যুক্তরাষ্ট্রে আজ শুক্রবার, ২০ এপ্রিল, ২০১৮ ইং

|   ঢাকা - 01:10pm

|   লন্ডন - 08:10am

|   নিউইয়র্ক - 03:10am

  সর্বশেষ :

  নিউইয়র্কে ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবসের আলোচনা সভা   লন্ডনে বিক্ষোভের মুখে মোদি   কোটা সংস্কার আন্দোলন: ঢাবি ক্যাম্পাসজুড়ে ভীতি   কোচিং ব্যবসায়ীকে পিটিয়ে পদত্যাগ করলেন ছাত্রলীগ নেতা রনি   খালেদা জিয়ার সঙ্গে দেখা করতে পারলেন না বিএনপি নেতারা   প্রবাসীদের ভোটাধিকার দিতে নির্বাচন কমিশন কাজ করছে: সিইসি   ইন্দোনেশিয়ায় ভয়াবহ ভূমিকম্প, ধসে পড়েছে শতাধিক বাড়িঘর   সৌদিতে সিনেমা হল উদ্বোধন   কিমের সঙ্গে আলোচনা সফল না হলে পদত্যাগ : আবেকে ট্রাম্প   টাইম ম্যাগাজিনের ১০০ প্রভাবশালীর তালিকায় শেখ হাসিনা   বিশ্বের ৯৫ শতাংশ মানুষ দূষিত বায়ু গ্রহণ করছে   বাংলাদেশের নির্বাচন নিয়ে দুশ্চিন্তায় ভারত   আরবদের বিরুদ্ধে আরবেদরই কাজে লাগাতে চাইছেন ট্রাম্প   বিসিবির চুক্তি থেকে বাদ সৌম্য-তাসকিন-সাব্বির   সৌদিতে আবার সিলিন্ডার বিস্ফোরণে সাত বাংলাদেশির মৃত্যু

মূল পাতা   >>   বহিঃ বিশ্ব

জেলে বসেও টাকা আয় করছেন ‘ধর্মগুরু’ রাম রহিম!

নিউজ ডেস্ক

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৪-১৪ ১৪:৩৩:০১

নিউজ ডেস্ক: ভারতের আলোচিত ভণ্ড ধর্মগুরু গুরমিত রাম রহিম সিং ইনসান জেলে বসেও টাকা আয় করেন। তবে তা ধর্মের নামে ভণ্ডামি করে বা মানুষ ঠকিয়ে নয়; জেলে অদক্ষ শ্রমিক হিসেবে কাজ করে রাম রহিম দৈনিক বিশ টাকা করে আয় করেন।

ডেরা সাচ্চা সওদা’র সাবেক প্রধান গুরমিত রাম রহিম সিংহ ইনসান দুই সন্ন্যাসিনীকে ধর্ষণের দায়ে ২০ বছরের কারাদণ্ড ভোগ করছেন। তাকে রাখা হয়েছে সুনারিয়া (রোহতক) জেলে।

জানা গেছে, জেলে আসার পর অবসাদে ভুগতেন। কখনও দেখা দিত প্রবল অস্থিরতা। সেখান থেকে বেরিয়ে আসার চেষ্টা করছেন।

জেল কর্তৃপক্ষ জানায়, এখন তিনি নিয়মনিষ্ঠ, ভদ্র। আগের রাম রহিম আর এখনকার রাম রহিমের মধ্যে আকাশ-পাতাল তফাত। বাবার চেনা জেল্লা নাকি কেড়ে নিয়েছে কারাগারের বন্দি জীবন। তার দাড়ি এখন ধূসর। জেলের খামারে ফসল ফলানোর জন্য প্রতিদিনের হাড়ভাঙা খাটুনিতে আপত্তিও করেন না। রংচঙে জামাকাপড় ছাড়া যার চলতো না, এখন তার পরনে সাদা কুর্তা ও পায়জামা। অনিয়মকে যিনি নিয়ম করে নিয়েছিলেন, এখন রীতিমতো জেলখানার নিয়মের মধ্যেই কাটে তার বন্দি জীবন।

উল্লেখ্য, দুই অনুসারীকে ধর্ষণের দায়ে আদালতে দোষী সাব্যস্ত হয়ে গত বছরের ২৫ আগস্ট থেকে জেলে আছেন রাম রহিম।

এলএবাংলাটাইমস/আই/এলআরটি

এই খবরটি মোট পড়া হয়েছে ৬৮৬ বার

আপনার মন্তব্য

সর্বাধিক পঠিত