যুক্তরাষ্ট্রে আজ সোমবার, ১৮ মার্চ, ২০১৯ ইং

|   ঢাকা - 10:34pm

|   লন্ডন - 04:34pm

|   নিউইয়র্ক - 12:34pm

  সর্বশেষ :

  নিজের জন্য সংগৃহীত ৪২ হাজার ডলার নিহতদের পরিবারে দান করছেন ‘এগ বয়’   অসুস্থতার কারণে আদালতে খালেদা জিয়াকে হাজির করেনি কারা কর্তৃপক্ষ   এই বিশ্বে ইসলামবিদ্বেষের কোনো স্থান নেই: কানাডার প্রধানমন্ত্রী   ‘মুজিব কোট’ পরে এসেছিল শিশুরা   ক্রাইস্টচার্চে সন্তানকে বাঁচাতে বন্দুকের সামনে বুক পাতেন বাবা!   সিনেটরের মাথায় ডিম ভেঙে রাতারাতি হিরো কনোলি   লাশ আনতে প্রতি পরিবারের একজন নিউজিল্যান্ডে যেতে পারবেন   আবারও ডাকসুর পুনর্নির্বাচন চাইলেন ভিপি নুর   ক্রাইস্টচার্চে হামলাকারীর মৃত্যুদণ্ড চাইলেন তার বোন   ইতালিতে সড়ক দুর্ঘটনায় প্রবাসীর মৃত্যু   ক্রাইস্টচার্চে বাংলাদেশি নিহতের সংখ্যা ৮ হতে পারে : পররাষ্ট্রমন্ত্রী   এবার অস্ট্রেলিয়ায় মসজিদে গাড়ি নিয়ে ঢুকে পড়লো উগ্রবাদী   বঙ্গবন্ধুর শততম জন্মদিন আজ   যুক্তরাষ্ট্রে ৯ মিনিটে ৬ সন্তান প্রসব করে রেকর্ড   কবি আল মাহমুদ কর্মগুণে বাংলা সাহিত্যে অমর হয়ে থাকবেন: স্মরণ সভায় অধ্যাপক মতিউর রহমান

মূল পাতা   >>   স্বদেশ

বঙ্গবন্ধু মেডিকেলে নয় ইউনাইটেডে চিকিৎসা নিতে চান খালেদা জিয়া

নিউজ ডেস্ক

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৬-১২ ০৪:৩১:৪৬

নিউজ ডেস্ক: সাবেক প্রধানমন্ত্রী, বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে (বিএসএমএমইউ) চিকিৎসা নিতে যাচ্ছেন না। ফলে প্রয়োজনীয় পরীক্ষা-নিরীক্ষার জন্য আপাতত তাকে হাসপাতালে নেয়া হচ্ছে না।

এ তথ্য জানিয়ে ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারে সিনিয়র জেল সুপার জাহাঙ্গীর কবির বলেন, ‘খালেদা জিয়া বিএসএমএমইউতে চিকিৎসা নিতে আগ্রহী নন। তিনি জানিয়েছেন, ইউনাইটেড হাসপাতাল ছাড়া অন্য কোথাও চিকিৎসা নেবেন না। তাকে বিএসএমএমইউতে নেয়ার জন্য আমাদের সকল প্রস্তুতি ছিল। কিন্তু তিনি আগ্রহী না হওয়ায় আপাতত আমরা তাকে নিয়ে যাচ্ছি না।’
মঙ্গলবার সকালে খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্য পরীক্ষা এবং চিকিৎসার জন্য সব প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছিল বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় (বিএসএমএমইউ) কর্তৃপক্ষ।

বিএসএমএমইউর পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল আব্দুল্লাহ আল হারুন বলেন, কারা কর্তৃপক্ষ জানিয়েছিল, বেলা ১১টার দিকে খালেদা জিয়াকে চিকিৎসার জন্য এখানে আনা হতে পারে। তাই তার চিকিৎসার সব প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হয়েছে। তার জন্য ৫১২ নম্বর কেবিন বরাদ্দ দেয়া হয়েছে। তার চিকিৎসায় যেসব বিভাগের প্রয়োজন হবে, সেসব বিভাগের প্রধানরা প্রস্তুত ছিলেন।

উল্লেখ্য, জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় ৮ ফেব্রুয়ারি খালেদা জিয়াকে পাঁচ বছরের কারাদণ্ড দেয়া হয়। ১০ বছর করে কারাদণ্ড দেয়া হয় খালেদা জিয়ার ছেলে ও বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানসহ অন্য পাঁচ আসামিকে। রায় ঘোষণার পরই খালেদা জিয়াকে নাজিমউদ্দিন রোডের পুরনো কেন্দ্রীয় কারাগার রাখা হয়েছে। তিনি কারাগারে একমাত্র বন্দি হিসেবে রয়েছেন। ইতোমধ্যে তার চিকিৎসায় একটি মেডিকেল বোর্ড গঠন করা হয়েছে, যার নেতৃত্বে ছিলেন ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের অর্থোপেডিক বিভাগের প্রধান অধ্যাপক মো. শামসুজ্জামান। বোর্ডের অন্য সদস্যরা হলেন ডা. মনসুর হাবীব (নিউরোলজি), টিটু মিয়া (মেডিসিন) ও সোহেলী রহমান (ফিজিক্যাল মেডিসিন)।


এলএবাংলাটাইমস/এন/এলআরটি

এই খবরটি মোট পড়া হয়েছে ১০৪৭ বার

আপনার মন্তব্য

সর্বাধিক পঠিত