যুক্তরাষ্ট্রে আজ মঙ্গলবার, ১৭ Jul, ২০১৮ ইং

|   ঢাকা - 01:48pm

|   লন্ডন - 08:48am

|   নিউইয়র্ক - 03:48am

  সর্বশেষ :

  পুলিশবাহী মাইক্রো বাসের গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণে নিহত ৩   মানবতাবিরোধী অপরাধ : মৌলভীবাজারের ৪ জনের মৃত্যুদণ্ড   প্রাইজমানির ৫ লক্ষ ডলার প্রতিবন্ধী শিশুদের দিয়ে দিচ্ছেন এমবাপে   বাংলাদেশ ব্যাংকের ভল্টে রাখা সোনা হয়ে গেল মিশ্র ধাতু!   লং বিচ কাইট ফেস্টিভ্যাল-এর ৫ম আসর ১২ আগস্ট   ওসমানী মেডিকেলে রোগীর নাতনিকে ধর্ষণ, ইন্টার্ন চিকিৎসক আটক   ছাত্রলীগকে ‘আবার মানুষ হওয়ার’ পরামর্শ ঢাবি শিক্ষকের   ফিনল্যান্ডে ট্রাম্প-পুতিন বৈঠক   শিরোপা উদযাপন করতে গিয়ে প্যারিসে সহিংসতা, নিহত ২   ঘিঞ্জি মহল্লা থেকে বিশ্বমঞ্চে কিলিয়ান এমবাপ্পে   ভারতে মোদির জনসভায় শামিয়ানা ভেঙে আহত ৬৭   লিবিয়ায় কনটেইনার লরি থেকে বাংলাদেশিসহ ৯০ অভিবাসী উদ্ধার   কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের পূর্ণ সমর্থন দিলো বিএনপি   যুক্তরাষ্ট্রের বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক আদালতে ইরানের মামলা   কোটার রায় কি বৈধ ছিল?

মূল পাতা   >>   লাইফ স্টাইল

অতি সাধারণ এই ছবিটি বলে দেবে আপনার ব্যক্তিত্বের গোপন কথা

নিউজ ডেস্ক

 প্রকাশিত: ২০১৭-১২-২২ ১২:৪০:৩১

নিউজ ডেস্ক: পৃথিবীটাকে আমরা একেক জন একেক দৃষ্টিতে দেখি। আপনি পৃথিবীকে যেভাবে দেখছেন, তা কিন্তু আপনার ব্যক্তিত্বের কিছু মূল বৈশিষ্ট্যকে তুলে ধরে। গ্রাফিক্স ডিজাইনার ইগর মরস্কির এই ছবিটি হলো এমন একটি পরীক্ষা। আপনার মনোযোগ সবার আগে যেদিকে যাবে, সেটাই বলে দেবে আপনার ব্যক্তিত্ব কেমন।

এই পরীক্ষাটি খুবই সহজ। ছবিটির মূল ৩টি বৈশিষ্ট্য আছে এবং এর মাধ্যমে ৩ ধরণের ব্যক্তিত্বের মানুষ শনাক্ত করা সম্ভব হয়।  ছবিটি দেখার সময়ে বেশী চিন্তা করবেন না। আপনার চোখে প্রথম কী পড়ে, সেটাই ভাবুন।

১) একটি মুখাবয়ব
এই ছবিতে থাকা মুখটর মতোই, আপনি নিজেকে একটা পাজলের মত ভাবতে ভালোবাসেন। নিজের সত্ত্বাকে খুঁজে আপনি সময় ব্যয় করতে রাজি নন। বরং নিজের পছন্দমত নিজেকে এবং নিজের জীবনকে গড়ে নিতেই আপনি আগ্রহী। এছাড়া আপনি পৃথিবীর সামনে নিজেকে তুলে ধরতেও পছন্দ করেন। আপনি যে কাজই করেন না কেন, তাতে সফল এবং শীর্ষে থাকার চেষ্টা করেন। এসব কাজের মাধ্যমে নিজের একটি উজ্জ্বল ইমেজ তৈরির চেষ্টা করেন অন্যের চোখে। 

আপনি নিজেকে নিখুঁত করার চেষ্টা করেন, এটার কিছু খারাপ দিক আছে। কারণ কেউই আসলে নিখুঁত হতে পারেন না। বাইরে সফল এবং সুখী হলেও আসলেই কি আপনি যা চান, তা পেয়েছেন জীবন থেকে? নাকি অন্যের থেকে বাহবা পাবার আশাতেই জীবন পার করে দিচ্ছেন?

