Updates :

        ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টের কারণে বাচ্চাদের স্বাস্থ্য নিয়ে শঙ্কায় অভিভাবকরা

        করোনা মোকাবিলায় নতুন পদক্ষেপ গ্রহণ জরুরি: সিডিসি

        প্রাক্তন সামরিক সদস্য ও গৃহহীনদের সেবায় নিয়োজিত ভিলেজ ফর ভেটস

        ভাড়াটিয়া উচ্ছেদ নিষেধ আইনের সময়সীমা শেষ, হুমকিতে লাখো মানুষ

        ক্যালিফোর্নিয়ায় সেপ্টেম্বরে চতুর্থ স্টিমুলাস চেক প্রদান শুরু

        ফ্লোরিডায় বাড়ছে করোনা সংক্রমণ, দৈনিক আক্রান্তের রেকর্ড

        এবার গণপরিবহন চালু

        জাপান, মালয়েশিয়া এবং থাইল্যান্ডে রেকর্ড সংখ্যক করোনা সংক্রমণ

        শ্রমিকদের কর্মস্থলে ফেরাতে এবার গণপরিবহন চালু

        প্রতারণার অভিযোগ থেকে রেহাই পেলেন ব্রিটিশ-বাংলাদেশী এমপি আপসানা

        ‘এই বাংলার মাটিতে আর আসবো না’

        ক্ষুদ্র গ্রাহকদের ঋণ মওকুফের প্রক্রিয়া সহজ করছে এসবিএ

        গারসেটির বাসভবনে বিক্ষোভকারীরা ছুঁড়লো আবর্জনা ও টয়লেট পেপার

        ক্যালিফোর্নিয়া ছেড়ে যাচ্ছেন বাসিন্দারা, বসতি গড়ছেন নেভাদায়

        লস এঞ্জেলেসে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার আগে করোনা পরীক্ষা বাধ্যতামূলক

        দুই দিনের জন্য বন্ধ হলো মিরপুর স্টেডিয়াম

        ঢাকার পথে অসংখ্য কর্মজীবী মানুষ

        বাইডেন প্রশাসনের গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্বে ২ মার্কিন মুসলিম

        সালমান শাহের রুমে ঢুকে স্মৃতি ছুঁয়ে এসেছেন সাইমন

        বকেয়া টাকা চাওয়ায় ঝালমুড়িওয়ালাকে পেটালেন ঢাবি ছাত্রলীগ নেতা

আপনার ব্যক্তিগত তথ্য চুরি করছে যে অ্যাপগুলো!

আপনার ব্যক্তিগত তথ্য চুরি করছে যে অ্যাপগুলো!

স্মার্টফোনের প্রভাবে আমাদের ব্যক্তিগতজীবন ও তথ্য এতটাই সংশ্লিষ্ট হয়ে যাচ্ছে যে আমাদের বর্তমান জীবনকে নিয়ন্ত্রনের পাশাপাশি আমাদের ভবিষ্যতের নিয়ন্ত্রনও চলে যাচ্ছে এই স্মার্টফোনের কাছে।

স্মার্টফোন না, এই ফোন পরিচালনা করতে যে অ্যাপ্লিকেশনগুলো ব্যবহার হয় সেগুলোর উপরেই মুলত আমাদের নির্ভরশীলতা বাড়ছে। আর এই অ্যাপগুলো নিয়ন্ত্রন করছে আমাদের মতই কিছু মানুষ। এই কারণেই স্মার্টফোনের অ্যাপগুলোতে থাকা আমাদের ব্যক্তিগত তথ্য নিরাপদ নয় বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা।

বিশেষজ্ঞরা নিয়মিতই অনুসন্ধান করে দেখেছেন যে মোবাইল অ্যাপের বিভিন্ন সেবার আড়ালে গ্রাহকদের তথ্য চুরি করে আসছে বেশ কিছু অ্যাপ। এছাড়াও সামাজিক যোগাযোগের মাধম ফেসবুকে ব্যবহৃত বেশ কিছু অ্যাপ্লিকেশনের মাধ্যমেও ব্যবহারকারীদের তথ্য হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগও আছে বেশ। সম্প্রতি এমন অভিযোগে গুগল প্লেস্টোর থেকে ৯ টি অ্যাপ সরিয়ে দিয়েছে।

চলুন তাহলে জেনে নেওয়া যাক সেই মোবাইল অ্যাপগুলোর নাম, যা সেবাদানের আড়ালে গ্রাহকদের তথ্য চুরি করছে-

