যুক্তরাষ্ট্রে আজ রবিবার, ০৫ Jul, ২০২০ ইং

|   ঢাকা - 11:03pm

|   লন্ডন - 06:03pm

|   নিউইয়র্ক - 01:03pm

  সর্বশেষ :

  করোনার মধ্যেও শত শত মানুষের স্বাধীনতা দিবস উদযাপন   রক্ত দান ও ফ্লাইওভারে স্বাধীনতা দিবস উদযাপন নিক্সন লাইব্রেরি   সাউথ লস এঞ্জেলেসে এ্যাম্বুলেন্স চুরির ঘটনায় আটক ১   করোনায় মারা গেলেন লস এঞ্জেলেস পুলিশ কর্মকর্তা   ভিন্নরকম আয়োজনে যুক্তরাষ্ট্রের স্বাধীনতা দিবস   বর্ষসেরা চিকিৎসক হয়ে যুক্তরাজ্যের বিলবোর্ডে বাংলাদেশি ফারজানা   দেশে ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ২৯, শনাক্ত ৩২৮৮   অরেঞ্জ সিটির আন্তর্জাতিক স্ট্রিট ফেয়ার হচ্ছে না   ক্যালিফোর্নিয়া পালন করবে ব্যতিক্রমী স্বাধীনতা দিবস   ক্যালিফোর্নিয়ার নাগরিকদের করোনা ভীতি কমছে   ভাবুন সকলেই করোনায় আক্রান্ত’, বললেন মেয়র   সড়ক দুর্ঘটনায় মারা গেলো মায়ের গর্ভের আট মাসের শিশু   আগুনে পুড়লো সান বার্নারদিনো ন্যাশেনাল ফরেস্টের ১০০ একর   যুক্তরাষ্ট্র জুড়ে বিশিষ্টজনদের ভাস্কর্য রক্ষায় ট্রাম্পের উদ্যোগ   স্বাধীনতা দিবসের জমায়েতে যুক্তরাষ্ট্রে করোনা পরিস্থিতি খারাপ হওয়ার আশঙ্কা

>>  মধ্যপ্রাচ্য এর সকল সংবাদ

মদিনাকে করোনামুক্ত ঘোষণা

মহানবী হজরত মুহাম্মদ (সা.) স্মৃতি বিজড়িত শহর পবিত্র নগরী মদিনা মুনাওয়ারা। সৌদি আরবের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় এ পবিত্র শহরকে কভিড-১৯ তথা করোনাভাইরাস মুক্ত বলে ঘোষণা দিয়েছে। মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক গণমাধ্যম গালফ নিউজের প্রতিবেদনে এ সুখবর দেয়া হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বুধবার করোনামুক্ত ঘোষণা করার আগে মদিনা মুনাওয়ারার আল-আইস শহরে ১৩ জন কভিড-১৯ রোগী ছিলেন। তারা সবাই এখন সুস্থ হয়েছেন। নবীর শহর মদিনায় প্রায় ৩০ হাজার মানুষ বসবাস করেন।

সৌদি সরকার হারামাইন ওয়াশ শরিফাইন খ্যাত পবিত্র দুই নগরী মক্কার মসজিদে হারাম তথা কাবা শরিফ এবং মদিনার মসজিদে নববির নিরাপত্তায় শুরু

বিস্তারিত খবর

দেড় মাসে আমিরাত থেকে দেশে ফিরেছে শতাধিক প্রবাসীর মৃতদেহ

 প্রকাশিত: ২০২০-০৬-২৪ ১৩:০৭:৩৫


গত ৪৫ দিনে সংযুক্ত আরব আমিরাত থেকে শতাধিক বাংলাদেশি শ্রমিকের মৃতদেহ পাঠানো হয়েছে। এরা কেউ করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা যাননি। একই সময় পাঁচ হাজার শ্রমিককে বাংলাদেশে ফেরত পাঠানো হয়েছে। বাংলাদেশ দূতাবাসের চার্জ ডি অ্যাফেয়ার্স মোহাম্মদ মিজানুর রেহমান গালফ নিউজকে এ তথ্য জানিয়েছেন।

মিজানুর রেহমান জানান, ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞার কারণে  মৃতদেহগুলো দেশে ফেরত পাঠানো সম্ভব হয়নি। মার্চ থেকে এগুলো মর্গে রাখা ছিল। তবে ধারাবাহিকভাবে বাংলাদেশ মিশন মৃতদেহগুলো দেশে ফেরত পাঠাতে সাহায্য করেছে।

তিনি জানান, সংযুক্ত আরব আমিরাত ও বাংলাদেশ সরকারের সহযোগিতায় মৃতদেহগুলো দেশে ফেরত পাঠানো হয়েছে।

মিজানুর রেহমান বলেন, ‘কর্তৃপক্ষের সহযোগিতায় সংযুক্ত আরব আমিরাত থেকে পাঁচ হাজারের বেশি বাংলাদেশিকে ২০টিরও বেশি বিশেষ ফ্লাইটে দেশে ফেরত পাঠানো হয়েছে।’

বাংলাদেশ দূতাবাসের এই কর্মকর্তা জানান, ২০টি মৃতদেহ এখনও দেশে পাঠানো হয়নি। এর মধ্যে ১০টি আবু ধাবিতে ও ১০টি দুবাই থেকে যাবে।

তিনি জানান, চাকরি হারানোর পর যেসব শ্রমিকের দেশে ফিরে যাওয়ার মতো আর্থিক সামর্থ্য নেই তাদেরকে দূতাবাস সহযোগিতা করবে। একই সঙ্গে যেসব প্রতিষ্ঠানে শ্রমিকরা কাজ করতেন সেসব প্রতিষ্ঠানগুলো আর্থিক সহযোগিতা দেবে।

এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/এমই
 

বিস্তারিত খবর

করোনার মধ্যেই নির্বাচনি প্রচারণায় ব্যস্ত ট্রাম্প

 প্রকাশিত: ২০২০-০৬-২১ ০৮:৫৩:০৬


মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প আসন্ন মার্কিন নির্বাচনকে সামনে রেখে প্রচারণায় অংশ নিতে শুরু করেছেন। তুলসার ব্যাংক অফ ওকলাহামা সেন্টারে এই সমাবেশের আয়োজন করা হয়। তবে ট্রাম্প সমর্থকদের অংশগ্রহণ ছিল ধারণার চেয়ে কম।


সমাবেশে অংশ নেওয়ার জন্য টিকিটের মাধ্যমে আবেদন করেছিল প্রায় ১০ লাখ মানুষ। তবে ওকলাহামা সেন্টারের ধারণ ক্ষমতা মাত্র ১৯ হাজার। সমর্থকরা এটিও ভরপুর করতে পারেনি। কয়েক হাজার আসন ফাঁকা পড়ে ছিল।

করোনাকালে ট্রাম্পের এই নির্বাচনি সমাবেশ নিয়ে উদ্বেগ দেখা দিয়েছে। ওকালহোমায় ট্রাম্প সমর্থকদের উদ্দেশে প্রায় ২ ঘণ্টা ধরে বক্তৃতা করেন। এটি রিপাবলিকানদের অন্যতম ঘাঁটি হিসেবে পরিচিত। ট্রাম্প তার ভাষণে করোনা পরিস্থিতিও উল্লেখ করেন।

প্রশাসনকে করোনা নিয়ন্ত্রণে যথাযথ পদক্ষেপ নিতে বলা হয়েছে জানিয়ে ট্রাম্প বলেন, বেশি বেশি পরীক্ষার ফলে বেশি বেশি করোনা রোগী ধরা পড়ছে। উদ্বেগের খবর হচ্ছে ট্রাম্পের নির্বাচনি দলের কয়েকজন সদস্য করোনা পজিটিভ হয়েছেন। সমাবেশ আয়োজনে তারা যুক্ত ছিলেন।

ট্রাম্প তার সমর্থকদের যোদ্ধা বলে উল্লেখ করেছেন। অভিযোগ তুলেছেন সমাবেশে ভয়ভীতি ছড়াতে গণমাধ্যম ও বিক্ষোভকারীরা ভূমিকা রেখেছে। ওকলাহোমায় করোনা সংকক্রমণ বাড়ছে। এত বড় একটি নির্বাচনি সমাবেশ আয়োজন করায় তিনি নিন্দার মুখে পড়তে পারেন।

