০   মিসরের সাবেক স্বৈরশাসক হোসনি মোবারকের মৃত্যু   জেল ভেঙ্গে পালালেন ১০০ কয়েদী   আদালতে ইব্রাহিম খালেদ : ১৫৯৬ কোটি টাকার হদিস মিলছে না   উত্তর-পূর্ব দিল্লিতে ১৪৪ ধারা জারি   ঢাকায় দুই আ’লীগ নেতার বাড়িতে অভিযান, সিন্দুকভর্তি টাকা উদ্ধার   করোনাভাইরাসে মহামারীর শঙ্কা: বিশ্বের আরো প্রস্তুতি প্রয়োজন

মূল পাতা   >>   প্রবাসী কমিউনিটি

সৌদি আরবে সড়ক দুর্ঘটনায় ৪ বাংলাদেশী নিহত

নিউজ ডেস্ক

 প্রকাশিত: ২০১৯-০৮-২৪ ০৮:১৬:৩৬

নিউজ ডেস্ক: সৌদি আরবে এক মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনায় ৪ বাংলাদেশী নিহত হয়েছেন। নিহতরা সবাই নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার উপজেলার কালাপাহাড়িয়া ও খাগকান্দা ইউনিয়নের বাসিন্দা। শুক্রবার বিকেলে এই খবর নিহতদের বাড়িতে পৌঁছলে শুরু হয় শোকের মাতম। স্বজন হারানোর কান্নায় ভারী হয়ে ওঠে পরিবেশ।

জানা গেছে, সৌদি আরবে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহতদের মধ্যে নারায়ণগঞ্জ জেলার আড়াইহাজার উপজেলার কালাপাহাড়িয়া ইউনিয়নের তিন জন এবং খাগকান্দা ইউনিয়নের চম্পকনগরের একজন। নিহতদের মধ্যে কালাপাহাড়িয়া ইউনিয়নের বদলপুর গ্রামের জাব্বার মিয়ার ছেলে সুরুজ মিয়া (২৫), একই গ্রামের মোতালিব ব্যাপরীর ছেলে নুরা মিয়া (২৩), পার্শ্ববর্তী গ্রামের খালিয়ারচর গ্রামের মোকররমে ছেলে উজ্জল (২২) ও খাগকান্দা ইউনিয়নের চম্পকনগর গ্রামের রাসেল (২৪)। নিহত রাসেলের পিতার নাম আক্রম আলী। তিনি ৩ বছর যাবত সৌদি আরবে থাকতেন।

কালাপাহাড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সাইফুল ইসলাম স্বপন জানান, নিহতরা সবাই মদিনার আল-ফাহাদ কোম্পানিতে কর্মরত ছিলেন। শুক্রবার বাংলাদেশের সময় সকাল ১০টায় তারা একটি মাইক্রোবাস দিয়ে কর্মস্থলে যাওয়ার পথে দুর্ঘটনার কবলে পড়েন। এদের মধ্যে বাংলাদেশের ৪জন ঘটনাস্থলেই মারা যান। এরা সবাই আড়াইহাজারের বাসিন্দা।

সরেজমিনে দেখা গেছে, নিহত চারজনের পরিবারে কান্নার রোল পড়ে গেছে। সন্তানের এভাবে চলে যাওয়া কোনোভাবেই মেনে নিতে পারছেন না তারা। মৃত্যুর সংবাদ শুনে পাড়া প্রতিবেশী নিহতদের বাড়িতে আসার পর কেউই চোখের পানি ধরে রাখতে পারছেন না। নিহত রাসেলের বাড়িতে চলছে শোকের মাতম।

কালাপাহাড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সাইফুল ইসলাম স্বপন আরো জানান, স্বজন হারানোর বেদনায় গোটা কালাপাহাড়িয়া ইউনিয়নে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। শান্তনা দেয়ার ভাষা নেই কারো। আল্লাহ পাকের নিকট দোয়া করি তিনি যেন নিহতদের পরিবারের সদস্যদের ধৈর্য ধরার তৌফিক দান করেন।

অভিবাসীদের নিয়ে কাজ করা সংগঠন অভিবাসী কর্মী উন্নয়ন প্রোগ্রাম (ওকাপ) এর ফিল্ড অফিসার আমিনুল হক বলেন, আমরা তাদের পরিবারের সাথে যোগাযোগ করে লাশ আনার ব্যাপারে সহযোগিতা করব।

এই খবরটি মোট পড়া হয়েছে ১৩৪ বার

আপনার মন্তব্য

সাম্প্রতিক খবর