২) মস্তিষ্ক বা গাছ
এই ছবিতে থাকা গাছটির মতোই আপনি সবসময় নিজের জ্ঞানের বৃদ্ধি করতে চান। আপনি কৌতূহলী। আপনি সবকিছু বোঝার চেষ্টা করেন। আপনি যাই করেন না কেন, তার পেছনে থাকে জ্ঞান অর্জনের প্রয়াস। নতুন কিছু শিখতে আপনি ভালোবাসেন। সম্ভবত আপনি পরাবাস্তব, আলৌকিক এবং অশরীরী রহস্যের বিষয়ে আগ্রহী হতে পারেন।

অন্যেরা আপনার ব্যাপারে বলে, আপনি অনেক বিষয়েই জ্ঞান রাখেন।

মনস্তত্ত্ব এবং এ ধরণের বিষয়গুলো আপনি ভালো বোঝেন। কয়েকশ বছর আগে জন্ম নিলে আপনি নিঃসন্দেহে একজন দার্শনিক হিসেবে পরিচিতি পেতেন। আপনি শুধু জানতে হবে বলেই জানেন, এমন নয়। আপনি জ্ঞান অর্জনের মাধ্যমে পৃথিবী এবং বিশ্বব্রহ্মাণ্ডের ব্যাপারে বুঝতে চান।

অন্যরা আপনার ব্যাপারে কী ভাবে, আপনাকে কী চোখে দেখে এটা আপনার কাছে তেমন গুরুত্বপূর্ণ নয়। আপনি কে, আপনি কেন পৃথিবীতে এসেছেন, এটাই আপনার কাছে বেশী গুরুত্বপূর্ণ।

এতে কোন সমসয়া দেখা যায় না বটে। কিন্তু এসব প্রশ্নের মাঝে নিজেকে হারিয়ে ফেলা চলবেন না। এই সব প্রশ্নের উত্তর জানার মাঝে জীবনের অর্থ নিহিত নয়।

৩) পাখি এবং প্রকৃতি
ছবির এই পাখির মতই আপনি মুক্ত থাকতে চান। সামাজিক শত বিধিনিষেধ, ছলচাতুরির খেলার মাঝে আপনি থাকতে চান না। আপনি নিজেকে তৈরি করতে চান না, নিজেকে খুঁজেও ফেরেন না। আপনি মুক্ত থাকতে চান, পৃথিবী যেমন আছে সেভাবেই উপভোগ করতে চান।

আপনি এখন যেখানে আছেন, সেখানে কেমন হাঁসফাঁস লাগছে জীবনটা। আপনি বের হয়ে পরতে চান, দেখতে চান পৃথিবীর আনাচকানাচ। একই জায়গায় বেশিদিন থাকাটা মোটেই স্বস্তি দেয় না আপনাকে।

আপনি সবকিছুকে একটা হালকাভাবে নিতেই পছন্দ করেন। বন্ধুবান্ধবের সাথে মিলে মজা করে সময় কাটাতে ভালোবাসেন। প্রকৃতির কাছাকাছি থাকতেও চান সব সময়। পৃথিবীতে কত নতুন নতুন জায়গা দেখার আছে, তা ভাবলেই খুশিতে মনটা ভরে ওঠে আপনার, তাই না?

যে কোন রকম জ্ঞানের চাইতে অভিজ্ঞতা অর্জন করাটাই আপনার প্রিয়। আপনি অনেক কিছুই শেখেন, কিন্তু বেশিদিন তাতে মনোযোগ দিতে পছন্দ করেন না। সবসময় সামনের দিকে অগ্রসর হতে থাকেন আপনি। পেছনের দিকে তাকানো মানেই সময় নষ্ট মনে হয় আপনার কাছে।

অন্যরা আপনার ব্যাপারে কী ভাবছে, পৃথিবী এমন কেন বা পৃথিবীতে আপনি কেন এসেছেন, এসব নিজে মোটেই চিন্তিত নন আপনি। আপনার মনে হয়, পৃথিবীতে আপনি আছেনই বিভিন্ন অভিজ্ঞতা অর্জনের জন্য। সব সময় তারই জন্য উন্মুখ আপনি।

তবে এই স্রোতে একেবারে গা ভাসিয়ে চলাটাও খুব উপকারী নয় আপনার জন্য। আপনার সাথে অন্যদের সম্পর্ককে মূল্য দিতে শিখুন। পৃথিবীতে কোন কিছুই হয়ত চিরস্থায়ী নয়। কিন্তু ভালোবাসার মানুষগুলোর যত্ন নিলেই কেবল অস্থায়ী এ পৃথিবীতে ভালো একটি জীবন কাটাতে পারবেন আপনি।


এলএবাংলাটাইমস/এলআ/এলআরটি

এই খবরটি মোট পড়া হয়েছে ১১৩৯ বার

আপনার মন্তব্য