যুক্তরাষ্ট্রে আজ শুক্রবার, ১৫ নভেম্বর, ২০১৯ ইং

|   ঢাকা - 02:50pm

|   লন্ডন - 08:50am

|   নিউইয়র্ক - 03:50am

  সর্বশেষ :

  ক্যালিফোর্নিয়ায় নিজের স্কুলে কিশোরের গুলি, নিহত ১   পেঁয়াজের মূল্য নিয়ে উত্তাল সংসদ   সিরাজগঞ্জে ট্রেনের ইঞ্জিনসহ ৮ বগি লাইনচ্যুত, দুটিতে আগুন   ভূ-কৌশলগত বিরোধ নয় সুষ্ঠু প্রতিযোগিতা চায় বাংলাদেশ : পররাষ্ট্রমন্ত্রী   আবার বিয়ে করলেন হুমায়ূন আহমেদের প্রথম স্ত্রী গুলতেকিন   দুপুরে আটকের পর রাতে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ রোহিঙ্গা যুবক নিহত   পিয়াজের কেজি ২০০ টাকা   ৫০ লাখ টাকার স্পিড বোট ১০ কোটি টাকা!   মুক্তিযুদ্ধে বিতর্কিতদের বিজয় দিবসের অনুষ্ঠানে আমন্ত্রণ না জানানোর নির্দেশনা   নেত্রকোণা জেলা সমিতি ইউএসএ ইনক্’-এর কমিটি গঠন   বুয়েটে আবরার হত্যা: ২৫ জনকে আসামি করে চার্জশিট   ভারতে পেঁয়াজের দাম ৮ টাকা, কৃষকের কান্নার ভিডিও ভাইরাল   গাজায় ইসরায়েলি হামলায় নিহত ৯   ইতালিতে মসজিদে হামলার পরিকল্পনাকারী আটক, বিপুল পরিমাণ অস্ত্র উদ্ধার   ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় দুর্ঘটনা: অটো ব্রেকে ট্রেন রেখে ঘুমাচ্ছিলেন চালকরা

