যুক্তরাষ্ট্রে আজ শুক্রবার, ২২ নভেম্বর, ২০১৯ ইং

|   ঢাকা - 06:17am

|   লন্ডন - 12:17am

|   নিউইয়র্ক - 07:17pm

  সর্বশেষ :

  ইসরাইলের অবৈধ বসতির মার্কিন নীতি মানবে না মালয়েশিয়া   ঢাকায় চালু হচ্ছে গাড়িমুক্ত সড়ক   এবার গোটা ভারতেই এনআরসি চাইছে বিজেপি সরকার   উন্নত দেশ গড়তে একযোগে কাজ করার আহবান প্রধানমন্ত্রীর   ছোট ভাই প্রেসিডেন্ট হয়েই বড়ভাইকে করলেন প্রধানমন্ত্রী   সিরিয়ায় সরকারি বাহিনীর হামলায় শিশুসহ নিহত ১৮   মোদির কাছে রাজনৈতিক আশ্রয় চাইলেন পাকিস্তানি রাজনীতিক   সৌদি বিশ্ববিদ্যালয়ে অ্যাওয়ার্ড পেলেন বাংলাদেশি শিক্ষার্থী   মুনার পক্ষ থেকে মরহুম শামীম মানসুরের পরিবারকে আর্থিক সহায়তা প্রদান   ডিজিটাল হচ্ছে সিলেট বিভাগ, অনলাইনেই সকল সেবা   ফ্লাইট এসেছে, পেঁয়াজ আসেনি   শ্রমিক ধর্মঘটে বিভিন্ন জেলায় বাস বন্ধ, চরম ভোগান্তিতে মানুষ   গ্রেটার ওয়াশিংটন ডিসি বিএনপিকে কুক্ষিগত করে রাখতে চান ওয়াশিংটনের নেতারা   খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে ওয়াশিংটনে বিএনপির বিক্ষোভ   ককপিটে কেবিন ক্রুকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগ বাংলাদেশ বিমানের পাইলটের বিরুদ্ধে

মূল পাতা   >>   স্বদেশ

দুই নাতনিকে বুকে জড়িয়ে আদর করলেন খালেদা জিয়া

নিউজ ডেস্ক

 প্রকাশিত: ২০১৯-০৮-১২ ১২:১২:৫০

নিউজ ডেস্ক:
বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার সাথে দেখা করেছেন তার পরিবারের কয়েকজন সদস্য। দুই নাতনিকে নিয়ে বাসার রান্না করা খাবার খেয়েছেন খালেদা জিয়া। দুই নাতনি জাহিয়া ও জাফিয়া হচ্ছেন তার ছোট ছেলে মরহুম আরাফাত রহমান কোকোর কন্যা। দু‘জনই তাদের মা শর্মিলা রহমান সিঁথির সাথে কারাবন্দী দাদী খালেদা জিয়াকে দেখতে এসেছিলো বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে। স্বজনদের নিকটজনের সাথে আলাপ করে জানা গেছে, অসুস্থ বেগম খালেদা জিয়া দুই নাতনিকে দেখে খুশি হয়েছেন। দাদীকে পায়ে ধরে সালাম করার পর দুই নাতনিকে বুকে জড়িয়ে আদর করেন খালেদা জিয়া।

পরিবারের সদস্যরা অভিযোগ করে বলেন, বেগম জিয়ার শারীরিক অবস্থা ভালো নয়। তিনি কারো সাহায্য ছাড়া একা হাটতে পারেন না, হুইল চেয়ারে করে তাকে চলাচল করতে হয়। ডায়াবেটিক থাকায় প্রতিদিনই তাকে ইনস্যুলিন নিতে হবে। রয়েছে দাঁত ও চোখের সমস্যা। হাত-পায়ে আর্থারাইটিসের ব্যাথাও রয়েছে তার।
গত ১ এপ্রিল থেকে অসুস্থ বিএনপি চেয়ারপারসন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে ৬২১ নম্বর কেবিন চিকিৎসা নিচ্ছেন।

ঈদের দিন কারা কর্তৃপক্ষ সীমিত পরিসরে ৬ জন দেখার অনুমতি দেয়। কোকোর স্ত্রী ও দুই মেয়ে ছাড়া ছিলেন- খালেদা জিয়ার ছোট ভাই শামীম এস্কান্দার, স্ত্রী কানিজ ফাতেমা ও ছেলে অভিক এস্কান্দার।
বেলা দেড়টার দিকে খালেদা জিয়ার সাথে সাক্ষাত করতে হাসপাতালের কেবিন ব্লকে আসেন তারা। ছোট ছেলের বউ শ্বাশুড়ির (খালেদা জিয়া) জন্য বাসা থেকে খাবার রান্না করা নিয়ে আসেন।

প্রায় দুই ঘন্টা নাতনি, ছোট ছেলে বউসহ ছোট ভাইয়ের পরিবারের সাথে সময় সময় কাটিয়েছেন বিএনপি চেয়ারপারসন।

বেলা দেড়টায় খালেদা জিয়ার স্বজনদের বিএসএমএমইউর ছয়তলার কেবিনের কাছে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে কারাগারের প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে তারা খালেদা জিয়ার কেবিন কক্ষে প্রবেশ করেন।
সেবা শুশ্রূষার জন্য গৃহকর্মী ফাতেমা বেগমও খালেদা জিয়ার সাথে বন্দি রয়েছেন। সেও স্বজনদের সাথে খাবার খেয়েছেন।
মহিলা দলের সুলতানা আহমেদ, সাবিনা ইয়াসমীনসহ ১৫/১৬ নেতা-কর্মীও কেবিন ব্লকের সামনে সারিবদ্ধভাবে দাঁড়িয়ে থেকে তাদের নেত্রীকে স্মরণ করে। ছাত্রদলের ৫/৬ জন নেতা-কর্মীকেও কেবিন ব্লকের কাছে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা গেছে।

গত ১ এপ্রিল থেকে খালেদা জিয়া বিএসএমএমইউ হাসপাতালে ভর্তি হন। কারাগারে খালেদা জিয়া এ নিয়ে ঈদ করেছেন ৬ বার।

 

এই খবরটি মোট পড়া হয়েছে ২৫৯ বার

আপনার মন্তব্য