যুক্তরাষ্ট্রে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ২৩ লক্ষ ৩০ হাজার ৫৭৮ জন। আর মোট মৃতের সংখ্যা ১ লাখ ২১ হাজার ৯৮০ জন।

এলএ/বাংলা টাইমস/এন/এইচ



বিস্তারিত খবর

করোনায় সৌদি রাজপুত্রের মৃত্যু

 প্রকাশিত: ২০২০-০৬-০৮ ১২:৫৬:০৩

বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতো সৌদি আরবেও হানা দিয়েছে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস। এবার এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে প্রাণ হারিয়েছেন দেশটির এক রাজপুত্র।

বৃহস্পতিবার কোভিড-১৯ এর কারণে সৌদি যুবরাজ প্রিন্স সৌদ বিন আবদুল্লাহ বিন ফয়সাল বিন আবদুল আজিজ আল সৌদ মারা গেছেন। দেশটির রয়্যাল কোর্ট তার মৃত্যুর ঘোষণা দিয়েছে।

মিডল ইস্ট মনিটর জানিয়েছে, প্রিন্সের মৃত্যুর পর রাজ পরিবারের অনেক সদস্য হাসপাতাল ও ব্যক্তিগত ভিলায় চিকিৎসা নিচ্ছেন। তবে রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা সৌদি প্রেস এজেন্সির খবরে প্রিন্সের মৃত্যুর কারণ উল্লেখ করা হয়নি।

সৌদি আরবে লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা। এ নিয়ে দেশটিতে কোভিড ১৯ রোগে আক্রান্তের সংখ্যা এক লাখ ছাড়িয়েছে।

সবচেয়ে বেশি করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা দেশটির রাজধানী রিয়াদে। এরপর পবিত্র শহর মক্কার অবস্থান। আর আক্রান্তের দিক দিয়ে তৃতীয় অবস্থানে রয়েছে জেদ্দা। এসব শহরের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে দেশটির দাম্মাদ শহরে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে চলেছে।


এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/এমই

বিস্তারিত খবর

সৌদিআরবে করোনা আক্রান্ত হয়ে ১৯৭ বাংলাদেশির মৃত্যু

 প্রকাশিত: ২০২০-০৫-৩১ ১৪:২৩:৩২

মহামারি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে এ পর্যন্ত সৌদি আরবে ১৯৭ বাংলাদেশি নাগরিকের মৃত্যু হয়েছে। রোববার (৩১ মে) রাতে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মোহাম্মদ শাহরিয়ার আলম এই তথ্য জানিয়েছেন।
 
প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের তথ্য মতে, প্রবাসী বাংলাদেশিদের মধ্যে সৌদি আরবে বেশি সংখ্যক বসবাস করে। দেশটিতে এই মুহূর্তে অবস্থানরত বাংলাদেশির সংখ্যা প্রায় ১২ লাখ।

দেশটিতে অবস্থিত বাংলাদেশ দূতাবাসের তথ্যমতে, সৌদি নাগরিক এবং প্রবাসী মিলে এ পর্যন্ত দেশটিতে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ৮৫ হাজার ২৬১ জন। আর মারা গেছেন ৫০৩ জন।  এর মধ্যে বাংলাদেশিদের সংখ্যা সর্বোচ্চ ১৯৭ জন।

দূতাবাস সূত্র আরও জানায়, দেশটিতে এখনো প্রতিদিন করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা বাড়ছে।  গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে নতুন করে ১ হাজার ৬১৮ জন আক্রান্ত হন এবং মারা গেছেন ২২ জন।


এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/এমই

বিস্তারিত খবর

ইরানে সব মসজিদ খুলে দেয়া হয়েছে

 প্রকাশিত: ২০২০-০৫-১২ ০৬:১১:৫০

মহামারী করোনাভাইরাসের প্রকোপ কমে আসায় আজ থেকে ইরানের সব মসজিদ সাময়িকভাবে খুলে দেয়া হচ্ছে। লকডাউন শিথিল করার পরিকল্পনা হিসেবে মঙ্গলবার থেকে এ সিদ্ধান্ত কার্যকর হবে। রমজানের গুরুত্বপূর্ণ তিনটি রাতকে কেন্দ্র করে এই সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে বলে বিবিসি জানিয়েছে।
 
খবরে বলা হয়, ইরানের সর্বোচ্চ ধর্মীয় নেতা আয়াতুল্লাহ খামেনী সোমবার দেশটির দায়িত্বশীলদের ডেকে পাঠিয়ে রমজানে কীভাবে ইবাদতের বিষয়টি নিশ্চিত করা যায় সে বিষয়ে নজর রাখতে বলেন।

এর আগে গত সোমবার থেকে ইরানের ১৩২ শহরে মসজিদসহ অন্য ধর্মীয় স্থাপনা খুলে দেয়া হয়েছিল।

ইরানে এখন পর্যন্ত এক লাখ ১০ হাজারের কাছাকাছি মানুষ আক্রান্ত হয়েছে এবং সাড়ে ছয় হাজারের বেশি মানুষ মারা গেছেন।

দেশটিতে মার্চ মাসে করোনাভাইরাসের মারাত্মক প্রাদুর্ভাব দেখা দেয়ার পর কঠোরভাবে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার নির্দেশনা জারি করা হয়। অত্যাবশ্যকীয় পণ্যের দোকান ছাড়া অন্য সব দোকান ও শপিংমল বন্ধ করে দেয়া হয়।

আন্তঃনগর পরিবহনব্যবস্থাও বন্ধ করে দেয়া হয়েছিল। তবে গত সপ্তাহ থেকে শহরগুলোর মধ্যে চলাচলের ওপর কড়াকড়ি শিথিল করা হয়েছে এবং শপিংমলগুলো খুলে দেয়া হয়েছে।

এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/এমই

বিস্তারিত খবর

সৌদি আরবে ৩ হাজার ৭১৭ বাংলাদেশি করোনা আক্রান্ত

 প্রকাশিত: ২০২০-০৫-০৫ ১৬:১১:৫১

সৌদি আরবে ৩ হাজার ৭১৭ জন বাংলাদেশি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। বাংলাদেশ দূতাবাসের তথ্য অনুযায়ী, এ পর্যন্ত দেশটিতে ৩ হাজার ৭১৭ জন বাংলাদেশি করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন এবং ৫৫ জন বাংলাদেশি মারা গেছেন।

গত ২ মার্চ থেকে সৌদি আরবে আনুষ্ঠানিকভাবে করোনা শনাক্ত শুরু করে সৌদি স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। দেশটিতে এ পর্যন্ত ৩ লাখ ৬৫ হাজার ৯৩ জন বিদেশি এবং সৌদি নাগরিকের করোনাভাইরাস পরীক্ষা করা হয়েছে।

সৌদি স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ী, করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ২৮ হাজার ৬৫৬ জন। মারা গেছেন ১৯১ জন এবং সুস্থ হয়ে ঘরে ফিরেছেন ৪ হাজার ৪৭৬ জন।

এদিকে, আগামী ১৩ মে পর্যন্ত সকাল ৯ টা থেকে বিকাল ৫ টার কারফিউ শিথিল এবং শপিং মল খুলে দেয়া হয়েছে। আক্রান্তের সংখ্যার দিক থেকে শীর্ষে রয়েছে মক্কা।

এছাড়া দূতাবাস সূত্রে জানা গেছে, দীর্ঘদিন বিমান চলাচল বন্ধ থাকায় প্রবাসীদের লাশ সংরক্ষণে হিমঘরে স্থান সংকুলান না হওয়ায়  বাংলাদেশি কর্মীদের লাশ স্থানীয়ভাবেই দাফন করার অনুমতি দিতে বলা হয়েছে।

এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/এমই

বিস্তারিত খবর

সামাজিক দূরত্ব মেনে নেতানিয়াহুর বিরুদ্ধে ইসরাইলে বিক্ষোভ

 প্রকাশিত: ২০২০-০৪-২০ ১০:০৯:৫৩

করোনাভাইরাস আতঙ্কের মধ্যেই ইহুদিবাদী রাষ্ট্র ইসরাইলে দেশটির প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুর বিরুদ্ধে বিক্ষোভ হয়েছে। প্রায় ৬ ফিট দূরত্ব বজায় রেখে কয়েক হাজার মানুষ এ বিক্ষোভে অংশ নেয়।