মূল পাতা   >>   বিনোদন

নিউইয়র্কে মিস নেপাল প্রতিযোগিতার বিচারক হলেন ইঞ্জিনিয়ার হানিপ

নিউজ ডেস্ক

 প্রকাশিত: ২০১৯-০৮-২৩ ১৪:৩০:১৯

 আপডেট: ২০১৯-০৮-২৩ ১৪:৩৩:৫৫

নিউজ ডেস্ক: নিউইয়র্কে নেপালিদের মন জয় করলেন পিপল এন টেকের প্রতিষ্ঠাতা ইঞ্জিনিয়ার আবুবকর হানিপ। নর্থ আমেরিকার জনপ্রিয় আয়োজন মিস নেপাল প্রতিযোগিতায় প্রথমবারের মতো কোনো বাংলাদেশি হিসেবে বিচারকের আসন অলংকৃত করেন তিনি। শনিবার লং আইল্যান্ড সিটির মেলরোজ বলরুমে অনুষ্ঠিত মিস নেপাল নর্থ আমেরিকা ২০১৯-এ যুক্তরাষ্ট্র ও নেপাল থেকে আসা খ্যাতিমান ব্যক্তিত্বদের সাথে বিচারক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন আবুবকর হানিপ।
আয়োজনে নর্থ আমেরিকার বিভিন্ন শহর থেকে ১৬ জন প্রতিযোগী অংশ নেন। এদের মধ্যে মিস নেপাল-এর মুকুট অর্জন করেন নিউইয়র্কের প্রতিযোগী শ্রীয়া গাজুরেল। প্রথম রানার আপ হন কানাডার ভ্যানকুভারের আস্থা পান্ডে ও দ্বিতীয় রানার আপ হন ম্যাচাচুসেটসের প্রতিযোগী কৃতী কেসি।
অনুষ্ঠানে পিপল এন টেকের আবুবকর হানিপ ছাড়াও নেপালি বিচারক ছিলেন মিস নেপাল ওয়ার্ল্ড ২০১৮ বিজয়ী শ্রীঙ্খলা খাতিওয়াদা, নেপাল কমিউনিটির সামাজিক উদ্যোক্তা রাজু শ্রেষ্ঠ, জনপ্রিয় নেপালি রক এন্ড রোল শিল্পী আদ্রিয়ান প্রধান, কমিউনিটি নেতা ও লামা একাউন্টিংয়ের প্রতিষ্ঠাতা নামগেল লামা এবং এটর্নি বাসু ডি ফুলারা।  
দীর্ঘ কয়েক মাস ধরে শত শত প্রতিযোগী থেকে কয়েকদফা বাছাই করে ১৬ জনকে মিস নেপাল-এর গ্রান্ড ফিনালের জন্য মনোনীত করা হয়। এদের জন্য অনলাইনেও ভোট নেয়া হয়। হাজার হাজার নেপালি তাদের পছন্দের প্রতিযোগীকে ভোট দেন। সর্বশেষ বাছাইকৃত ১৬ জনকে বিভিন্ন পর্যায়ে গ্রুমিং শেষে প্রস্তুত করা হয় মূল মঞ্চের জন্য। গ্রান্ড ফিনালের কোরিওগ্রাফার ছিলেন মিস নেপাল ওয়ার্ল্ড ২০১০ মুকুট জয়ী সদিচ্ছা শ্রেষ্ঠ।
অনুষ্ঠানে তিন বিজয়ীর হাতে পুরস্কার তুলে দেন আবুবকর হানিপ। এ সময় বিজয়ীদের আরও পুরস্কৃত করেন টিভি সাংবাদিক ও উপস্থাপক হাসানুজ্জামান সাকী, এনআরবি কানেক্ট টিভির পরিচালক আরিফুল ইসলাম ও পিপল এন টেকের হিউম্যান রিসোর্স ম্যানেজার মিলন মনিরুজ্জামান।
অনুষ্ঠানে ইঞ্জিনিয়ার আবুবকর হানিপ বলেন, পিপল এন টেক যুক্তরাষ্ট্রে বিভিন্ন কমিউনিটির সাড়ে পাঁচ হাজার অভিবাসীকে প্রশিক্ষণ দিয়ে ৮০ হাজার থেকে দুই লাখ ডলার বেতনে চাকরি দিয়েছে। তারা অনেকেই আগে অড জব করতেন। কিন্তু আজ তারা সুপ্রতিষ্ঠিত। তিনি জানান, নেপালি কমিউনিটির কয়েকশ শিক্ষার্থীকে পিপল এন টেক উন্নত বেতনে চাকরি পাইয়ে দিয়েছে।
মিস নেপাল নর্থ আমেরিকা প্রতিযোগিতায় ইঞ্জিনিয়ার আবুবকর হানিপ বিচারক হওয়ায় এবং পিপল এন টেক অনুষ্ঠানে তিন বিজয়ীকে আইটি স্কলারশীপ প্রদান করায় আয়োজকরা ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের ভূঁয়সী প্রশংসা করেন। তারা বলেন, পিপল এন টেক ও ইঞ্জিনিয়ার হানিপ শুধু বাংলাদেশিদেরই নয়, অন্যান্য দেশের কমিউনিটির পাশাপাশি অসংখ্য নেপালিকে অড জব থেকে মুক্তি দিয়েছেন। নেপালিরাও এখন অনেকে পিপল এন টেক থেকে আইটি প্রশিক্ষণ নিয়ে ভাল বেতনে সম্মানজনক পেশায় নিজেদের নিয়োজিত করতে সক্ষম হয়েছেন। অনুষ্ঠানে নেপালি বিশিষ্ট ব্যক্তিরা তাদের বক্তৃতায় পিপল এন টেক ও ইঞ্জিনিয়ার আবুবকর হানিপকে এজন্য ধন্যবাদ জানান।    

এই খবরটি মোট পড়া হয়েছে ১৬৩ বার

আপনার মন্তব্য

সর্বাধিক পঠিত