যুক্তরাষ্ট্রে আজ বুধবার, ২৩ জানুয়ারী, ২০১৯ ইং

|   ঢাকা - 09:25am

|   লন্ডন - 03:25am

|   নিউইয়র্ক - 10:25pm

  সর্বশেষ :

  নিউইয়র্কে নববর্ষ উপলক্ষে সাংবাদিকদের সাথে জাতিসংঘে বাংলাদেশ স্থায়ী মিশনের শুভেচ্ছা বিনিময়   প্যারেডের থ্রিডি প্রদর্শনীর মাধ্যমে বাফলার ফান্ডরাইজিং অনুষ্ঠিত   নিউ ইয়র্কে মুসলমানদের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র, গ্রেপ্তার ৪   আরব আমিরাতে অবৈধ অভিবাসীকে আশ্রয় দিলে এক লাখ দিরহাম জরিমানা   টয়লেট টিস্যুতে ‘আল্লাহ’, বিক্ষুব্ধ যুক্তরাজ্যের মুসলিমরা   ১১ মার্চ ডাকসু নির্বাচন   বিশ্বের শীর্ষ ১০০ চিন্তাবিদের তালিকায় শেখ হাসিনা   শান্তি ও মানবাধিকারের অনন্য আশ্রয়ভূমি ফ্রান্স   কারাগারে ‘মারা গেছেন’ মসজিদে নববীর এক ইমাম   ক্যালিফোর্নিয়ায় বাংলাদেশি খুদে শিক্ষার্থীর চমক, ৯ বছরেই কলেজে   আইসিসির বর্ষসেরা ওয়ানডে দলে মোস্তাফিজ   সালমান খানকে প্রত্যাখ্যান করেছিলেন তিনি   কৃষ্ণ সাগরে দুই জাহাজে আগুন, নিহত ১০   প্যাটারসন সিটির পাবলিক স্কুলে হালাল ফুড   আর্জেন্টাইন ফুটবলারসহ দুজনকে নিয়ে বিমান নিখোঁজ

মূল পাতা   >>   বহিঃ বিশ্ব

বাংলাদেশ সীমান্তে বেড়া নির্মাণে কেন্দ্রীয় সরকারকে জমি দিলেন পশ্চিমবঙ্গের মমতা

নিউজ ডেস্ক

 প্রকাশিত: ২০১৮-১১-০৯ ১৩:২৯:৫২

নিউজ ডেস্ক: বাংলাদেশ সীমান্তে বেড়া নির্মাণের জন্য ভারতের কেন্দ্রীয় সরকারকে ৩০০ একর জমি দিলেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। শুক্রবার প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানায় ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভি।

এতে বলা হয়, বাংলাদেশ সীমান্ত বরাবর বেড়া নির্মাণের জন্য ৩০০ একর জমি দিতে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রীকে অনুরোধ করেছিলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং। এতদিন জমি দেয়ার ব্যাপারে আপত্তি করছিল পশ্চিমবঙ্গ সরকার। তাই বেড়া নির্মাণের কাজে দেরি হচ্ছিল।

আরও বলা হয়, কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী পরে জমি চেয়ে একটি চিঠি দেন পশ্চিমবঙ্গ সরকারকে। তার চিঠি পাওয়ার পর জমি দিতে দেরি করেননি মমতা। এমনিতেই রাজনাথের সঙ্গে তার সম্পর্ক ভালো। অনেকেই মনে করেন, বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের মধ্যে রাজনাথ সিংয়ের গ্রহণযোগ্যতা প্রশ্নাতীত।

প্রতিবেদনটিতে বলা হয়, বাংলাদেশের সঙ্গে ভারতের সীমান্ত এলাকার পরিধি ৪ হাজার ৯৬ কিলোমিটার। এর ২ হাজার ২১৬ কিলোমিটার পশ্চিমবঙ্গের সঙ্গে। তাই অনুপ্রবেশ থেকে শুরু করে চোরাচালান রুখতে এই এলাকায় বেড়া নির্মাণের পদক্ষেপ নিয়েছে ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার।

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী পশ্চিমবঙ্গের মতো উত্তরপ্রদেশ, ত্রিপুরা, মেঘালয় ও বিহারের মুখ্যমন্ত্রীকেও জমি চেয়ে চিঠি লেখেন বলেও উল্লেখ করা হয় ভারতীয় গণমাধ্যমটির প্রতিবেদনে।

এদিকে শুক্রবার চীন থেকে শুরু করে নেপাল ও পাকিস্তান সীমান্তের পরিস্থিতি নিয়ে সরকারি কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক করেন রাজনাথ। তারা জানান, বেশকিছু রাজ্য সরকার পরিবেশ সংক্রান্ত ছাড়পত্র না দেয়ায় কয়েকটি কাজ আটকে আছে। এসব রাজ্যের সঙ্গে আলোচনা করার পরামর্শ দেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী।

এছাড়া এই বৈঠকে গুজরাটে ১৮টি কোস্টাল বর্ডার আউটপোস্ট তৈরির সিদ্ধান্ত হয়েছে।

এই খবরটি মোট পড়া হয়েছে ৬০৮ বার

আপনার মন্তব্য