রোববার কয়েক হাজার মানুষ এই বিক্ষোভে অংশ নেন বলে রয়টার্স জানালেও ইসরাইলের গণমাধ্যম দাবি করছে মাত্র দুই হাজার মানুষ এই বিক্ষোভে অংশ নিয়েছেন।

তেল আবিবের রাবিন স্কয়ারে সংঘটিত এই বিক্ষোভে নেতানিয়াহু এবং তার প্রতিদ্বন্দ্বী বেনি গ্যান্টজ ইসরাইলের গণতন্ত্র ধ্বংসের জন্য উঠেপড়ে লেগেছেন বলে অভিযোগ করেন আন্দোলনকারীরা।

বিক্ষোভকারীরা ইসরাইলের সাবেক সেনাপ্রধান এবং বর্তমানে শীর্ষ রাজনীতিক বেনি গ্যান্টজকে নেতানিয়াহুর সঙ্গে ঐকমত্যের সরকার গঠন না করার আহ্বান জানান।

গত এপ্রিলে পঞ্চমবারের মতো প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত হন নেতানিয়াহু। তার বিরুদ্ধে ঘুষ ও দুর্নীতির অভিযোগে তিনটি মামলা চলছে।

গত এক বছর ধরে ইসরাইলে কোনো নির্বাচিত সরকার নেই। সেখানে তিন দফা সংসদ নির্বাচন হলেও কেউ এখন পর্যন্ত সরকার গঠন করার মতো একক অবস্থানে পৌঁছাতে পারে নি।

আবার ঐক্যমতের সরকারও গঠন করা যায় নি। ফলে ইসরাইল গত এক বছর ধরে মারাত্মক রাজনৈতিক অচলাবস্থার মধ্যে রয়েছে।

এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/এমই

বিস্তারিত খবর

বাহরাইনে ৪১ বাংলাদেশির করোনা সনাক্ত

 প্রকাশিত: ২০২০-০৪-১৪ ১৩:০০:১৬

বাহরাইনে ৪১ বাংলাদেশি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

সর্বশেষ প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী, বাহরাইনে ৮৭৩ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। এদের মধ্যে ৪১ জন বাংলাদেশি। গত মাসের শেষের দিকে বাংলাদেশিদের আক্রান্তের সংখ্যা বাড়তে শুরু করে।

মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, আক্রান্ত বাংলাদেশিদের মধ্যে ২৪ জনের পরিচয় নিশ্চিত হওয়া গেছে। এর সবাই শ্রমিক। অন্যদের বিস্তারিত পরিচয় এখনও জানা যায়নি। তবে সবাইকেই কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে।

এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/এমই

বিস্তারিত খবর

সৌদিতে অনির্দিষ্টকালের কারফিউ, ১০ বাংলাদেশির মৃত্যু

 প্রকাশিত: ২০২০-০৪-১২ ১২:১১:৪৫

সৌদি আরবে গত ২৪ ঘন্টায় আরও ৪২৯ জনের দেহে করোনাভাইরাসের উপস্থিতি শনাক্ত করা হয়েছে। একই সময়ে আরও ৫ জনের মৃত্যুর পর দেশটিতে করোনায় মোট মৃতের সংখ্যা এখন ৫৯ জন।

মৃতদের তালিকায় রয়েছেন ১০ প্রবাসী বাংলাদেশিও। সৌদি আরবে এখন পর্যন্ত মোট চার হাজার ৬২ জনের শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। খবর আল আরাবিয়া ও আরব নিউজের।

এদিকে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিরোধে পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত দেশটিতে কারফিউ চলবে বলে ঘোষণা দিয়েছেন বাদশা সালমান বিন আব্দুল আজিজ আল-সৌদ।

এর আগে, ২৩ মার্চ ২১ দিনের কারফিউ জারি করেছিল সৌদি প্রশাসন। গত সপ্তাহে রাজধানী রিয়াদ, তাবুক, দাম্মাম,দাহরান, হফুফ,জেদ্দা, তায়েফ, কাতিফ ও খোবারের মতো বড় শহরগুলোকে ২৪ ঘণ্টা কারফিউর আওতায় নিয়ে আসা হয়।

সৌদি প্রেস এজেন্সি জানিয়েছে, নতুন করে অনির্দিষ্টকাল কারফিউর মেয়াদ বাড়ানোর রাজকীয় নির্দেশ মেনে চলতে জনগণের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে দেশটির স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

বাংলাদেশ সময় রোববার রাত সাড়ে ৭টা পর্যন্ত ওয়ার্ল্ডোমিটারসের তথ্য অনুযায়ী- বিশ্বে করোনাভাইরাসে মৃতের সংখ্য ১ লাখ ৯ হাজার ৯৫১, আক্রান্ত ১৭ লাখ ৯৫ হাজার ১৮৩। সুস্থ হয়ে বাসায় ফিরেছেন ৪ লাখ ১১ হাজর ৮৩০ জন। মৃতের সংখ্যায় শীর্ষে ওঠা যুক্তরাষ্ট্রে সর্বমোট মৃত্যু হয়েছে ২০ হাজার ৫৮০ জনের। মোট আক্রান্ত ৫ লাখ ৩৩ হাজার ১১৫ জন। দেশটিতে গত ২৪ ঘণ্টায় মারা গেছেন ১৮৩০ জন।


এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/এমই

বিস্তারিত খবর

আরব বিশ্বে বাড়ছে করোনা আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা

 প্রকাশিত: ২০২০-০৪-১১ ১৯:০১:১০

বিশ্বব্যাপী মহামারি করোনাভাইরাসের সংক্রমণ দ্রুত ছড়াচ্ছে। বাড়ছে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। ব্যতিক্রম কিছু ঘটছে না আরব বিশ্বেও। ইতিমধ্যে আরব বিশ্বের ২২টি দেশেই ছড়িয়ে পড়েছে করোনাভাইরাস।

সৌদি আরবে আক্রান্তের সংখ্যা ৪ হাজার ছাড়িয়েছে (৪০৩৩)। একদিনে সেখানে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছে ৩৮২ জন। মারা গেছে ৫ জন। মোট মৃত ৫২ জন। সংযুক্ত আরব আমিরাতে আক্রান্তের সংখ্যা ৩ হাজার ৭৩৬ জন। ২৪ ঘণ্টায় সেখানে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছে ৩৭৬ জন। মোট মৃত ২০ জন। সেরে উঠেছে ৫৮৮ জন।

কাতারে আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় ৩ হাজার। নতুন করে আক্রান্ত হয়েছে ২১৬ জন। মারা গেছে ৬ জন। সেরে উঠেছে ২৪৭ জন। মিশরে আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় ২ হাজার। গেল ২৪ ঘণ্টায় সেখানে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছে ১৪৫ জন। মারা গেছে ১১ জন। মোট মৃত ১৪৭ জন। সুস্থ হয়েছে ৪২৬ জন।

মরোক্কোতে আক্রান্তের সংখ্যা ১ হাজার ৫৪৫ ছাড়িয়েছে। গেল ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আক্রান্ত হয়েছে ৯৭ জন। মারা গেছে মোট ১১১ জন। সেরে উঠেছে ১৪৬ জন। কুয়েতে আক্রান্তের সংখ্যা ১১৫৪ জন। গেল ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত হয়েছে ১৬১ জন। মৃতের সংখ্যা ১। সেরে উঠেছে ১৩৩ জন।

তিউনিসিয়ায় আক্রান্তের সংখ্যা ৬৮৫। ২৪ ঘণ্টায় সেখানে আক্রান্ত হয়েছে ২৪ জন। মারা গেছে ৩ জন। মোট মৃত ২৮। সেরে উঠেছে ৪৩ জন। লেবাননের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় নিশ্চিত করেছে সেখানে আক্রান্তের সংখ্যা ৬১৯। মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ২০। সুস্থ হয়েছে ৭৭ জন।

ওমানের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের দেওয়া তথ্যমতে সেখানে আক্রান্তের সংখ্যা ৫৪৬ ছাড়িয়েছে। নতুন করে আক্রান্ত হয়েছে ৬২ জন। মারা গেছে ৩ জন। সেরে উঠেছে ১০৯ জন। ফিলিস্তিনে আক্রান্তের সংখ্যা ২৬৮ জন। মারা গেছে ২ জন। সুস্থ্য হয়ে উঠেছে ৫৭ জন।

