যুক্তরাষ্ট্রে আজ শুক্রবার, ১৯ অক্টোবর, ২০১৮ ইং

|   ঢাকা - 04:36am

|   লন্ডন - 11:36pm

|   নিউইয়র্ক - 06:36pm

  সর্বশেষ :

  প্রত্যাশা পূরণে ব্যর্থ বাংলাদেশ সোসাইটি ইনক, অন্তর্দ্বন্দ্বে নির্বাচন স্থগিতের নির্দেশ আদালতের   তুরস্কে চলছে বিশ্বের সবচেয়ে ছোট কুরআন প্রদর্শনী   যেসব খাবারের সঙ্গে ক্যানসারের সম্পর্ক রয়েছে   মেসিকে ছাড়াই কোপার পরিকল্পনা আর্জেন্টিনার!   বিন সালমানের অপসারণ চাইলেন সৌদির ওলামা পরিষদ   ‘যত বার ওর অফিসে গিয়েছি, তত বারই চুমু খাওয়ার চেষ্টা করেছেন’   প্রতি দুইদিনে একজন বিলিয়নার তৈরি করে চীন   ভারতে নারীরাই তাদের অধিকারের বিরোধী!   বিকল্পধারা থেকে বি. চৌধুরী ও মাহী চৌধুরীকে বহিষ্কার   ভারতে রাবণ বধ দেখতে গিয়ে ট্রেনে কাটা পড়ে নিহত ৫০   প্যাটারসনে বাংলাদেশ কমিউনিটি অব নিউজার্সির শোকসভা ও দোয়া মাহফিল   সিলেটের বিশিষ্ট আলেম প্রিন্সিপাল হাবীবুর রহমানের ইন্তেকাল   ইস্তাম্বুলের জঙ্গলে জামাল খাসোগির লাশ!   নিরাপত্তারক্ষীর গুলিতে কান্দাহারের গভর্নর-পুলিশপ্রধান-গোয়েন্দাপ্রধান নিহত   যুক্তরাজ্যসহ তিন দেশের সৌদি সম্মেলন বয়কট

মূল পাতা   >>   স্বদেশ

চট্টগ্রামের অস্ত্রধারী সেই ছাত্রলীগ নেতার অস্ত্র উদ্ধার

নিউজ ডেস্ক

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৯-২২ ১১:৪৬:০৩

নিউজ ডেস্ক: চট্টগ্রাম কলেজে সদ্য ঘোষিত ছাত্রলীগের কমিটি বাতিলের দাবিতে অস্ত্রের মহড়া দেওয়ার ঘটনায় এক অস্ত্রধারীকে গ্রেফতারের পর এবার তার অস্ত্রটিও উদ্ধার করা হয়েছে।

শুক্রবার ভোরে নগরের কোতোয়ালি থানার সিআরবি এলাকা থেকে দেশি একটি বন্দুক ও দুটি কার্তুজ উদ্ধার করে নগর গোয়েন্দা পুলিশ। এটি গত বুধবার দুপুরে চট্টগ্রাম কলেজের সামনে মহড়ায় ছাত্রলীগের মহানগর সহ-সম্পাদক সাব্বির সাদিক ব্যবহার করেছেন বলে দাবি তাদের।

বৃহস্পতিবার রাতে সাব্বির সাদিককে গ্রেফতার করে নগর গোয়েন্দা পুলিশ। অস্ত্রের মহড়ায় অংশ নেওয়া আরেক যুবক আবু মোরশেদকে এখনও গ্রেফতার করা যায়নি।

এ দিকে, শনিবার কলেজে ছাত্রলীগের দুই পক্ষের মধ্যে ফের উত্তেজনা দেখা দেয়। পরে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। কলেজ এলাকায় মোতায়েন করা হয়েছে অতিরিক্ত পুলিশ। বাড়ানো হয়েছে নজরদারিও।

নগর গোয়েন্দা পুলিশের অতিরিক্ত উপকমিশনার (উত্তর) কামরুজ্জামান সমকালকে বলেন, বৃহস্পতিবার রাতে সাব্বির সাদিককে গ্রেফতারের পর তাকে নিয়ে অভিযান চালানো হয়। শুক্রবার ভোরে তার দেওয়া তথ্য অনুযায়ী সিআরবি এলাকা থেকে একটি বন্দুক ও কার্তুজ উদ্ধার করা হয়েছে, যা বুধবার মিছিলে তার হাতে দেখা গিয়েছিল।

মিছিল থেকে সাদা শার্ট পরা রাইফেল উঁচিয়ে গুলি করা আরেক যুবকের নাম আবু মোরশেদ। তিনি যুবলীগের রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত বলে জানা গেছে। তার বাসা নগরের বাকলিয়া থানার মাস্টারপুল এলাকায়। তাকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে বলে জানায় পুলিশ।

নগর পুলিশের সহকারী কমিশনার (চট্টগ্রাম অঞ্চল) নোবেল চাকমা সমকালকে বলেন, বুধবার মিছিলে অস্ত্র প্রদর্শনের ঘটনায় তিন যুবককে শনাক্ত করা হয়েছে। এর মধ্যে ইমরান নামের এক যুবককে বুধবার রাতে গ্রেফতার করেছে সদরঘাট থানা পুলিশ। সাব্বির সাদিক নামের আরেকজনকে গ্রেফতার করেছে নগর গোয়েন্দা পুলিশ। বাকি একজনকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

এ দিকে, শনিবার সকালে চট্টগ্রাম কলেজ প্রশাসনিক ভবনের সামনে অবস্থান নেয় ছাত্রলীগের তিনটি গ্রুপ। এর মধ্যে পদবঞ্চিতদের সঙ্গে অপর দুই গ্রুপের বাকবিতণ্ডা শুরু হয়। এক পর্যায়ে তিনটি গ্রুপই মারমুখী অবস্থান নেয়। পরে পুলিশ এসে মাঝখানে অবস্থান নিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নেয়।

এ প্রসঙ্গে চকবাজার থানার উপ-পরিদর্শক কামাল সমকালকে বলেন, তিন গ্রুপ ক্যাম্পাসে অবস্থান করলে উত্তেজনা দেখা দেয়। এ সময় তাদের সরিয়ে দিলে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে।

১৭ সেপ্টেম্বর রাতে প্রয়াত নগর আওয়ামী লীগের সভাপতি এ বি এম মহিউদ্দিন চৌধুরীর অনুসারী হিসেবে পরিচিত মাহমুদুল করিমকে সভাপতি এবং প্রবাসীকল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থানমন্ত্রী নুরুল ইসলাম বিএসসির অনুসারী সুভাষ মল্লিক সবুজকে সাধারণ সম্পাদক করে ২৫ সদস্যের কমিটির অনুমোদন দেয় নগর ছাত্রলীগ। টাকার বিনিময়ে এ কমিটিতে ছাত্রদল ও ছাত্রশিবিরের কর্মীদের পদ দেওয়া হয়েছে দাবি করে কমিটি প্রত্যাখ্যান করে সিটি মেয়র ও নগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ জ ম নাছির উদ্দীনের অনুসারীরা। কমিটি গঠনের পরদিন সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করে পদবঞ্চিত কর্মীরা। বুধবার তাদের মিছিল থেকে ফাঁকা গুলি ছোড়ার ঘটনা ঘটে।

এই খবরটি মোট পড়া হয়েছে ৪৪৭ বার

আপনার মন্তব্য