আপডেট :

        বৈরি আবহাওয়ায় বাতিল হচ্ছে ফ্লাইট

        সরকারি অর্থে ঋষি সুনাকের বাগানের জন্য কেনা ভাস্কর্য নিয়ে বিতর্ক

        জরুরি অবস্থা ঘোষণা ইতালিতে

        ‘কৃত্রিম সূর্য’ তৈরিতে বড় অগ্রগতি

        এবার এসএসসিতে গড় পাসের হার ৮৭.৪৪%

        দুপুর ১টায় প্রধানমন্ত্রীর কাছে এসএসসি ও সমমানের ফল হস্তান্তর

        ডেঙ্গুতে আক্রান্ত রোগীর ৬০ শতাংশই ঢাকায়

        ফিজিওথেরাপিতে নাসার প্রযুক্তি ব্যবহার নেইমারকে সারিয়ে তুলতে

        রোনালদোদের আজ উরুগুয়ে পরীক্ষা

        মরক্কোর কাছে হারের পর দাঙ্গা বেধেঁছে বেলজিয়ামে

        টানটান উত্তেজনার মধ্য দিয়ে স্পেন-জার্মানির ম্যাচে সমতা

        ক্যালিফোর্নিয়ার সময় অনুযায়ী ম্যাচ সিডিউল: ২৮ নভেম্বর

        এসএসসি ও সমমানের ফল প্রকাশ কাল

        সান বার্নার্ডিনোয় সড়ক দুর্ঘটনায় মৃত ২, আহত ১

        বিদ্যুৎবিহীন পরিস্থিতিতে জেলেনস্কির সমালোচনার শিকার কিয়েভের মেয়র

        অর্থনৈতিক সংকটের কারণে এ বছর হচ্ছে না পদ্মা ও মেঘনা বিভাগ

        জাতীয় গ্রিডে যুক্ত হলো ৪০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ

        গুগলে সবচেয়ে বেশি খোঁজা হয়েছে সাবেক এই তারকা দম্পতিকে

        তিনা-রিয়াজ আহমেদ দম্পতি পুত্র সন্তানের মা-বাবা হয়েছেন

        সড়ক দুর্ঘটনার কবলে জনপ্রিয় অভিনেতা মিঠুন চক্রবর্তী

চীনে বন্ধ হলো গুগল ট্রান্সলেট

চীনে বন্ধ হলো গুগল ট্রান্সলেট

টেক জায়ান্ট গুগল চীনের মূল ভূখণ্ডে এর অনুবাদ পরিষেবা (গুগল ট্রান্সলেট) বন্ধ করেছে। এমনিতেই সেখানে প্রতিষ্ঠানটির হাতে গোনা কয়েকটি পরিষেবা চালু আছে। কারণ চীনে বেশিরভাগ পশ্চিমা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্লক করা আছে।

গুগল ট্রান্সলেট অ্যাপ ও ওয়েবসাইটে গেলে বর্তমানে একটি জেনেরিক সার্চ বার দেখাচ্ছে এবং একটি লিংক চীনা ব্যবহারকারীদের গুগল ট্রান্সলেটের হংকং পেজে নিয়ে যাচ্ছে, যা মূলত মূল ভূখণ্ডে ব্লক করা।

চীনা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের বিভিন্ন পোস্ট থেকে জানা যায়, শনিবার থেকেই গুগলের এই পরিষেবা ব্যবহার করা যাচ্ছে না। এমনকি গুগলের ক্রোম ব্রাউজারে অনুবাদের যে বিল্ট-ইন সুবিধা রয়েছে তাও ব্যবহার করতে পারছেন না চীনা ব্যবহারকারীরা।

গুগল এক বিবৃতিতে জানায়, কম ব্যবহারকারীর জন্য চীনে গুগল ট্রান্সলেট পরিষেবা বন্ধ করা হয়েছে।

তবে সেখানে পরিষ্কার করা হয়নি ঠিক কতজন পরিষেবাটি ব্যবহার করে আসছিলেন।

চীনের সাথে মার্কিন এই প্রতিষ্ঠানের সম্পর্ক বেশ আগে থেকেই খারাপ। দেশটির সেন্সরশিপ নীতি মেনে চলতে অনিচ্ছা প্রকাশ করার পর ২০১০ সালে গুগল নিজেদের সার্চ ইঞ্জিন চীন থেকে সরিয়ে নেয়। পরে দেশটিতে ইমেইল পরিষেবা, জিমেইল ও গুগল ম্যাপসের কার্যক্রম বন্ধ করে দেয়।

কঠোর সেন্সরশিপ নীতি বজায় রাখতেই চীনা কর্তৃপক্ষ গুগল, ফেসবুক, টুইটারের মতো বেশিরভাগ পশ্চিমা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলো ব্লক করেছে। চীনা প্ল্যাটফর্মগুলোকে অবশ্যই সেই নীতি কঠোরভাবে মেনে চলতে হয় এবং কর্তৃপক্ষের রাজনৈতিকভাবে সংবেদনশীল বলে মনে করা কী-ওয়ার্ড ও বিষয়গুলো সেন্সর করতে হয়।

 

এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/আইটি

[এলএ বাংলাটাইমসের সব নিউজ আরও সহজভাবে পেতে ‘প্লে-স্টোর’ অথবা ‘আই স্টোর’ থেকে ডাউনলোড করুন আমাদের মোবাইল এপ।]

শেয়ার করুন

পাঠকের মতামত