বিশ্বব্যাপী মহামারি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে ১৭ লাখ ৭১ হাজার ৫৫১ জন। প্রাণ হারিয়েছে ১ লাখ ৮ হাজার ৩৩৪ জন। করোনার সঙ্গে লড়াই করে সেরে উঠেছে ৪ লাখ ১ হাজার ৪৮৮ জন।

এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/এমই

বিস্তারিত খবর

যুদ্ধবিধ্বস্ত ইয়েমেনে করোনার ছোবল

 প্রকাশিত: ২০২০-০৪-১০ ১৯:৪০:১৭

যুদ্ধবিধ্বস্ত ইয়েমেনে প্রথমবারের মতো করোনাভাইরাসের রোগী ধরা পড়েছে। দেশটির দক্ষিণাঞ্চলীয় হাজরামাউত প্রদেশে এই ভাইরাসের সংক্রমণ ধরা পড়ে। এলাকাটি সৌদি প্রভাবিত গেরিলা গোষ্ঠীর নিয়ন্ত্রণে রয়েছে।

দেশটিতে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ধরা পড়ার পর উদ্বেগ ছড়িয়ে পড়েছে যে, দরিদ্র দেশটিতে দ্রুতগতিতে ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব মহামারি আকার ধারণ করবে।

গত পাঁচ ধরে দেশটি সৌদি নেতৃত্বাধীন জোটের ভয়াবহ আগ্রাসনের শিকার। সৌদি আগ্রাসনের কারণে স্বাস্থ্য ব্যবস্থাপনা অনেকটা ভেঙে পড়েছে।
ইয়েমেনের করোনা মোকাবেলায় সুপ্রিম ন্যাশনাল ইমার্জেন্সি কমিটি শুক্রবার টুইটার পোস্টে বলেছে, তেলসমৃদ্ধ হাজরামাউত প্রদেশে এই করোনা সংক্রমণের বিষয়টি সনাক্ত করা হয়েছে।

কমিটি জানিয়েছে, করানো আক্রান্ত রোগীকে বন্দরনগরী আশ-শিহ্‌র থেকে সনাক্ত করা হয়। তিনি বর্তমানে চিকিৎসাধীন এবং স্বাভাবিক অবস্থায় আছেন।

স্থানীয় গভর্নর ফারাক আল-বুশনি তার ফেসবুক পেইজে বলেছেন, ওই এলাকা আংশিক কারফিউয়ের অধীনে থাকবে এবং বন্দরের সবাইকে ১৪ দিনের জন্য কোয়ারেন্টাইনে নেয়া হবে।

এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/এমই

বিস্তারিত খবর

ইয়েমেনে যুদ্ধবিরতির ঘোষণা সৌদি জোটের

 প্রকাশিত: ২০২০-০৪-০৯ ০৭:২৪:৩৪

জাতিসংঘের আহ্বানে সাড়া দিয়ে সৌদি নেতৃত্বাধীন জোট ইয়েমেনে যুদ্ধবিরতির ঘোষণা দিয়েছে।

বৃহস্পতিবার (৯ এপ্রিল) থেকে এই যুদ্ধ বিরতি কার্যকর হবে বলে জানিয়েছে জোটের কর্মকর্তারা।

কর্মকর্তারা জানায়, জাতিসংঘের আহ্বানে সাড়া দিয়ে সৌদি নেতৃত্বাধীন জোট পাঁচ বছর ধরে চলা এই যুদ্ধে বিরতি আনা হয়েছে।

করোনা মহামারির কারণে গতমাসে ইয়েমেনে যুদ্ধ বন্ধের আহ্বান জানিয়েছিলেন জাতিসংঘের মহাসচিব আন্তোনিও গুতেরেস। এরপর এই যুদ্ধ বন্ধের জন্য মার্টিন গ্রিফিথস নামের একজন বিশেষ প্রতিনিধিও নিয়োগ করে জাতিসংঘ।

বুধবার ইয়েমেনে যুদ্ধবিরতিকে স্বাগত জানিয়েছে জাতিসংঘের বিশেষ প্রতিনিধি মার্টিন গ্রিফিথস।
 
২০১৫ সালের মার্চ মাস থেকে ইরানের হুতি বিদ্রোহীদের বিরুদ্ধে লড়াই করছে সৌদি নেতৃত্বাধীন জোট। তবে হুতিদের পক্ষ থেকে এই যুদ্ধবিরতি মেনে নেয়া হয়েছে কিনা সেটি এখনো জানা যায়নি।

এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/এমই

বিস্তারিত খবর

সৌদি রাজ পরিবারের ১৫০ সদস্য করোনা আক্রান্ত!

 প্রকাশিত: ২০২০-০৪-০৯ ০৩:০৫:২২

সৌদি রাজ পরিবারের অন্তত দেড়শ সদস্য করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। রাজপরিবারের ঘনিষ্ট সূত্রের বরাত দিয়ে এই খবর দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের প্রভাবশালী গণমাধ্যম নিউইয়র্ক টাইমস।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, রিয়াদের গভর্নর প্রিন্স ফয়সাল বিন বান্দর বিন আব্দুল আজিজ আল সৌদ করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। তিনি এখন নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) আছেন। রাজ পরিবারের ঘনিষ্ঠ দুজন সদস্য এই তথ্য জানিয়েছেন।

সৌদি রাজ পরিবারের বেশ কয়েকজন প্রিন্স সম্প্রতি যারা ইউরোপ ভ্রমণ করেছেন তারাও আক্রান্তের তালিকায় আছেন। রাজ পরিবারের আরও কয়েকজন সদস্য অসুস্থতাবোধ করছেন।

সৌদি বাদশাহ সালমান রাজপরিবার ছেড়ে জেদ্দায় একটি ভবনে নিরাপদ দূরত্বে অবস্থান করছেন। ক্রাউন প্রিন্স সালমান এবং মন্ত্রিসভার বেশ কয়েকজন সদস্য রাজপরিবার ছেড়ে দূরবর্তী এলাকায় অবস্থান করছেন বলে প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

দেশটির প্রসিদ্ধ হাসপাতালগুলোর বিখ্যাত সব চিকিৎসক যারা সৌদি রাজ পরিবারের সদস্যদের চিকিৎসা দিয়ে থাকেন তারা ৫০০ বেডের একটি হাসপাতাল তৈরির কাজে ব্যস্ত সময় পার করছেন। সেখানে রাজপরিবার ও তাদের ঘনিষ্টদের মধ্যে যারা করোনা সন্দেহভাজন তাদের চিকিৎসা দেয়া হবে।

২ মার্চ সৌদিতে প্রথম করোনা সংক্রমণ ধরা পড়ে। এরপর ৬ সপ্তাহে দেশটিতে ৪১ জনের মৃত্যু হয়েছে করোনাভাইরাসে। আর ২৭৯৫ জন আক্রান্ত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

করোনাভাইরাস শনাক্ত হওয়ার পর সৌদি সরকার সতর্কতামূলক ব্যবস্থা নিয়েছে। সৌদি আরবে ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। ওমরাহ বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। হজের বিষয়ে আরও দেরি করে সিদ্ধান্ত নিয়ে সৌদি সরকারের পক্ষ থেকে মুসলমানদের অনুরোধ জানানো হয়েছে।

এদিকে দেশটির স্বাস্থ্যমন্ত্রী তৌফিক আল রাবিয়াহ মঙ্গলবার সতর্ক করে বলেছেন,সৌদিতে মহামারীর প্রভাব সবে শুরু হয়েছে। আগামী কয়েক সপ্তাহে কমপক্ষে ১০ হাজার থেকে দুই লাখ মানুষ করোনায় আক্রান্ত হতে পারে।

এদিকে দেশটির স্বাস্থ্যমন্ত্রী তৌফিক আল-রাবিয়ার বরাত দিয়ে সৌদি প্রেস এজেন্সি জানিয়েছে, কয়েক সপ্তাহের মধ্যে সৌদিতে করোনা সংক্রমণের সংখ্যা সর্বনিম্ন ১০ হাজার দুই লাখ পর্যন্ত হতে পারে।

