যুক্তরাষ্ট্রে আজ রবিবার, ৩১ মে, ২০২০ ইং

|   ঢাকা - 06:07pm

|   লন্ডন - 01:07pm

|   নিউইয়র্ক - 08:07am

  সর্বশেষ :

  কৃষ্ণাঙ্গ হত্যায় আন্দোলন: মেলরোজ ও ফেরারফ্যাক্স স্ট্রিটে সবচেয়ে বেশি লুন্ঠন   করোনায় একদিনে গেল আরও ৪৮ প্রাণ, আক্রান্ত ৫৩ হাজার ৬৫১   নিরাপত্তার জন্য লস এঞ্জেলেসে মোতায়েন ন্যাশনাল গার্ড সেনা   লস এঞ্জেলেসে ব্যাপক সংঘর্ষ-অগ্নিসংযোগ, কারফিউ‌ জারি   লস এঞ্জেলেসে বিক্ষোভ, ভাঙচুর, লুণ্ঠনের ঘটনায় গ্রেফতার ৫ শ   অকল্যান্ডে বন্দুক হামলায় ফেডারেল সিকিউরিটি অফিসার নিহত   লস এঞ্জেলেসের রেস্টুরেন্টগুলোতে বড় পরিসরে ব্যবসার অনুমতি   দেশে করোনায় মৃত্যু ৬০০ ছাড়াল, নতুন শনাক্ত ১৭৬৪   করোনা মোকাবেলায় বাংলাদেশকে ৬২২২ কোটি টাকা ঋণ দিচ্ছে আইএমএফ   কৃষ্ণাঙ্গ হত্যা: বিক্ষোভে উত্তাল লস এঞ্জেলেস, হয়েছে ভাঙচুর, ২ পুলিশ আহত   পদ্মা সেতুর সাড়ে ৪ কিলোমিটার দৃশ্যমান   প্রথমবারের মতো একই মাসে চন্দ্র ও সূর্যগ্রহণ   জিয়াউর রহমানের ৩৯তম মৃত্যুবার্ষিকী আজ   প্লাজমা থেরাপি ও রেমডেসিভির ব্যবহারে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার নিষেধাজ্ঞা   বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করলো যুক্তরাষ্ট্র

মূল পাতা   >>   নিউইয়র্ক

করোনায় মারা যাওয়া বাংলাদেশিদের গণকবর দেওয়া হচ্ছে না: বাংলাদেশ সোসাইটি

নিউজ ডেস্ক

 প্রকাশিত: ২০২০-০৪-১৯ ১১:৩৫:১২

নিউজ ডেস্ক: নিউইয়র্কে কোন বাংলাদেশির লাশ গণকবর দেওয়া হচ্ছে না বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ সোসাইটির সিনিয়র সহ-সভাপতি আব্দুর রহিম হাওলাদার।

ঢাকার একটি জাতীয় পত্রিকায় ‘নিউইয়র্কে করোনায় নিহত বাংলাদেশিদের গণকবর দেওয়া হচ্ছে’ শীর্ষক সংবাদ বিষয়ে মন্তব্য করতে গিয়ে তিনি বলেন, আমরা বাংলাদেশ সোসাইটির কবরস্থানে এ পর্যন্ত করোনা আক্রান্ত বাংলাদেশির ৬০টি মৃতদেহ সমাহিত করেছি, বাকি করোনা আক্রান্ত মৃত দেহগুলো নিউইর্য়কের আঞ্চলিক সংগঠনগুলো তাঁদের কবরস্থানে এবং বিভিন্ন মসজিদের কবরস্থানে সমাহিত করা হয়েছে। তাছাড়া কিছু মৃতদেহ তাদের নিজস্ব ক্রয়কৃত কবরস্থানে সমাহিত করা হয়েছে। এখন পর্যন্ত এ ধারা চালু আছে এবং ভবিষ্যতেও থাকবে ইনশা আল্লাহ্। যদি কোন মৃতদেহ ১৩ দিন পর্যন্ত হাসপাতালের মর্গে থাকার পর কেউ ক্লেম না করে তাহলে সিটি ঐ মৃত দেহ গণকবর দিয়ে থাকে।

কোন বাংলাদেশির মৃতদেহ এ অবস্থায় পড়েছে, এটা আমি বিশ্বস করি না। আব্দুর রহিম হাওলাদার বলেন, সকলের অবগতির জন্য বলছি, যদি কোন বাংলাদেশীর মৃতদেহ কোন হাসপাতালের থাকলে কেউ ক্লেম না করলে বাংলাদেশ সোসাইটির যে কোন কর্মকতার সাথে যোগাযোগ করার জন্য অনুরাধ করছি।

আমরা ইনশাআল্লাহ্ সমস্ত দায়িত্ব নিয়ে সমাহিত করব। আমরা জানতে পারলে একটি মৃত দেহও গণকবর দিতে দেব না  ইনশাআল্লাহ। সত্যতা যাচাই না করে এ ধরনের খবর না ছাপানোর অনুরাধ করছি। -আব্দুর রহিম হাওলাদার। ফোন নাম্বার ৯১৭-৩০১-২০৬৩।

এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/এনওয়াই

এই খবরটি মোট পড়া হয়েছে ২৮৭ বার

আপনার মন্তব্য

সর্বাধিক পঠিত