যুক্তরাষ্ট্রে আজ শনিবার, ২০ Jul, ২০১৯ ইং

|   ঢাকা - 09:16am

|   লন্ডন - 04:16am

|   নিউইয়র্ক - 11:16pm

  সর্বশেষ :

  আগুন থেকে বাঁচতে ১৯ তলা বেয়ে নামলেন 'স্পাইডারম্যানে'র মতো!   দুবাইয়ে দোকান থেকে মদ কিনতে পারবে পর্যটকরা   বাংলাদেশে সংখ্যালঘু নির্যাতনের ঘটনা ঘটেনি: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী   প্রিয়া সাহাকে দ্রুত আইনের আওতায় আনার দাবি ১৪ দলের   মার্কিন সেনাদের থাকার অনুমতি দিলেন সৌদি বাদশাহ   আমেরিকা আমাদের সবার : মিশেল ওবামা   ২৭ ও ২৮ জুলাই লস এঞ্জেলেসে বর্ণাঢ্য আনন্দমেলা   দেশের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রের জন্য প্রিয়া সাহাকে আইনের আওতায় আনা হোক   প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী প্রতারণার শিকার   ফিলিস্তিন যেতে নেতানিয়াহুর অনুমতি লাগবে মার্কিন মুসলিম এমপিদের!   নেত্রকোনার পর এবার রাজশাহীতে শিশুকে গলা কেটে হত্যার চেষ্টা   হত্যায় জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছেন মিন্নি, রিমান্ডে রিশান   কাবুল বিশ্ববিদ্যালয়ের বাইরে বোমা বিস্ফোরণ, নিহত ৬   ইরানের ড্রোন ধ্বংস করেছে যুক্তরাষ্ট্র   উদ্ভট দাবি নিয়ে ট্রাম্পের কাছে বাংলাদেশি নারীর নালিশ, সমালোচনার ঝড়

মূল পাতা   >>   স্বদেশ

কানাডার উচ্চ বিদ্যালয়ের পাঠ্য বইয়ে ড. ইউনূসের কাহিনী

নিউজ ডেস্ক

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৯-১৩ ১০:৩৭:৩৯

নিউজ ডেস্ক: নোবেল লরিয়েট প্রফেসর মুহাম্মদ ইউনূস ও তাঁর প্রতিষ্ঠিত গ্রামীণ ব্যাংকের কাহিনী এখন কানাডার সপ্তম শ্রেণীর জাতীয় পাঠক্রমের অংশ। কানাডার সপ্তম শ্রেণীর ছাত্রদের একটি পাঠ্য বই হচ্ছে ‘‘কমপ্লিট কানাডিয়ান কারিক্যুলাম গ্রেড ৭” যেখানে ছাত্ররা গণিত, ইংরেজী ভাষা, ইতিহাস, বিজ্ঞান ও ভূগোল বিষয়ে জ্ঞান লাভ করে থাকে। প্রফেসর ইউনূস ও গ্রামীণ ব্যাংকের কাহিনী ইংরেজী পাঠ্য বইতে সন্নিবেশিত হয়েছে।

কাহিনীতে তুলে ধরা হয়েছে কীভাবে প্রফেসর ইউনূস বাংলাদেশের একটি দরিদ্র গ্রামে যান এবং সেখানে এক মহিলার সাক্ষাৎ পান যে বাঁশের মোড়া তৈরী করতো, কিন্তু বাঁশের উচ্চ দাম ও গ্রামের মহাজনদের উচ্চ সুদের কারণে আর্থিকভাবে হিমশিম খাচ্ছিল। আর তখনই প্রফেসর ইউনূস তাকে ও তার মতো আরো অনেককে নিজের পকেট থেকে ২৭ মার্কিন ডলার ঋণ দেন যাতে তারা দারিদ্রের দুষ্টচক্র থেকে বের হবার উদ্দেশ্যে নিজেরাই ব্যবসা শুরু করতে পারে।

এই কাহিনীর মূল উদ্দেশ্য ক্ষুদ্রঋণের ধারণা কীভাবে জন্মলাভ করলো এবং এটা কীভাবে বহু মানুষের জীবনে ইতিবাচক পরিবর্তন এনেছে সে সম্পর্কে শিশুদেরকে শিক্ষা দেয়া। গ্রামীণ ব্যাংক ও ক্ষুদ্রঋণ কীভাবে সমাজের দারিদ্র দুর করতে এবং একটি অর্থনৈতিকভাবে শক্তিশালী জাতি গড়ে তুলতে পারে Ñ এই কাহিনীতে সেটাই তুলে ধরা হয়েছে।

ভারত, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও জাপানের উচ্চ বিদ্যালয়গুলোর পাঠ্য বইতেও একই ধরনের কাহিনী ও প্রবন্ধ অন্তর্ভূক্ত হয়েছে যা থেকে নতুন প্রজন্ম ক্ষুদ্রঋণ ও সামাজিক ব্যবসা সম্পর্কে এবং একটি দেশের উন্নয়নে এগুলোর ভূমিকা সম্পর্কে জ্ঞান লাভ করতে পারে।

এলএবাংলাটাইমস/এন/এলআরটি

এই খবরটি মোট পড়া হয়েছে ৭২৫ বার

আপনার মন্তব্য

সাম্প্রতিক খবর