যুক্তরাষ্ট্রে আজ সোমবার, ১৯ অগাস্ট, ২০১৯ ইং

|   ঢাকা - 10:43am

|   লন্ডন - 05:43am

|   নিউইয়র্ক - 12:43am

  সর্বশেষ :

  পুড়ে যাওয়া বস্তি যেন দর্শনীয় স্থান!   ডেঙ্গু: চব্বিশ ঘণ্টায় হাসপাতালে ভর্তি ১৭০৬   আসামের এনআরসি ও কাশ্মিরের স্বায়ত্তশাসন বাতিল: নেপথ্যে মোদির মুসলিমবিদ্বেষ   কাশ্মীর ইস্যুতে আরব দেশগুলোর নীরবতার নেপথ্য কারণ কী?   কাবুলে বিয়ের অনুষ্ঠানে হামলা, নিহত ৬৩   মেট্রো ওয়াশিংটন আওয়ামী লীগ যুগ্ম সম্পাদক আলমগীর সোহেল’র ইন্তেকাল   ভারতের পরমাণু অস্ত্রভাণ্ডার এখন ফ্যাসিস্ট মোদির হাতে : ইমরান খানের হুঁশিয়ারি   রাঙ্গামাটিতে সন্ত্রাসীদের সাথে গুলি বিনিময়ে এক সেনাসদস্য নিহত   বঙ্গবন্ধু ছাড়া বাংলাদেশ কল্পনা করা যায় না: মুক্তিযোদ্বা ডা: সিরাজুল ইসলাম   ঈদযাত্রায় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ২২৪   কাশ্মীরে বিধি-নিষেধ দ্রুত তুলে দেওয়ার আহ্বান ওআইসির   অরল্যানডোতে বঙ্গবন্ধুর প্রতি সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা   আ.ন.ম শফিকুল হকের মৃত্যুতে আনোয়ার শাহদাতের শোক   মনের সুখই আসল সুখ   পাইলট যেভাবে বিমানটিকে ভুট্টা ক্ষেতে নামালেন

মূল পাতা   >>   লাইফ স্টাইল

যে ১০টি জিনিস কখনোই রাখবেন না বাথরুমে

নিউজ ডেস্ক

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৯-১৫ ০৯:৪০:১৭

নিউজ ডেস্ক: ঘরের মাঝে থেকেও বাথরুমের পরিবেশটা আলাদা। একটু বেশি আর্দ্র এবং একটু বেশি জীবাণু থাকে বাথরুমে, যতবারই পরিষ্কার করা হোক না কেন। বাথরুমে এমন অনেক কিছুই রাখা হয় যা গোসলের জন্য বা সৌন্দর্যচর্চায় দরকারি হলেও আসলে বাথরুমের বাইরে রাখা দরকার।  বাথরুমে রাখা হলে এসব জিনিসের কার্যকারিতা কমে যায় এমনকি দ্রুত নষ্টও হয়ে যায়।  এ জিনিসগুলো আপনার বাথরুমে থাকলে অতি সত্ত্বর বের করে ফেলুন-

১) ওষুধ
ওষুধ সবসময় ঠাণ্ডা জায়গায় রাখতে হয়। ঘরের কোনো অন্ধকার এবং শুকনো ড্রয়ারে বা আলমারিতে তা রাখতে পারেন। কিন্তু বাথরুমে নয়। বাথরুমে তাপ এবং আর্দ্রতা দুটোই বেশি হয় যার ফলে ওষুধ দ্রুত নষ্ট হয়ে যেতে পারে।

২) তোয়ালে
বাথরুমে আর্দ্রতা বেশি থাকায় সেখানে খুব বেশি জীবাণু ছড়ায়। এ কারণে তোয়ালেতেও ফাঙ্গাস বংশবিস্তার করতে পারে।  গোসলের পর তোয়ালে বারান্দায় বা ফ্যানের নিচে মেলে শুকিয়ে নিন। অতিরিক্ত তোয়ালে আলমারিতে রাখুন।

