যুক্তরাষ্ট্রে আজ বুধবার, ২৩ মে, ২০১৮ ইং

|   ঢাকা - 10:25pm

|   লন্ডন - 05:25pm

|   নিউইয়র্ক - 12:25pm

  সর্বশেষ :

  পুলিৎজারজয়ী ঔপন্যাসিক ফিলিপ রোথ আর নেই   যুক্তরাষ্ট্রের এক শীর্ষ কূটনীতিককে বহিষ্কার করল ভেনেজুয়েলা   মাদকবিরোধী অভিযানের নামে ক্রসফায়ার নিয়ে বিএনপির গভীর সংশয়   অস্ত্রসহ সুন্দরবনের ৫৭ বনদস্যুর আত্মসমর্পণ   মন্ত্রীদের বেতন কমাচ্ছে মালয়েশিয়া   তামিলনাড়ুতে দূষণ বিরুধী বিক্ষোভে গুলি, নিহত ৯   কথিত বন্দুকযুদ্ধ অব্যাহত, এবার নিহত ৭   চলে গেল মুক্তামনি   দ্বিতীয় বিয়ে বাধ্যতামূলক যেখানে   চীনে মসজিদে মসজিদে জাতীয় পতাকা ওড়ানোর নির্দেশ   করাচিতে দাবদাহে হিট-স্ট্রোকে ৬৫ জনের মৃত্যু   যুদ্ধক্ষেত্রে সর্বাধুনিক এফ-৩৫ উড়িয়েছে ইসরায়েল   মিলানে ছাত্রলীগের আলোচনা সভা ও ইফতার মাহফিল   নিউজার্সিতে কুলাউড়া এসোসিয়েশনের ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত   তথাকথিত ‘বন্দুকযুদ্ধে’ এবার ৯ জেলায় নিহত ১২

মূল পাতা   >>   স্বদেশ

সোনালি ব্যাগের মালিকানা স্বত্ব বাংলাদেশে রাখার সুপারিশ

নিউজ ডেস্ক

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৫-১৪ ১৩:১৮:৩১

নিউজ ডেস্ক: পাটজাত পলিথিন দিয়ে তৈরি ‘সোনালি ব্যাগ’ এর মালিকানা স্বত্ব যাতে বাংলাদেশে থাকে সে বিষয়ে পদক্ষেপ নেওয়ার তাগিদ দিয়েছে সংসদীয় কমিটি।

এছাড়া কারিগরি, আর্থিক ও আইনগত দিক বিবেচনা করে বাণিজ্যিকভাবে পণ্যটি বাজারজাত করার লক্ষ্যে একটি টাস্কফোর্স গঠনেরও সুপারিশ করেছে কমিটি।

সোমবার বিকেলে জাতীয় সংসদ ভবনে বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির ২৯তম বৈঠকে এ সুপারিশ করা হয়।

কমিটির সভাপতি সাবের হোসেন চৌধুরীর সভাপতিত্বে বৈঠকে কমিটির সদস্য বস্ত্র ও পাট প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম, ফাহমী গোলন্দাজ বাবেল, কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা ও সাবিনা আক্তার তুহিন অংশ নেন।

সূত্র জানায়, বৈঠকে পাটজাত পলিথিন দিয়ে ‘সোনালি ব্যাগ’প্রকল্পের কারিগরি ও আর্থিক সম্ভাব্যতা বিষয়ে আলোচনা করা হয়। পাট থেকে তৈরি পলিথিনের বিকল্প হিসেবে পচনশীল পলিব্যাগ উৎপাদনের লক্ষ্যে বাংলাদেশ পাটকল করপোরেশনে‘সোনালি ব্যাগ’পাইলট প্রকল্পের উৎপাদন বর্তমানে চলমান রয়েছে। প্রতিদিন প্রায় ৩০০ পিস ব্যাগ উৎপাদন করা সম্ভব হচ্ছে বলে বৈঠকে উল্লেখ করা হয়। এছাড়া ভবিষ্যতে প্রতিদিন প্রায় ১০ টন অর্থাৎ ৫ লাখ পিস সোনালি ব্যাগ উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে। এর ফলে প্রশাসনিক ব্যয় এবং মেশিনের অবচয় মূল্য ইউনিট প্রতি কমে যাবে এবং ব্যাগের বাজার মূল্য ৭ থেকে ৮ টাকা নির্ধারণ করা সম্ভব হবে বলে বৈঠকে উল্লেখ করা হয়।

বৈঠকে পাটচাষিদের প্রত্যাশা অনুযায়ী সমগ্র দেশের পাটচাষিদের একটি পূর্ণাঙ্গ ডাটাবেজ তৈরির কাজ দ্রুত শেষ করার সুপারিশ করা হয়। এ সময় বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব, বাংলাদেশ তাঁত বোর্ডের চেয়ারম্যান, পাট অধিদপ্তরের মহাপরিচালক, জেডিপিসির নির্বাহী পরিচালকসহ মন্ত্রণালয় ও জাতীয় সংসদ সচিবালয়ের সংশ্লিষ্ট ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

এলএবাংলাটাইমস/এন/এলআরটি

এই খবরটি মোট পড়া হয়েছে ৫২৭ বার

আপনার মন্তব্য