যুক্তরাষ্ট্রে আজ বুধবার, ১৫ অগাস্ট, ২০১৮ ইং

|   ঢাকা - 12:48pm

|   লন্ডন - 07:48am

|   নিউইয়র্ক - 02:48am

  সর্বশেষ :

  মার্কিন ইলেকট্রনিক্স পণ্য বয়কটের ঘোষণা এরদোগানের   ঢা‌বি‌তে শোক দিব‌সের সভা শে‌ষে ছাত্রলীগের মারামারি   ‘কোটা বাতিল নয়, আমরা সংস্কার চাই’   বাংলাদেশে হাজিদের বিমান ভাড়া কেন বেশি?   ইতালিতে সেতু ধসে নিহত ২২   এশিয়া কাপ আসন্ন, বাংলাদেশের প্রাথমিক দল ঘোষণা   নিরাপদ সড়ক আন্দোলনকারী ছাত্রদের মুক্তি দাবী এরশাদের   বিশ্বে বসবাসের অযোগ্য শহরের তালিকায় ঢাকা দ্বিতীয়   পাঁচ বছর পর মুক্ত আশরাফুল, ভবিষ্যৎ কী?   কার সাথে ঘুরে বেড়াচ্ছেন শাহরুখ-কন্যা?   জলে-স্থলে আঘাত করতে সক্ষম ক্ষেপণাস্ত্র উন্মোচন করল ইরান   কওমি সনদের স্বীকৃতির আইন মন্ত্রিসভায় অনুমোদন   গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে সেমিফাইনালে বাংলাদেশের মেয়েরা   ভারতে অতি বৃষ্টি-বন্যায় নিহত ৭৭৪   মাধ্যমিক শিক্ষার উন্নয়নে বাংলাদেশকে ৪৩১৬ কোটি টাকা দিচ্ছে বিশ্বব্যাংক

মূল পাতা   >>   স্বদেশ

বছর পেরুতেই আবার ভূমিধস, রাঙ্গামাটিতে নিহত ১০

নিউজ ডেস্ক

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৬-১২ ০৪:৩০:১০

রাঙ্গামাটিতে ভূমিধস (ফাইল ফটো)

নিউজ ডেস্ক: বছর ঠিক এক বছর আগে ভূমিধসের ঘটনা ঘটেছিল রাঙ্গামাটিতে। আজ মঙ্গলবার ভোরে আবার ভূমিধসে নিহত হয়েছেন ১০ জন। নানিয়ারচর উপজেলার তিনটি জায়গায় ভূমিধস হয়েছে। জেলা সদর সহ সব মিলিয়ে ২০টির মতো ভূমিধস হয়েছে গত রাত থেকে।

জেলায় গত কয়েকদিন ধরেই টানা বৃষ্টি হচ্ছিলো।

রাঙ্গামাটির জেলা প্রশাসক একেএম মামুনুর রশিদ জানিয়েছেন, নানিয়ার চরে তিনটি জায়গায় ভূমিধস হয়েছে। এখনো একটানা বৃষ্টি হয়েই যাচ্ছে। বৃষ্টির যে অবস্থা, এভাবে যদি বৃষ্টি হতে থাকে তাতে আমরা আরো ভূমিধসের আশঙ্কা করছি।"

তিনি জানিয়েছেন এ পর্যন্ত ২১টি আশ্রয় কেন্দ্র খোলা হয়েছে। মানুষজনকে আশ্রয়কেন্দ্রে নিরাপদে সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে।

নানিয়ার চরের বড়ফুলপাড়া, ধর্মচরণপাড়া এবং হাতিমারা এলাকায় এই ধসের পাশাপাশি রাঙামাটি সদরেও তিনটি বাড়ি মাটি চাপা পড়েছে। তবে তারা আগেই সরে যাওয়ায় সেখানে কেউ হতাহত হয়নি।

রাঙামাটি খাগড়াছড়ির মধ্যে যান চলাচল বন্ধ হয়ে গেছে।

গত বছর রাঙামাটি, চট্টগ্রাম ও বান্দরবান এই তিনটি জেলায় ঠিক ১৩ জুন ঘটেছিল ভয়াবহ পাহাড় ধসের ঘটনা। যাতে প্রায় দেড় শ' জনের মতো নিহত হয়েছিলেন। ঘটনার এক বছর পূর্ণ হতেই নতুন করে আবারো দুর্যোগ নেমে এলো রাঙামাটিতে।


এলএবাংলাটাইমস/এন/এলআরটি

এই খবরটি মোট পড়া হয়েছে ৯২১ বার

আপনার মন্তব্য