সৌদি আরবে প্রতিদিন কয়েক দফায় প্রচুর করোনা রোগী শনাক্ত করা হচ্ছে। বুধবার কয়েক দফায় মোট ৩২৭ জন করোনা রোগী শনাক্ত করা হয়।

করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে ইতিমধ্যেই কারফিউ জারি করা হয়েছে রিয়াদ, জেদ্দা, মক্কা, মদিনা ও আরও বেশকিছু শহরে।

কারফিউ এবং করোনা প্রতিরোধের নির্দেশ না মানলে অমান্যকারীর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানিয়েছে সরকার।

এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/এমই

বিস্তারিত খবর

সৌদিতে বাংলাদেশিদের খাবার সরবরাহ করবে কনস্যুলেট

 প্রকাশিত: ২০২০-০৪-০৭ ০৮:০৩:৪১

বিশ্বের বিভিন্ন দেশে ছড়িয়ে পড়েছে করোনাভাইরাস। মধ্যপ্রাচ্যের দেশ সৌদি আরবেও এর প্রকোপ দেখা দিয়েছে। এরই মধ্যে দেশটির ৯ শহরে কারফিউ জারি করা হয়েছে। কর্মহীন হয়ে পড়েছেন অসংখ্য শ্রমিক। এ অবস্থায় দেশটির বিভিন্ন শহরে অবস্থানরত প্রবাসী বাংলাদেশিরা চরম খাদ্য সংকটে পড়েছেন। তাদের সহযোগিতা করবে দেশটির জেদ্দায় অবস্থিত বাংলাদেশ কনস্যুলেট।

এ বিষয়ে কাউন্সেলর ও কার্যালয় প্রধান মোহাম্মদ কামরুজ্জামান ভুঁঞা জানান, দেশটিতে করোনার প্রকোপ বেড়ে যাওয়ায় কনস্যুলেট থেকে সোমবার (০৬ এপ্রিল) একটি জরুরি বিজ্ঞপ্তি জারি করা হয়।  এতে উল্লেখ করা হয়, করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের পরিপ্রেক্ষিতে সৌদি আরবের অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ড স্থবির হওয়ার কারণে জেদ্দা ও পশ্চিমাঞ্চলে যেসব প্রবাসী বাংলাদেশি চরম খাদ্য সংকটে পড়েছেন এবং প্রকৃতপক্ষে বিশেষ কষ্টের মধ্যে আছেন, বিশেষ করে কর্মহীন হয়ে পড়ায় প্রচণ্ড আর্থিক সমস্যার সম্মুখীন হয়েছেন, তাদের বাংলাদেশ কনস্যুলেটকে জানানোর জন্য অনুরোধ করা হচ্ছে।

এজন্য পাসপোর্ট কপি ও ইকামার কপি এবং টেলিফোন নম্বর দিয়ে কনস্যুলেট বরাবর সাহায্য চেয়ে আবেদন করলে ব্যবস্থা নেবে কর্তৃপক্ষ।

এছাড়া কনস্যুলেটের অফিসিয়াল টেলিফোন নম্বরে (012-6878465, 012-6894712 ও 012-6817149) রোববার থেকে বৃহস্পতিবার সকাল ৯টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত ফোন করে কিংবা হোয়াটসঅ্যাপে আবেদন জানানো যাবে। কারণ, করোনাভাইরাসের ভয়াবহ বিস্তার রোধে সৌদি সরকারের নেওয়া নিরাপত্তা ব্যবস্থার পরিপ্রেক্ষিতে সৌদি আরবের পশ্চিমাঞ্চলের অবস্থানকারী প্রবাসী বাংলাদেশিদের পরবর্তী ঘোষণা না দেওয়া পর্যন্ত কনস্যুলেটে না আসার জন্য অনুরোধ করা হয়।

এ বিষয়ে প্রবাসী কল্যাণ ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় সূত্র জানিয়েছে, আপদকালীন এই সময়ে বিদেশে অবস্থানরত কর্মীদের সাহায্য করার জন্য বাংলাদেশ সরকারের পক্ষ থেকে বিশেষ আর্থিক বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। প্রতিটি দূতাবাস সংশ্লিষ্ট দেশে অবস্থানরত বাংলাদেশিদের সব ধরনের সহযোগিতা করবে এই বরাদ্দ দিয়ে।

এদিকে, করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে রাজধানী রিয়াদ ও প্রধান শহর জেদ্দাসহ ৯ শহরে ২৪ ঘণ্টার কারফিউ জারি করেছে সৌদি সরকার। বাকি শহরগুলো হলো- তাবুক, দাম্মাম, দাহরান, হুফুফ, তায়েফ, কাতিফ ও খোবারে। এর আগে ধর্মপ্রাণ মুসলমানদের ঢল ঠেকাতে সৌদি আরবের দুই পবিত্র নগরী মক্কা ও মদীনাতে কারফিউ জারি করা হয়।

কারফিউ অমান্য করলে পাবলিক প্রসিকিউশন হিসেবে প্রথমে ১০ হাজার রিয়াল জরিমানা করা হবে। এছাড়া কারফিউর মধ্যে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর কার্যক্রমের ছবি তোলা বা ভিডিও করা হলে ৫ বছরের জেল এবং ৩০ লাখ রিয়াল জরিমানা করা হবে।

তবে একান্ত জরুরি চিকিৎসাসেবা, খাদ্যদ্রব্য কেনাকাটা ও ব্যাংকিং সেবার জন্য যার যার নির্দিষ্ট বসতি এলাকার ভেতরে অত্যন্ত নিয়ন্ত্রিতভাবে (সকাল ৬টা থেকে বিকেল ৩টার মধ্যে) বের হওয়া যাবে। এজন্য কেবল প্রাপ্তবয়ষ্করা বাড়ি থেকে বের হতে পারবেন। বাইরে যেতে হলে প্রতি গাড়িতে চালকসহ আরেকজন অর্থাৎ মাত্র দুজন থাকতে পারবে।

মুদি দোকান, ফার্মেসি, ফিলিং স্টেশন, ব্যাংক, গ্যাস স্টেশন, সার্ভিস অ্যান্ড মেইন্টেন্যান্স প্রতিষ্ঠান, প্লাম্বিং- ইলেক্ট্রিক- এসি টেকনিশিয়ানের কাজে নিয়োজিত ও পানি সরবরাহের কাজে নিয়োজিত কোম্পানিগুলো কারফিউ আওতার বাইরে থাকবে। এছাড়া ওইসব শহরে সব ধরনের ব্যবসায়িক কার্যক্রম নিষিদ্ধ থাকবে।

মঙ্গলবার (০৭ এপ্রিল) পর্যন্ত দেশটিতে ২ হাজার ৬০৫ জনের করোনা আক্রান্ত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। এর মধ্যে মারা গেছেন ৩৮ জন। এছাড়া এ পর্যন্ত ৫৫১ জন চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ হয়েছেন বলেও দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে দূতাবাস সূত্র জানিয়েছে।

এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/এমই

বিস্তারিত খবর

মক্কা-মদিনায় ২৪ ঘণ্টার কারফিউ

 প্রকাশিত: ২০২০-০৪-০২ ১১:১৬:২৬

রোনাভাইরাসের সংক্রমণের বিরুদ্ধে লড়াই জোরদার করতে মুসলমানদের পবিত্র নগরী মক্কা ও মদিনায় এবার ২৪ ঘণ্টার কারফিউ জারি করেছে সৌদি আরব। বৃহস্পতিবার দেশটির স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানিয়েছে।

সৌদি আরবে করোনাভাইরাসে এ পর্যন্ত এক হাজার ৭০০ জন আক্রান্ত হয়েছে। এদের মধ্যে মারা গেছে ১৬ জন।

এর আগে মক্কা, মদিনা, জেদ্দা ও রিয়াদে বেলা ৩টা থেকে সকাল ৬ পর্যন্ত কারফিউ  জারি ছিল। এছাড়া সৌদির অন্যান্য অঞ্চল থেকে এই চারটি এলাকায় প্রবেশে কড়াকড়ি নিয়ন্ত্রণ আরোপ করা হয়েছিল।

বৃহস্পতিবার বিবৃতিতে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, জরুরি সেবাকর্মীরা এই কারফিউর আওতামুক্ত থাকবেন। এছাড়া স্থানীয়রা খাদ্যপণ্য কেনা ও জরুরি চিকিৎসা সেবা নেওয়ার ক্ষেত্রে কারফিউ চলাকালে ছাড় পাবেন। এ সময় মক্কা  ও মদিনার বাসিন্দারা তাদের গাড়িতে কেবল এক জন সঙ্গী রাখতে পারবেন।

এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/এমই

বিস্তারিত খবর

কভিড-১৯: এখনই হজের পরিকল্পনা না করার পরামর্শ সৌদির

 প্রকাশিত: ২০২০-০৪-০১ ০৪:০০:২৮

এখনই হজের পরিকল্পনা না করে মুসল্লিদের করোনা ভাইরাস মহামারি পরিস্থিতি স্পষ্ট হওয়ার আগ পর্যন্ত অপেক্ষা করতে বললো সৌদি আরব।

বুধবার (১ এপ্রিল) সৌদি আরবের হজ এবং ওমরাহ মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে এ তথ্য জানায় কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল জাজিরা।

করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে মার্চ মাসের শুরুতে বছরব্যাপী চলা ওমরাহ স্থগিত করেছে সৌদি আরব। এ অভূতপূর্ব এ সিদ্ধান্তের কারণে আসন্ন হজ নিয়ে অনিশ্চয়তা দেখা দিয়েছে।

এ বছর জুলাই মাসের শেষদিকে অনুষ্ঠেয় এ হজে পবিত্র শহর মক্কা ও মদিনায় ছুটে যাওয়ার কথা রয়েছে প্রায় ২৫ লাখ মানুষের। এটিই দেশটির আয়ের অন্যতম উৎস।

দেশটির রাষ্ট্রীয় টেলিভিশন আল-এখবারিয়ায় এক বিবৃতিতে হজ এবং ওমরাহ বিষয়ক মন্ত্রী মোহাম্মদ সালেহ বেনতেন বলেন, ‘হজ এবং ওমরাহ পালনে ইচ্ছুকদের সেবায় সম্পূর্ণ প্রস্তুত সৌদি আরব। কিন্তু বর্তমান পরিস্থিতিতে আমরা একটি বৈশ্বিক মহামারিতে রয়েছি, মুসলমান ও নাগরিকদের স্বাস্থ্য সুরক্ষায় জাগ্রত এ রাজ্য। তাই হজের চুক্তির আগে পরিস্থিতি ঠিক হওয়া পর্যন্ত অপেক্ষা করার জন্য সব দেশে আমাদের মুসলমান ভাইদের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি আমরা।’

ওমরাহর পাশপাশি আন্তর্জাতিক যাত্রীবাহী সব ফ্লাইট অনির্দিষ্টকালের জন্য স্থগিত করেছে সৌদি আরব। গত সপ্তাহে মক্কা ও মদিনাসহ বেশ কয়েকটি শহরে আসা-যাওয়া নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমানের উচ্চাভিলাষী অর্থনৈতিক সংস্কার কর্মসূচিতে পর্যটকের সংখ্যা বাড়ানোর পরিকল্পনার মেরুদণ্ড এবং সৌদি আরবের জন্য বড় ব্যবসার উৎস এ হজ।

আধুনিক সময়ে হজ বাতিলের ঘটনা নজিরবিহীন হলেও উচ্চঝুঁকিপূর্ণ অঞ্চলগুলো থেকে হজযাত্রী আগমনে বিধিনিষেধ ছিল আগেও। ইবোলা প্রাদুর্ভাবের সময়ও এমন ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছিল।

সৌদি আরবে এখন পর্যন্ত দেড় হাজার মানুষ করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন এবং মারা গেছেন ১০ জন।


এলএবাংলাটাইমস/এম/এইচ/টি

বিস্তারিত খবর

কাতারে করোনাভাইরাসে প্রথম বাংলাদেশির মৃত্যু

 প্রকাশিত: ২০২০-০৩-৩১ ১২:১৩:৩৭


এই প্রথম কাতারে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে একজন বাংলাদেশির মৃত্যু হয়েছে। এটি কাতারে করোনা ভাইরাসজনিত প্রথম মৃত্যুর ঘটনা।

মৃত বাংলাদেশি দীর্ঘদিন কাতারে বসবাস করে আসছিলেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৫৭ বছর। তার নাম দিলীপ কুমার দেব। তিনি দীর্ঘমেয়াদী রোগে ভুগছিলেন।

গত ১৬ মার্চ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে তিনি হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন। রোগ ধরা পড়ার সঙ্গে সঙ্গে তাকে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে ভর্তি করা হয়েছিল এবং হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার পরে তাকে প্রয়োজনীয় চিকিৎসা ও যত্ন প্রদান করা হয়েছিল।

এই বাংলাদেশির মৃত্যুতে কাতারে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় নিহতের পরিবারের প্রতি সমবেদনা ও সহানুভূতি জ্ঞাপন করেছে। তারা এই মৃত্যুতে গভীর শোকও প্রকাশ করে।

এদিকে দিলীপের মৃত্যুতে রোববার কাতারে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত আসুদ আহমেদকে ডেকে নিয়ে গিয়ে সমবেদনা জানান কাতারের সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী এবং পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র লোলওয়াহ বিনতে রশিদ আল খাতর।

উল্লেখ্য, কাতারে এখন পর্যন্ত ৬৯৩ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। একজনের মৃত্যু হয়েছে। আর সুস্থ হয়ে উঠেছে ৫১ জন।

এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/এমই

বিস্তারিত খবর

করোনায় অবৈধ প্রবাসীরাও পাবেন সরকারি চিকিৎসা : সৌদি বাদশা

 প্রকাশিত: ২০২০-০৩-৩০ ১১:১৫:১১

বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) ইতোমধ্যে ১৯৫টিরও বেশি দেশে শনাক্ত হয়েছে। করোনায় আক্রান্ত হয়ে প্রতিনিয়ত বাড়ছে মৃতের সংখ্যা। গতকাল রবিবার পর্যন্ত বিশ্বে করোনায় নিহত হয়েছেন ৩৩ হাজার ৯৮০ জন। এছাড়া এখন পর্যন্ত ৭ লাখ ২১ হাজার ২৯৩ জন এই প্রাণঘাতী ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। অপরদিকে, হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ১ লাখ ৫১ হাজার ৪ জন।

এদিকে সৌদি আরবে করোনাভাইরাস আক্রান্ত যেকোনও ব্যক্তি, এমনকি অবৈধ প্রবাসীদেরও চিকিৎসার নির্দেশ দিয়েছেন দেশটির বাদশা সালমান বিন আব্দুল আজিজ।

সোমবার (৩০ মার্চ) সৌদির স্বাস্থ্যমন্ত্রী তৌফিক আল-রাবিয়া এ তথ্য জানিয়েছেন।

সৌদির স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, করোনাভাইরাস আক্রান্ত হওয়ার লক্ষণ দেখা গেলে সবাইকেই বাদশাহ সালমানের নতুন আদেশের অধীনে চিকিৎসা নেয়ার জন্য বিনা সংকোচে সরকারি-বেসরকারি যেকোনও হাসপাতালে যাওয়ার জন্য অনুরোধ করা হয়েছে।

সৌদি প্রেস এজেন্সি (এসপিএ) আল-রাবিয়ার উদ্ধৃতি দিয়ে জানিয়েছে, এদের মধ্যে সৌদির নাগরিক এবং বৈধ ভিসাধারী বা অবৈধ প্রবাসীরা অন্তর্ভুক্ত রয়েছেন।

মন্ত্রী আরও বলেন, করোনার সংক্রমণ এড়াতে এ ব্যবস্থা অনুসরণ করে প্রয়োজনীয় সেবা নেয়ার ওপর জোর দিয়েছেন বাদশাহ সালমান। বর্তমানে সৌদি আরবে কয়েক হাজার প্রবাসী আইনি জটিলতায় তথা শ্রম মন্ত্রণালয়ের ধার্যকৃত লেভি ফিসহ বিভিন্ন সমস্যায় রেসিডেন্স কার্ড বা আকামা নবায়ন করতে না পেরে অবৈধ নাগরিক হয়ে আছেন। তাদের মনে এতদিন শঙ্কা ছিল, করোনা আক্রান্ত হলে কোথায় যাবেন, কী করবেন। কিন্তু সৌদি বাদশাহর এই আদেশের মাধ্যমে সেসব ভয় দূর হয়ে গেল।

