যুক্তরাষ্ট্রে আজ বৃহস্পতিবার, ০৯ Jul, ২০২০ ইং

|   ঢাকা - 03:08pm

|   লন্ডন - 10:08am

|   নিউইয়র্ক - 05:08am

  সর্বশেষ :

  ১২৫ বাংলাদেশিকে বিমাবন্দর থেকে ফিরিয়ে দিল ইতালি   নর্থ মেসিডোনিয়া সীমান্তে ট্রাক থেকে ১৪৪ বাংলাদেশি অভিবাসী উদ্ধার   দেশে একদিনে মৃত্যু ৪৬, শনাক্ত ৩৪৮৯   ১৩০০০ শিক্ষার্থীর ভার্চুয়াল ক্লাসের ব্যবস্থা আমেরিকান বিশ্ববিদ্যালয়ের   যুক্তরাষ্ট্রে অনলাইন কোর্স নিতে পারবে না বিদেশী শিক্ষার্থীরা   করোনা স্বাস্থ্যবিধি লঙ্ঘনে জরিমানা দিতে হবে রেষ্টুরেন্টকেও   অফিসারদের ব্যাপক হারে ছুটির তদন্তে লস এঞ্জেলেস পুলিশ   কিশোরীকে অপহরণ, ধর্ষণ ও হত্যার দায়ে আটক ১   লস এঞ্জেলেসে করোনায় আক্রান্তের ৪৮ শতাংশ যুবক   করোনায় আক্রান্ত ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট   দেশে একদিনে মৃত্যু ৫৫, শনাক্ত ৩০২৭   ৪ জুলাইয়ের ছুটিতে ক্যালিফোর্নিয়ায় করোনার সর্বোচ্চ বিস্তার   যুক্তরাষ্ট্র ছাড়তে হতে পারে বিদেশী শিক্ষার্থীদের   করোনা সংকটে চিকিৎসকদের নিয়ে এলএ বাংলা টাইমসের বিশেষ আয়োজন   করোনা ভ্যাক্সিন আবিষ্কারে নভাভ্যাক্স পেলো সর্বোচ্চ $১.৬ বিলিয়ন

মূল পাতা   >>   বহিঃ বিশ্ব

ফিলিস্তিনে ইসরায়েলের বসতি স্থাপনের বৈধতা দিল যুক্তরাষ্ট্র

নিউজ ডেস্ক

 প্রকাশিত: ২০১৯-১১-১৯ ১০:৫৬:৫৬

নিউজ ডেস্ক: দখলকৃত ফিলিস্তিনের পশ্চিম তীরে ইসরায়েলের বসতি স্থাপন আন্তর্জাতিক আইনের সঙ্গে ‘অসামঞ্জস্যপূর্ণ নয়’ বলে মন্তব্য করেছে যুক্তরাষ্ট্র।

সোমবার মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও যুক্তরাষ্ট্রের এ অবস্থান ঘোষণা করেছেন।

পম্পেও বলেছেন, ‘সব পক্ষের আইনি যুক্তি সতর্কতার সঙ্গে পর্যালোচনার পর এই প্রশাসন সিদ্ধান্তে উপনীত হয়েছে যে, পশ্চিম তীরে বেসামরিক নাগরিকদের জন্য ইসরায়েলের বসতি স্থাপন আন্তর্জাতিক আইনের সঙ্গে অসামঞ্জস্যপূর্ণ নয়।’

তিনি জানিয়েছেন, ১৯৭৮ সালে মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় পশ্চিম তীরে ইসরায়েলের বসতি স্থাপন ‘আন্তর্জাতিক আইনের সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ নয়’ বলে যে আইনি মত দিয়েছিল তা প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের প্রশাসন আর মানতে বাধ্য নয়।

ট্রাম্প প্রশাসনের নতুন এ অবস্থানকে স্বাভাবিকভাবেই স্বাগত জানিয়েছে ইসরায়েল। তবে এর তীব্র নিন্দা জানিয়েছে ফিলিস্তিন।

ফিলিস্তিনি প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাসের এক মুখপাত্র বলেছেন,যুক্তরাষ্ট্রের এই সিদ্ধান্ত ‘সম্পূর্ণভাবে আন্তর্জাতিক আইনের বিপরীত’।

মুখপাত্র নাবিল আবু রুদিনাহ বলেন,‘আন্তর্জাতিক আইনের সিদ্ধান্ত বাতিল করার যোগ্য বা কর্তৃপক্ষ যুক্তরাষ্ট্র নয়। ইসরায়েলি বসতি স্থাপনের আইনি বৈধতা দেওয়ার কোনো অধিকারও তাদের নেই।’

১৯৬৭ সালে মধ্যপ্রাচ্য যুদ্ধে পশ্চিম তীর ও পূর্ব জেরুজালেম ইসরায়েল অধিগ্রহণ করার পর সেখানে একের পর এক আবাসিক এলাকা তৈরি করছে তেল আবিব। এই বসতি নির্মাণ আন্তর্জাতিক আইন অনুযায়ী অবৈধ। ২০১৬ সালে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের সর্বশেষ সিদ্ধান্তেও বলা হয়েছিল, চতুর্থ জেনেভা কনভেনশন লঙ্ঘন করায় ইসরায়েলের এই বসতি নির্মাণ অবৈধ।

এই খবরটি মোট পড়া হয়েছে ২৭৫ বার

আপনার মন্তব্য