যুক্তরাষ্ট্রে আজ রবিবার, ২৬ মে, ২০১৯ ইং

|   ঢাকা - 07:59pm

|   লন্ডন - 02:59pm

|   নিউইয়র্ক - 09:59am

ব্রেকিং নিউজ >>   আমি ইফতারে যাব : মমতা

  সর্বশেষ :

  সংবিধান সমুন্নত রাখতে জনগণের ঐক্য প্রয়োজন: ড. কামাল   আমি ইফতারে যাব : মমতা   ইফতারে যোগ দিয়ে চমকে দিলেন নেদারল্যান্ডসের রাজা   শেখ হাসিনার নির্দেশ উপেক্ষা করে দলের বিরুদ্ধে শাজাহান খান   মোদির জয়ের পরই ভারতে নারীসহ ৩ মুসলিমকে নির্যাতন   ইরানকে ঠেকাতে সৌদিকে অস্ত্র দিচ্ছেন ট্রাম্প   প্রথম মুসলিম প্রধানমন্ত্রী পেতে পারে ব্রিটেন!   এবারের বাজেট ৫ লাখ কোটি টাকার ওপরে: প্রধানমন্ত্রী   শ্রীলঙ্কায় বোমা হামলায় নিহতদের স্মরণে সিডনিতে শোক   পদত্যাগ করছেন রাহুল গান্ধী   খালেদার মুক্তির সঙ্গে সংসদে যোগ দেয়ার সম্পর্ক নেই : ফখরুল   ভারতের নতুন সরকারের আমলে তিস্তা চুক্তি হবে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী   পশ্চিমবঙ্গে দফায় দফায় সংঘর্ষ, বিজেপি নেতা গুলিবিদ্ধ   পদত্যাগের ঘোষণা দিলেন থেরেসা মে   মোদির গুজরাটে ভয়াবহ আগুন, নিহত ১৮

মূল পাতা   >>   বিনোদন

সিডনীতে প্রেম পুরানের ২য় ও ৩য় প্রদর্শনী ১০ ফেব্রুয়ারি

নিউজ ডেস্ক

 প্রকাশিত: ২০১৮-০১-২৪ ১২:০৮:২২

নিউজ ডেস্ক: আসছে ১০ই ফেব্রুয়ারি শনিবার ওয়ালী পার্কের Horizon Theatre এ ২য় ও ৩য় প্রদর্শনী হতে যাচ্ছে কবিতা বিকেল প্রযোজিত বাচিকনাট্য প্রেম-পুরাণ। নাটকটির প্রযোজনা ভাবনার মূলকথা হচ্ছে সুন্দর বন। কোন এক পুরাণ কালে মালঞ্চের জলে ভাসতে ভাসতে সত্যিই কি কালীর চরে এসে উঠেছিল শ্বেতহরিণী বা জামাল খাঁ? নাকি এ কেবলি কবির কল্পণা? কালীর চর সত্য। তাকে ঘিরে আজও বহমান মালঞ্চ। বন কেড়ে নেবার চেষ্টা আর তার বিরুদ্ধে যুদ্ধও চিরকালের। বাদাবনের মানুষ এক সময় বাঘের থাবার ভয়ে বনদেবীর স্মরণ নিত। আজ নেয় শিল্পায়নের ভয়ে। গরানের শ্বাসমূলে ধুঁকছে বাদাবনের প্রান। তবু কমতে কমতে বুড়োর মাথার চুলের মতন অবশিষ্ট যে টুকুন বন আজও টিকে আছে। সেইখানে কোন গাছের গায়ে আজও যদি কান পাতে কেউ; যদি কেউ গোল পাতার ঝোঁপের ফাঁকে রাখে সন্ধানী চোখ - বনদেবী আর জামাল পীরকে দেখতে পায় তারা!

জনশ্রুতি এই যে, যেখানেই বাদাবনের উপর হামলে পড়েছে বেণিয়ার লোভ, সেখানেই প্রতিরোধ গড়তে দেখা গেছে জামাল আর শ্বেতহরিণীকে। প্রেম, নরনারীর কামনারও অধিক হয়ে উঠে জড়িয়ে নিয়েছে দুই বাংলার বাদাবন। বাদাবনের মানুষের বিশ্বাস, লোভের বাঘ তাদের ঘাড়ে লাফিয়ে পড়ার আগেই তারা আবার একদিন আসিবেন এই বাংলায়।

আমাদেরও খুব বিশ্বাস করতে ইচ্ছে করে - লড়াই হবে। বাঁচার লড়াই। চলবে বহুকাল। লড়াই ছড়িয়ে পড়বে জল থেকে জঙ্গলে, পাহাড় থেকে সমতলে। এ লড়াইয়ে জিতবে কারা? কবিতা বিকেলের এই প্রশ্নের নামই - ‘প্রেম-পুরাণ’। এই প্রযোজনার পোষ্টার, মঞ্চ সজ্জ্বা, প্রতিটি সংলাপ উপকূল বাংলার নোনা মাটির প্রতি কবিতা বিকেল’র ঋণ স্বীকার মাত্র।যারা লড়ছেন:
ওয়াসিফ আহমেদ শুভ (দশরথ কেওট, সূত্রধর ৭)
যোবাইদা আখতার রত্না (কুশলা, সূত্রধর ২)

কাজী সুলতানা শিমি (শ্বেতহরিণী)
শাকিল আরমান চৌধুরী (জামাল খাঁ, সূত্রধর ৪)
সাবিরা রহমান রীমা (সূত্রধর ৫)
মুনা মুসতফা (সূত্রধর ৮)
আফসানা রুচি (মালতি, সূত্রধর ৩)
জ্যোতি বিশ্বাস (সূত্রধর ৬) রাজন নন্দী (সূত্রধর ১) আলোক ও মঞ্চ ব্যবস্থাপনা: শীর্ষেন্দু নন্দী। আবহ সংগীত : তামিমা শাহরীন, শান্তনু কর ও জ্যোতি বিশ্বাস।রচনা ও নির্মাণ: রাজন নন্দী।


এলএবাংলাটাইমস//এলআরটি 

এই খবরটি মোট পড়া হয়েছে ১৪২৮ বার

আপনার মন্তব্য