যুক্তরাষ্ট্রে আজ মঙ্গলবার, ০৪ অগাস্ট, ২০২০ ইং

|   ঢাকা - 04:15am

|   লন্ডন - 11:15pm

|   নিউইয়র্ক - 06:15pm

  সর্বশেষ :

  করোনাভাইরাস: সংক্রমণের নতুন ধাপে প্রবেশ করতে যাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র   ডিজেলের ফেলে দেয়া কালিই ঘটায় অ্যাপল ফায়ার   মাস্ক নিয়ে লঙ্কাকাণ্ড ম্যানহাটন বিচে   যুক্তরাষ্ট্রে দ্বিতীয়ধাপের বেকারভাতা সর্বোচ্চ ১২০০ ডলার   বৈরুতে ভয়াবহ বিস্ফোরণ, হতাহত শতাধিক   মৃতের সংখ্যা কমলেও অর্থনীতি শিগগিরই চাঙ্গা হচ্ছে না ক্যালিফোর্নিয়ায়   স্বাস্থ্যবিধি তোয়াক্কা না করে পানশালায় পুলিশ অফিসারের পার্টি   দেশে বন্যায় এখন পর্যন্ত ১৪৫ জনের মৃত্যু   চীনা ভ্যাকসিন পরীক্ষায় সন্তোষজনক হলে বাংলাদেশে ট্রায়াল   পুরো কাশ্মীরকে অন্তর্ভুক্ত করে নতুন মানচিত্র প্রকাশ করল পাকিস্তান   বেভারলি ক্রেস্টে বন্দুক হামলায় নিহত ১, আহত ২   ৩০ বিলিয়ন ডলারে স্প্রিন্ট এবং টি মোবাইল একীভূত   ক্যালিফোর্নিয়ায় করোনা সংক্রমণ হ্রাসেও উদ্বেগ কমছে না   লস এঞ্জেলেসে দু সপ্তাহের মধ্যে খোলছে স্কুল   যুক্তরাষ্ট্রে চীনের সব সফটওয়্যার নিষিদ্ধ করতে যাচ্ছেন ট্রাম্প

মূল পাতা   >>   স্বদেশ

আদালতে জঙ্গির মাথায় আইএসের টুপি: দুই সংস্থা বলছে দুরকম!

নিউজ ডেস্ক

 প্রকাশিত: ২০১৯-১২-০৫ ১০:২০:১৬

নিউজ ডেস্ক:
গুলশানের হলি আর্টিজান হামলা মামলার রায় হলেও আদালত চত্বরে আসামির মাথায় আইএসে লোগোযুক্ত টুপি কীভাবে এলো- তা নিয়ে বিতর্ক থামছে না।

এর আগে কারাকর্তৃপক্ষ জেল থেকে আইএস টুপি যায়নি বলে জানান দিলেও পুলিশের তদন্ত সংশ্লিষ্ট্ররা বলছেন, টুপিগুলো কারাগার থেকেই এসেছে।

আদালতে আসামিরা টুপি কীভাবে পেল- তার তদন্ত শেষ করে বৃহস্পতিবার ডিএমপির তদন্ত প্রতিবেদন দেওয়ার কথা রয়েছে কমিশনারের কাছে। তদন্ত শেষও হয়েছে।

তদন্ত সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা বলছেন, তদন্তের অংশ হিসেবে কারাগারের ভিডিও ফুটেজ সংগ্রহ করা হয়। কারাগারে আসামিদের তল্লাশি করা হয়েছে।  আসামিদের কাছে দুটি সাদা এবং একটি কালো টুপি ছিলো। তবে টুপিগুলো আনতে বাধার সম্মুখিন হয়নি তারা। টুপির ভাঁজে কিছু লেখা রয়েছে কি না, সেটি ফুটেজে নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

বৃহস্পতিবার বিকেলে রাইজিংবিডির প্রশ্নে ডিবির যুগ্ম কমিশনার মাহবুব আলম বলেন, ‘পেশাদারিত্ব কিংবা সচেতনতার ঘাটতি ছিল দায়িত্বশীল পুলিশের। আবার তারা তাৎক্ষণিকভাবে বুঝতে পারেননি। তদন্ত প্রায় শেষ হয়ে গেছে। এরপরই বিস্তারিত জানাবো।’

এর আগে কারা অধিদপ্তরের এক সংবাদ সম্মেলনে কর্মকর্তারা বলেছিলেন, ‘কারাগার থেকে টুপি যায়নি। কেননা আসামিদের বের করার সময় তল্লাশির নিয়ম রয়েছে। তা করে আসামিদের পুলিশ নিয়ে যায়। তারপরও কারাগারের কেউ জড়িত থাকার বিষয় নিশ্চিত হওয়া গেলে অবশ্যই ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

অবশ্য সরকারি দুই সংস্থার তথ্যের সঙ্গে মিলছে না ফাঁসির দন্ডপ্রাপ্ত জঙ্গি রাকিবুল ইসলাম রিগ্যানের। অন্য আরেক মামলায় শুনানির সময় সেই রিগ্যান আদালতকে বলেন, ‘রায়ের দিন আদালতে কেউ একজন ভিড়ের মধ্যে তাকে টুপিটি দেয়। পরে সে টুপিটি মাথায় পড়ে। অবশ্য আদালতের গারদখানায় কেউ টুপিটি দিয়েছে কিনা তাও খতিয়ে দেখছে সংশ্লিষ্ট্ররা।

প্রসঙ্গত, গত মাসে ভয়ঙ্কর ও ন্যক্কারজনক এই জঙ্গি হামলার রায় দেন ঢাকার বিশেষ আদালত। রায়ে রিগ্যানসহ ৮ জঙ্গির ফাঁসির আদেশ হয়। রায়ের পরই আসামিরা আইএস লেখা সম্বলিত টুপি আদালত চত্বরে মাথায় দেয়। এরপরই শুরু হয় নানা বিতর্ক।

এই খবরটি মোট পড়া হয়েছে ২৪৭ বার

আপনার মন্তব্য