করোনাভাইরাসের বিস্তার রোধে সৌদিতে ইতোমধ্যেই সরকার ঘোষিত ২১ দিনের আংশিক কারফিউয়ের সঙ্গে আরও কড়াকড়ি আরোপ করা হয়েছে। জেদ্দায় কারফিউয়ের সময়সীমা আরও বাড়ানো হয়েছে। সন্ধ্যা ৭টার পরিবর্তে বিকেল ৩টা থেকে পরদিন সকাল ৬টা পর্যন্ত জেদ্দার কারফিউয়ের সময় নির্ধারণ করেছে দেশটির স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। রোববার থেকেই এই আদেশ কার্যকর হয়েছে।

এর আগে, গত ২৬ মার্চ থেকে সৌদির অন্যতম পবিত্র ও ব্যস্ততম এলাকা মক্কা, মদিনা ও রাজধানী রিয়াদে বিকেল ৩টা থেকে পরদিন সকাল ৬টা পর্যন্ত কারফিউ কার্যকর করা হয়। ২৩ মার্চ থেকে দেশটিতে ২১ দিনের আংশিক কারফিউ শুরু হয়। তখন সন্ধ্যা ৭টা থেকে সকাল ৬টা পর্যন্ত কারফিউয়ের সময় ঘোষণা করা হয়েছিল। পরে মক্কা, মদিনা, রিয়াদ ও সর্বশেষ জেদ্দায় সময়সীমা বাড়ানো হয়েছে।

সৌদিতে এ পর্যন্ত প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ১ হাজার ৪৫৩ জন, মারা গেছেন আটজন।


এলএবাংলাটাইমস/এম/এইচ/টি

বিস্তারিত খবর

জেদ্দা লকডাউন, কাবা-নববীতে নতুন নিয়ম

 প্রকাশিত: ২০২০-০৩-৩০ ০৬:৩২:২৬

করোনাভাইরাস প্রতিরোধে ঘোষিত ২১ দিনের আংশিক কারফিউতে আরও কড়াকড়ি আরোপ করেছে সউদি আরব সরকার। এ ছাড়া বর্তমান পরিস্থিতিতে মক্কায় মসজিদুল হারাম ও মদিনায় মসজিদে নববীতে আজান-নামাজে আপাতত একাধিক মুয়াজ্জিন ও ইমাম রাখা হবে না বলে নতুন সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে।
সউদী আরবের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয় থেকে দেয়া এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, এখন থেকে জেদ্দায় কারফিউয়ের সময় বাড়িয়ে সন্ধ্যা ৭টার পরিবর্তে বিকেল ৩টা থেকে পরদিন সকাল ৬টা পর্যন্ত করা হয়েছে।
এদিকে সউদি আরবের দুই পবিত্র স্থান মসজিদুল হারাম ও মসজিদে নববীতে একাধিক মুয়াজ্জিন ও ইমাম রাখার সিদ্ধান্ত থেকে আপাতত সরে এসেছে সরকার। নতুন সিদ্ধান্ত অনুযায়ী এই দুই পবিত্র স্থানে মুয়াজ্জিন ও ইমামের সংখ্যা কমিয়ে দেওয়া হবে। জরুরি পরিস্থিতিতে হারামাইন কর্তৃপক্ষ পরামর্শের আলোকে এ সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে।
কাবা শরিফের প্রধান ইমাম শায়খ ড. আব্দুর রহমান সুদাইসি পরামর্শের আলোকে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সঙ্গে পর্যালোচনা করে এক জরুরি নির্দেশনা জারি করেন। জানা গেছে, মসজিদুল হারামে প্রতিদিন আজানের জন্য দুজন মুয়াজ্জিন ও নামাজের জামাতের জন্য একজন ইমাম নিয়োজিত থাকবেন।
সৌদি আরবে করোনাভাইরাসে রোববার পর্যন্ত ১২ হাজার ৯৯ জন আক্রান্ত হয়েছেন। মারা গেছেন ৮ জন। সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ৬৬ জন।


এলএবাংলাটাইমস/এম/এইচ/টি




বিস্তারিত খবর

'করোনা আল্লাহর শাস্তি' বলায় সৌদিতে ৪ জন গ্রেফতার

 প্রকাশিত: ২০২০-০৩-২৯ ১৩:১৪:৫৩

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস আল্লাহর শাস্তি, এমন দাবি করে ফেসবুকে পোস্ট দেয়ায় চার ব্যক্তিকে গ্রেফতারের নির্দেশ দিয়েছে সৌদি আরব। ইতিমধ্যে ওই চার ব্যক্তি গ্রেফতার করা হয়েছে।

দেশটির পাবলিক প্রসিকিউশন টুইটারে দেওয়া এক বিবৃতিতে জানায়, সামাজিক মাধ্যমে করোনা নিয়ে বিভ্রান্তিকর পোস্ট দেওয়ায় তিন ব্যক্তিকে গ্রেফতারের নির্দেশ দিয়েছে।

সৌদির পাবলিক প্রসিকিউশন আরো জানায়, এক ভিডিও বার্তায় করোনাসংকট নিয়ে বিদ্রূপ এবং বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ে বিভ্রান্তিমূলক তথ্য দেওয়া ব্যক্তিকেও গ্রেফতারের নির্দেশ দিয়েছেন। গ্রেফতারকৃত ব্যক্তিদের নাম প্রকাশ হয়নি। তবে দেশটির সামাজিম মাধ্যমে গ্রেফতারকৃত ব্যক্তিদের পরিচয় নিয়ে জল্পনা চলছে।

ধারণা করা হচ্ছে, গ্রেফতার হওয়া ব্যক্তিদের মধ্যে একজন প্রখ্যাত কোরআন তেলাওয়াতকারী খালেদ আল- শাহরি। যিনি এক ভিডিও বার্তায় বিপর্যয় এবং মহামারীকে আল্লাহর শাস্তি বলে উল্লেখ করেছেন।

তবে তার অনুসারীরা বলেছেন,এই ভিডিও বার্তা দুই বছর আগের।

এছাড়া ধারণা করা হচ্ছে গ্রেফতার হওয়া আরেক ব্যক্তির নাম ইব্রাহিম আল-দুওয়াইশ, যিনি দেশটির একজন ধর্মপ্রচারক। গত বৃহস্পতিবার তিনি সামাজিক মাধ্যমে করোনা ভাইরাস নিয়ে বিতর্কিত পোস্ট করেছেন বলে অভিযোগ উঠে।

গ্রেফতার হওয়া আরেক ব্যক্তি খালেদ আবদুল্লাহ, তিনি করোনা নিয়ে বিভ্রান্তি কর টুইটারে পোস্ট করেন বলে অভিযোগ। তবে গ্রেফতার হওয়া চতুর্থ ব্যক্তি সম্পর্কে কোন তথ্য পাওয়া যায়নি।

এখন পর্যন্ত সৌদি আরবে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ১ হাজার ২০৩ জন, মারা গেছে ৪ জন।


এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/এমই

বিস্তারিত খবর

সৌদি আরবের একাধিক শহরে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা

 প্রকাশিত: ২০২০-০৩-২৯ ১০:১৭:০৬

করোনা আতঙ্কের মধ্যেই সৌদি আরবের রাজধানী রিয়াদসহ একাধিক শহরে ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র হামলা হয়েছে। এতে দুই বেসামরিক ব্যক্তি আহত হয়েছেন বলে জানিয়েছে দেশটি।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ থামাতে পুরো দেশে তিন সপ্তাহের কারফিউ জারি করেছে সৌদি সরকার। এরই মধ্যে শনিবার রাতে এসব ক্ষেপণাস্ত্র হামলা হয়। খবর ডনের।

হামলার জন্য ইয়েমেনের হুতিদের দায়ী করে সৌদি সরকার জানিয়েছে, তাদের আকাশ প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা সফলভাবে ক্ষেপণাস্ত্রগুলো ধ্বংস করেছে। রিয়াদ ও ইয়েমেন সংলগ্ন শহর লক্ষ্য করে বেশ কয়েকটি ক্ষেপণাস্ত্র হামলা হয়।

এর আগেও হুতি অসংখ্যবার সৌদির অভ্যন্তরে ড্রোন, রকেট ও শক্তিশালী ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়েছে।

