যুক্তরাষ্ট্রে আজ সোমবার, ২৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং

|   ঢাকা - 10:21pm

|   লন্ডন - 05:21pm

|   নিউইয়র্ক - 12:21pm

  সর্বশেষ :

  যেভাবে সুরক্ষিত রাখবেন আপনার ফেসবুক অ্যাকাউন্ট   আর ডিজেলচালিত গাড়ি বানাবে না পোরশে   মালদ্বীপে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে বিরোধী প্রার্থী সোলিহর জয়লাভ   নিউ ইয়র্কে প্রধানমন্ত্রীকে আ’লীগের সম্বর্ধনা : সরকার পতনে দুর্নীতিবাজরা ঐক্যবদ্ধ হয়েছে   মিয়ানমারের ওপর হস্তক্ষেপের অধিকার নেই জাতিসংঘের: সেনাপ্রধান   বাংলাদেশ সম্পর্কে অমিত শাহর বক্তব্যটি অবাঞ্ছিত : তথ্যমন্ত্রী   গিনেজ বুকের স্বীকৃতি পেল ‘স্বচ্ছ ঢাকা অভিযান’   কোটা সংস্কার আন্দোলনে প্রধানমন্ত্রীকে কটূক্তি করায় চবি শিক্ষক কারাগারে   শ্বাসরুদ্ধকর ম্যাচে টাইগারদের জয়   বাংলাদেশে প্রবেশের অপেক্ষায় আরও ৫ লাখ রোহিঙ্গা   ট্রাম প্রশাসনের নতুন প্রস্তাবনা, কঠিন হয়ে পড়তে পারে গ্রিন কার্ড   নাইজেরিয়ায় কলেরা মহামারি, ৯৭ জনের মৃত্যু   মংলা-বুড়িমারী বন্দরে বছরে অবৈধ লেনদেন হয় ৩১ কোটি টাকা   অস্কারে যাচ্ছে বাংলাদেশের ‘ডুব’   উন্নত বিশ্বে দ্রুত বাড়ছে বয়স্ক মানুষের সংখ্যা

মূল পাতা   >>   স্বদেশ

বরিশালে মাথায় মল ঢে‌লে মাদরাসা শিক্ষক‌কে লাঞ্ছনা

নিউজ ডেস্ক

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৫-১৪ ০৯:১১:১৫

বরিশালের বাকেরগঞ্জ উপজেলার রঙ্গশ্রী ইউনিয়নে গত শুক্রবার সকালে এভাবে মাদ্রাসার প্রধান শিক্ষকের মাথায় মলমূত্র ঢেলে দেওয়া হয়।

নিউজ ডেস্ক: মাদ্রাসার জমি দখলে বাধা দেওয়ায় এবং ব্যবস্থাপনা কমিটিতে জায়গা না পেয়ে এক প্রধান শিক্ষককে প্রকাশ্যে লাঞ্ছিত করা হয়েছে। সেই সঙ্গে তাঁর মাথায় মল ঢেলে দিয়ে তা ভিডিও করে হত্যার হুমকিও দেওয়া হয়েছে।

বরিশালের বাকেরগঞ্জ উপজেলার রঙ্গশ্রী ইউনিয়নে গত শুক্রবার সকালে এ ঘটনা ঘটে। আজ রোববার ঘটনার ভিডিওটি ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়লে শুরু হয় তীব্র সমালোচনা।

এই ঘটনায় মিঞ্জু হাওলাদার না‌মের একজন‌কে আটক ক‌রে‌ছে পু‌লিশ। ঘটনার শিকার কাঁঠালিয়া ইসলামিয়া দাখিল মাদ্রাসার প্রধান শিক্ষক মো. আবু হানিফ বাদী হয়ে আটজনকে আসামি করে মামলা করেছেন।

আবু হানিফ বলেন, ‘১১ (মে) তারিখ সকালে ফজরের নামাজ পরে ৭টার দিকে হাঁটতে বের হয়েছিলাম। তখন জাহাঙ্গীর মৃধা ও মাসুম সরদারের নেতৃত্বে অনেকে মি‌লে আমাকে রাস্তায় আটক করে লাঞ্ছিত করে। সামাজিকভাবে আমাকে অসম্মানিত করার জন্য ওরা এই ঘটনা ঘটিয়েছে।’

জাহাঙ্গীর মৃধা স্থানীয় জাতীয় পার্টির রাজনীতির সঙ্গে জড়িত। ওই এলাকা পড়েছে বরিশাল-৬ আসনের মধ্যে। জাতীয় পার্টির মহাসচিব এবিএম রুহুল আমিন হাওলাদারের স্ত্রী রত্না আমিন হাওলাদার ২০১৪ সালে সেখানে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় সাংসদ নির্বাচিত হন।

ফেসবুকে ছড়িয়ে পরা ভিডিওতে দেখা গেছে, আবু হানিফ রাস্তা দিয়ে হেঁটে যাচ্ছিলেন। কয়েকজন তাঁর পথ রোধ করে। এরপর একজন তাঁর মাথার টুপি ও কাঁধের রুমাল খুলে নেয়। তখন আবু হানিফ তাঁর মোবাইল ফোন বের করলে একজন এসে ফোনটি কেড়ে নেয়। অন্য আরেকজন তাঁর হাত চেপে ধরে রাখে। তারপর পলিথিনে পেঁচানো একটা হাঁড়ি বের করে সেখান থেকে মলমূত্র ঢেলে দেয় হানিফের মাথায়। এ সময় তাঁকে হুমকি দিয়ে বলা হয়, ‘এইয়া নিয়া যদি বাড়াবাড়ি করো তাহলে তোর জীবন শেষ হইয়া যাইবে।’ এরপর তাঁকে গালাগালি করে স্থান ত্যাগ করতে বলা হয়।’

এই ঘটনায় বাদী হয়ে বাকেরগঞ্জ থানায় আটজনকে আসামি ক‌রে মামলা ক‌রে‌ছেন আবু হা‌নিফ।

আবু হানিফ বলেন, তারা মাদ্রাসার জমি দখল করার চেষ্টা করছিলো। এই চক্রটি নানাভাবে বিনা অনুমতিতে মাদ্রাসার জমিতে বিভিন্ন কার্যক্রম করে আসছিল। আমি এতে বাধা দিই। এ নিয়ে মামলাও চলছে। আমি মামলার বাদী। এ কারণে ওরা আমার ওপর ক্ষিপ্ত। সেই সাথে মাদ্রাসার পরিচালনা কমিটির সভাপতি পদেও এই দলের লোক জাহাঙ্গীর জায়গা পায়নি। সভাপতি হয়েছেন এখানকার সংসদ সদস্যের মনোনীত ব্যক্তি। এসব করণে ওরা ক্ষেপে আমাকে নির্যাতন করেছে।

এ বিষয়ে বাকেরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাসুদুজ্জামান জানান, মামলা দা‌য়ে‌রের পর একজন‌কে আটক করা হ‌য়ে‌ছে। বা‌কি‌দের আটকের চেষ্টা চল‌ছে। ত‌বে তদ‌ন্তের স্বা‌র্থে মামলার বিবাদী‌দের নাম বল‌তে রা‌জি হননি এই  পু‌লিশ কমর্কর্তা।


এলএবাংলাটাইমস/এন/এলআরটি

এই খবরটি মোট পড়া হয়েছে ৮২৪ বার

আপনার মন্তব্য

সাম্প্রতিক খবর