যুক্তরাষ্ট্রে আজ শনিবার, ২০ জানুয়ারী, ২০১৮ ইং

|   ঢাকা - 03:20pm

|   লন্ডন - 09:20am

|   নিউইয়র্ক - 04:20am

  সর্বশেষ :

  টাওয়ার হ্যামলেটসকে ‘ট্রাম্পমুক্ত এলাকা’ ঘোষণা : নেতৃত্বে বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত কাউন্সিলর   সিলেটে অর্থমন্ত্রীর গাড়ির ধাক্কায় ১০ জন আহত   নাইজেরিয়ায় আত্মঘাতী বোমা হামলায় নিহত ১২   জাতিসংঘের কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ   রাজশাহীতে প্রথম ফ্লাইওভার নির্মাণের সিদ্ধান্ত   তহবিল সংকটের কারণে ফের শাটডাউনের শঙ্কায় যুক্তরাষ্ট্র   ফিলিস্তিনকে সাড়ে ৪ কোটি ডলার খাদ্য সহায়তা দেবে না যুক্তরাষ্ট্র   নারায়ণগঞ্জের ঘটনায় জড়িতদের বিচার হবেই : ওবায়দুল কাদের   শ্রীলঙ্কাকে হারিয়ে ফাইনালে বাংলাদেশ   হিজাব পরে শ্যাম্পুর বিজ্ঞাপনে   ক্যান্সার চিকিৎসা গবেষণায় যুগান্তকারী আবিষ্কার   লস এঞ্জেলেসে পিঠা উৎসব অনুষ্ঠিত   বাংলাদেশ ডে প্যারেড উপলক্ষে বাফলার ফান্ড রাইজিং অনুষ্ঠিত   ইউরোপে অবৈধ বাংলাদেশিদের ফেরাতে প্রণোদনা দেবে ইইউ   ঢাকায় সাক্ষরতার হার ৭০.৫৪

মূল পাতা   >>   বহিঃ বিশ্ব

রানী এলিজাবেথের অন্তর্বাস নিয়ে বই লিখে বিপাকে লেখক

নিউজ ডেস্ক

 প্রকাশিত: ২০১৮-০১-১২ ১৩:০১:৫৪

নিউজ ডেস্ক: ব্রিটেনের রানী এলিজাবেথসহ রাজপরিবারের নারীদের অন্তর্বাস নিয়ে বই লিখে বিপাকে পড়েছে অন্তর্বাস সরবরাহকারী একটি প্রতিষ্ঠান। প্রায় পাঁচ দশক ধরে রাজপরিবারের নারীদের জন্য অন্তর্বাস সরবরাহকারী ওই প্রতিষ্ঠানটির সরবরাহ অনুমতি বাতিল করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার বিবিসি এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, রিগবি অ্যান্ড পিলার নামে বিলাসী অন্তর্বাস প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠানটি লন্ডনে প্রতিষ্ঠিত হয়। ১৯৬০ সাল থেকে প্রতিষ্ঠানটি রাজপরিবারে অন্তর্বাস সরবরাহ করে আসছে।

রানীর জন্য অন্তর্বাস তৈরিকারী জুন কেনটন সম্প্রতি ‘স্টর্ম ইন এ ডি-কাপ’ শিরোণামে বই লেখেন। রানীর অন্তর্বাস তৈরিকারী হিসেবে কেনটন নিয়মিত বাকিংহাম প্যালেসে যাতায়াত করতেন। তিনি  রানী প্রথম এলিজাবেথ ও প্রিন্সেস মার্গারেটেরও অন্তর্বাস তৈরি করতেন। ৮২ বছরের কেনটনের লেখা বইটি গত বছরের মার্চে প্রকাশিত হয় এবং এতে তিনি রাজপরিবারের সদস্যদের সঙ্গে সাক্ষাতের বিবরণ দিয়েছেন। এরপরই রাজপরিবারে বিভিন্ন ধরণের পণ্য সরবরাহ তদারককারী সংস্থা দ্য রয়েল ওয়ারেন্ট অ্যাসোসিয়েশন রিগবি অ্যান্ড পিলারের সরবরাহ অনুমোদন বাতিল করে।

কেনটন এ ঘটনায় দুঃখপ্রকাশ করে জানিয়েছেন, তার বইতে উদ্বিগ্ন হওয়ার মতো কোনো বিষয় নেই। তার কাছে এই সিদ্ধান্ত অবিশ্বাস্য মনে হয়েছে।

বাকিংহাম প্যালেস থেকে এ ব্যাপারে বলা হয়েছে, ‘কোনো একক প্রতিষ্ঠানের ব্যাপারে প্রাসাদের পক্ষ থেকে কোনো মন্তব্য করা হয় না।’


এলএবাংলাটাইমস/আই/এলআরটি

এই খবরটি মোট পড়া হয়েছে ২৭৪ বার

আপনার মন্তব্য