৩) বই
টয়লেটে সময় বেশি লাগে বলে অনেকেই এই সময়টায় বই পড়েন এবং টয়লেটে দিয়েকটা পেপারব্যাক রাখেন। কিন্তু তা করলে বইগুলো নষ্ট হয়ে যাবে খুব তাড়াতাড়ি।
অনেকেই গোসলের সময়ে ইয়ারিং, আংটি বা চেইন বাথরুমে খুলে রাখেন। ছবি: সংগৃহীত

৪) গহনা
বাইরে থেকে ফিরে অনেকেই গোসলের সময়ে ইয়ারিং, আংটি বা চেইন বাথরুমে খুলে রাখেন।  কিন্তু বাথরুমের বাইরে জুয়েলারি বক্সে গহনা রাখাই ভালো। কারণ বাথরুমে পানি ও আর্দ্রতার সংস্পর্শে খুব দ্রুত গহনায় মরিচা ধরে যেতে পারে।

৫) টুথব্রাশ
আরে, টুথব্রাশ বাথরুমে থাকবে না তো কোথায় থাকবে? সমস্যা হলো, টয়লেট ফ্লাশ করার সময়ে বাতাসে অনেক জীবাণু ছড়িয়ে পড়ে এবং এর অনেকটাই আটকে যায় টুথব্রাশে।  সমস্যাটি এড়াতে ব্যবহারের পর টুথব্রাশ বাইরে রাখুন। অনেকের বাড়িতেই ডাইনিং রুম বা কিচেন লাগোয়া একটা বেসিন থাকে। সেখানে টুথব্রাশ রাখতে পারেন।

৬) মেকআপ

মেকআপের পেছনে প্রচুর খরচ করেন অনেকে। এই মেকআপ বাথরুমে রাখা মানে টাকাগুলো একেবারে পানিতে ফেলা। বাথরুমে রাখলে দ্রুত মেকআপ নষ্ট হয়। এমনকি মেকআপে ছাতা পড়ার কারণে ত্বকেরও ক্ষতি হতে পারে। টুথব্রাশের মতো একইভাবে নোংরা হতে পারে মেকআপ ব্রাশ। এ কারণে মেকআপ কখনোই বাথরুমে রাখবেন না।

৭) পারফিউম
গোসলের পর পারফিউম ব্যবহার করে তারপরেই বাথরুম থেকে বের হন অনেকে। কিন্তু বাথরুমে রাখলে পারফিউমের সুগন্ধ নষ্ট হয়ে যেতে পারে দ্রুত। উত্তাপ এবং সূর্যের আলো থেকে দূরে রাখুন পারফিউম।
বাথরুমের গরম ও আর্দ্রতার কারণে নেইলপলিশ খুব কম সময়ে নষ্ট হয়ে যায়। ছবি: সংগৃহীত

৮) নেইলপলিশ
নেইল পলিশ প্রায় দুই বছর পর্যন্ত ভালো থাকে। কিন্তু বাথরুমের গরম ও আর্দ্রতার কারণে এর আগেই নেইলপলিশ নষ্ট হয়ে যায়, খুব ঘন ও চটচটে হয়ে যায়, সমানভাবে দেওয়া যায় না বা সহজেই ভেঙে চলটা উঠে যায়।

৯) রেজর এবং রেজরের ব্লেড
বাথরুমে রেজর রাখলে আর্দ্রতার কারণে তা ভোঁতা হয়ে যেতে পারে এমনকি মরিচাও পড়তে পারে। রেজর ব্যবহারের পর ভালো করে শুকিয়ে রাখুন। এতে এর আয়ু বাড়বে।

১০) ইলেকট্রনিকস
ওয়াটারপ্রুফ নয় এমন ইলেকট্রনিকস বাথরুমে নেওয়া যাবে না। এমনকি আপনার স্মার্টফোনটিও না।  দামি জিনিসটা খুব সহজেই নষ্ট হয়ে যেতে পারে।

এই খবরটি মোট পড়া হয়েছে ১১৫৬ বার

আপনার মন্তব্য