ফটো এডিটিং অ্যাপ

প্রসেসিং ফটো এবং পিপ ফটো নামের জনপ্রিয় দুটি অ্যাপকে তথ্য চুরির দায়ে প্লে-স্টোর থেকে বের করে করে দিয়েছে গুগল। ছবি এডিটিংয়ের জন্য বহুল জনপ্রিয় এই অ্যাপ দুটির ব্যবহারকারীর সংখ্যাও অনেক। দুটি অ্যাপই পাঁচ লাখেরও বেশি ডাউনলোড করা হয়েছে। কিন্তু সাবধানে ব্যবহার করার কথা জানাচ্ছেন সোশাল মিডিয়ার বিশেষজ্ঞরা।

স্ক্রীণ লক অ্যাপ

মোবাইল ফোনের স্ক্রিনকে নানা রঙ ঢং করে লক করতে পছন্দ করেন অনেকেই। তাইতো স্টক অ্যাপ রেখেই থার্ড পার্টি স্ক্রীন অ্যাপ ব্যবহার করেন ইউজাররা। তবে এই স্ক্রীন লক অ্যাপের পেছনেই গ্রাহকের তথ্য চুরি করছে এমন অ্যাপ হচ্ছে অ্যাপ লক কীপ, অ্যাপ লক ম্যানেজার এবং লক কীট মাস্টার । অ্যাপগুলো যথাক্রমে ৫০ হাজার, ১০ হাজার এবং ৫ হাজার বার ডাউনলোড হয়েছে।

রাশিফল

নিজের ভাগ্যফল নিয়ে আমরা প্রায় চিন্তিত থাকি। আর সেটাকে যাচাই করতে আমরা অনেকেই এই ধরনের রাশিফল যাচাই অ্যাপ ব্যবহার করে থাকি। কিন্তু তথ্য চুরির দায়ে হরস্কপ ডেইলি এবং হরস্কপ পাই, এই অ্যাপগুলোকেও সরিয়ে দিয়েছে গুগল। অ্যাপগুলো প্রায় একলাখ বারেরর মত ডাউনলোড হয়েছিলো।

রাবিশ ক্লিনার

মোবাইল ফোনের জাংক অথবা ক্যাশ ক্লিন করতে স্টক অ্যাপ না থাকায় আমরা প্রায় সময়েই থার্ড পার্টি অ্যাপ ব্যবহার করে থাকি। আর এমনই একটী অ্যাপ হচ্ছে রাবিশ ক্লিনার। এই অ্যাপটি ১ লাখেরও বেশিবার ডাউনলোড করা হয়েছে। কিন্তু অ্যাপটি তার ব্যবহারকারীদের তথ্য চুরি করছে এমন অভিযোগে প্লে স্টোর থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে।

ইনওয়েল ফিটনেস

স্বাস্থ্যই সুখের মুল, কিন্তু এই স্বাস্থ্য ঠিক রাখতে গিয়ে বিপাকে পরতে হতে পারে আপনাকেও। ইনওয়েল নামের এই ফিটনেস অ্যাপটির ব্যবহারকারী যদি আপনি হয়ে থাকেন, তাহলে আপনার ব্যক্তিগত তথ্য এখন হুমকির মুখে। কারণ, তথ্য চুরির দায়ে এই অ্যাপটিকেও সরিয়ে দিয়েছে গুগল।

ব্যক্তিগত তথ্যচুরি রোধের উপায়

অ্যান্ড্রয়েড ফোনে অ্যাপ ব্যবহারের সময় সতর্ক না হলে আপনার ব্যক্তিগত তথ্য বেহাত হতে পারে যেকোন সময়। তাই যেকোন অ্যাপ ইনস্তল করার সময়ে খেয়াল রাখবেন।

তথ্য চুরি ঠেকাতে অ্যান্ড্রয়েড ফোনের সেটিংসে যান, স্মার্টফোনের অ্যাপস বা অ্যাপ্লিকেশন ম্যানেজার অংশে যান। এরপর তালিকায় থাকা সন্দেহভাজন অ্যাপে ক্লিক করুন ও তার পারমিশন অংশে যান। সেখানে টগল করে যেগুলোর অনুমতি দিতে চান না, তা বন্ধ করে দিন।

এ ছাড়া সিকিউরিটি সেটিংসে গিয়ে অ্যাপ পারমিশন অংশ থেকে কোন অ্যাপ কিসের অনুমতি নিয়েছে, তা দেখতে পারেন। এরপর প্রয়োজনে অ্যাপ আনইনস্টল করতে বা নতুন অ্যাপ ইনস্টল করতে পারেন।

 

এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/টি

[এলএ বাংলাটাইমসের সব নিউজ আরও সহজভাবে পেতে ‘প্লে-স্টোর’ অথবা ‘আই স্টোর’ থেকে ডাউনলোড করুন আমাদের মোবাইল এপ।]

শেয়ার করুন

পাঠকের মতামত