তবে গত সেপ্টেম্বর থেকে এসব হামলা থেকে দূরে ছিল সংগঠনটি। গত বছর সৌদি আরবের তেলক্ষেত্রে ভয়াবহ ড্রোন হামলা চালায় হুতি। এতে দেশটির তেল উৎপাদন অর্ধেকে নেমে এসেছিল। এরপর থেকেই আর বড় কোনো হামলা চালায়নি হুতিরা।

শনিবারের হামলা নিয়ে একটি বিবৃতি প্রকাশ করেছে সৌদি আরবের সরকারি বার্তা সংস্থা সৌদি প্রেস এজেন্সি (এসপিএ)।

এতে বলা হয়, রাজধানী রিয়াদ ও জিজান শহরকে লক্ষ্য করে দুটি ব্যালিস্টিক মিসাইল হামলা হয়েছে। তবে এগুলোকে সফলভাবে ধ্বংস করা হয়েছে। এর ধ্বংসাবশেষ থেকে দুই বেসামরিক নাগরিক আহত হয়েছেন। তবে হুতিদের পক্ষ থেকে এখনো দায় স্বীকার করা হয়নি।

এলএবাংলাটাইমস/এম/এইচ/টি

বিস্তারিত খবর

কাতারে করোনাভাইরাসে বাংলাদেশির মৃত্যু

 প্রকাশিত: ২০২০-০৩-২৮ ১৯:৪৫:৪১


কাতারে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে প্রথম কোনো ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে। আর মারা যাওয়া ব্যক্তি বাংলাদেশি নাগরিক বলে নিশ্চিত করেছে দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়।

এ বিষয়ে কাতারের রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যম কিউএনএ'র বরাতে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, মারা যাওয়া বাংলাদেশির বয়স ৫৮ বছর। তিনি দীর্ঘদিন ধরে শারীরিক জটিলতায় ভুগছিলেন।

এদিকে শুক্রবার (২৮ মার্চ) দেশটিতে নতুন আরও ২৮ জন কোভিড-১৯ রোগে আক্রান্ত হয়েছেন। যার মাধ্যমে কাতারে এ রোগে আক্রান্তের সংখ্যা পাঁচশ ৯০ জনে দাঁড়িয়েছে।

অন্যদিকে সিঙ্গাপুরে আরও দুই বাংলাদেশি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। এদের মাধ্যমে দেশটিতে মোট ৭ বাংলাদেশি করোনায় আক্রান্ত হলেন।

এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/এমই

বিস্তারিত খবর

করোনাভাইরাস: ২১ দিনের লকডাউন দক্ষিণ আফ্রিকা

 প্রকাশিত: ২০২০-০৩-২৭ ১০:৩৯:৩১

দক্ষিণ আফ্রিকার রাষ্ট্রপতি সিরিল রামাফোসা করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে আজ শুক্রবার থেকে ২১ দিনের লকডাউন করার ঘোষণা করেছেন।

সোমবার রাষ্ট্রপতি জাতির উদ্দেশ্য দেয়া ভাষনে করোনাভাইরাসের বিস্তার রোধে এ লকডাউনের ঘোষণা দেন তিনি। এ লকডাউন ১৬ এপ্রিল মধ্যরাত পর্যন্ত চলবে।

দেশে নাটকীয়ভাবে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বৃদ্ধি পাওয়ায় এবং ভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে ও সংক্রমণ থেকে জাতিকে রক্ষা করতে ২১ দিন পুরো দক্ষিণ আফ্রিকা লকডাউন থাকবে।

এসময় দক্ষিণ আফ্রিকান সকল নাগরিক অবশ্যই ঘরের বাইরে যাবেনা, সবাই নিজ নিজ বাড়িতে অবস্থান করবে।

এসময় সরকার জনগণের ঘরে ঘরে খাদ্য সরবরাহ করবে। লকডাউনের সময় ঔষধের দোকান, খাবারের দোকান, জরুরী মেডিকেল টিম, পুলিশ, ট্রাফিক, সিকিউরিটি, ফায়ার বিগ্রেড, খাদ্যপণ্য সরবাহে নিয়োজিত যানবাহন, খাদ্য দ্রব্য উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান, ব্যাংক, এটিএম খোলা থাকবে।

এছাড়া অন্য সকল দোকান ও শপিংমল বন্ধ রাখতে হবে।

রাষ্ট্রপতি আগামী ২১ দিন লকডাউনটি মেনে চলার জন্য জনগণের প্রতি বিনীত অনুরোধ জানান। দেশব্যাপী জনগণ যাতে লকডাউনটি মেনে চলে এটি নিশ্চিত করার জন্য সেনাবাহিনীকে মোতায়েন করা হয়েছে বলে রাষ্ট্রপতি ভাষণে উল্লেখ করেন।

উল্লেখ্য,গত এক সপ্তাহ আগে রাষ্ট্রপতি রামাফোসা করোনাভাইরাসের সংক্রমণের জন্য দক্ষিণ আফ্রিকাকে একটি জাতীয় বিপর্যয়ের রাষ্ট্র ঘোষণা করেছিলেন। ৩ মার্চ দক্ষিণ আফ্রিকায় প্রথম করোনাভাইরাস আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছিল দেশটির কোয়াজুলু নাটাল প্রদেশে। শনাক্ত ব্যক্তিটি ছিল ইতালি ফেরত।

এরপর থেকে প্রতিদিন লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়তে থাকে কভিড-১৯ আক্রান্তের সংখ্যা। যা গতকাল পর্যন্ত গত ২৪ দিনে আক্রান্ত হয়েছে ৯২৭ জন। যার অধিকাংশই স্থানীয়ভাবে সংক্রমিত।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন, প্রথম আক্রান্ত ৫ জন সম্পূর্ণ সুস্থ হয়ে হাসপাতাল ছেড়েছেন। অন্য আক্রান্তরা যথাযথ চিকিৎসা নিচ্ছে এবং কেউ মারাত্মক ঝুঁকিতে নেই।

এদিকে করোনাভাইরাসের মারাত্মক ঝুঁকিতে রয়েছে জোহানসবার্গ ও কেপটাউন। বর্তমানে শুধু মাত্র জোহানসবার্গে আক্রান্তের সংখ্যা ছাড়িয়েছে ৪০০ এর ওপরে। আর কেপটাউনে ২০০ এর ওপরে।

করোনাভাইরাস আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ার কারণে মারাত্মকভাবে ঝুঁকিতে রয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকায় বসবাসকারী প্রায় ৩ লাখ বাংলাদেশি প্রবাসী।


এম/এইচ/টি

বিস্তারিত খবর

করোনার ভয়ে ইরাক ছেড়েছে ফ্রান্স ও ব্রিটিশ সেনারা

 প্রকাশিত: ২০২০-০৩-২৭ ০৯:২৮:৩৭

করোনা আতঙ্কে ইরাক থেকে সেনা প্রত্যাহারের ঘোষণা দিয়েছে ফ্রান্স। এর আগে একই কারণে গত সপ্তাহে ইরাকে মোতায়েন সেনাদের সরিয়ে নিয়েছে ব্রিটেনও। একই কারণ দেখিয়ে চেক সামরিক বাহিনীও ইরাক থেকে তাদের সেনাদল সরিয়ে নিয়েছে।

ফ্রান্সের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, করোনাভাইরাস আতংকে সেনাদের সাময়িকভাবে সব ফরাসি সেনা ইরাক ত্যাগ করবে। দেশটির সশস্ত্র বাহিনী মন্ত্রণালয়ে এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত গ্রহণের প্রেক্ষিতেই সেনা প্রত্যাহার হচ্ছে বলে জানানো হয়েছে। মন্ত্রণালয় থেকে একটি বিবৃতিও দেয়া হয়েছে।

আপাতত সেনা ফিরিয়ে আনবে ফ্রান্স। তবে সন্ত্রাসী গোষ্ঠী ইসলামিক স্টেটের বিরুদ্ধে বিমান হামলা অব্যাহত থাকবে।

ইরাকের প্রধানমন্ত্রীর মুখপাত্র দেশটিত আস সাবাহ সংবাদপত্রকে জানিয়েছেন, ফরাসি সেনারা এরইমধ্যে ইরাক ত্যাগ করেছে।


এম/এইচ/টি

বিস্তারিত খবর

সাম্প্রতিক খবর

সর্বাধিক পঠিত