Updates :

        সামলে উঠছে বিপর্যস্ত অর্থনীতি, তবে কাটেনি শঙ্কা

        নির্বাচনে বাগড়া দিলে দেশব্যাপী আন্দোলনের হুমকি

        শীঘ্রই দৈনিক ১ লাখ বাসিন্দা আক্রান্ত হবে করোনায়

        দেশজুড়ে জরিপে এগিয়ে বাইডেন, তবে স্বস্তি নেই শিবিরে

        প্যাটারসনে আবারও প্রতিদ্বন্দ্বিতায় দুই বাংলাদেশি কাউন্সিলম্যান প্রার্থী

        মাস্ক পড়তে বলায় গার্ডকে ছুরিকাঘাত করলো দুই বোন!

        মহানবী ( সা.) এর কার্টুন প্রকাশে জাতিসংঘের উদ্বেগ

        নিষেধাজ্ঞা থেকে মুক্ত হয়ে যা বললেন সাকিব

        মুক্তিযোদ্ধাদের নামের আগে ‘বীর’ লিখতে হবে

        দেশে করোনায় ২৫ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১৬৮১

        ইসলাম বিদ্বেষী বক্তব্যে ম্যাক্রোঁকে পূর্ণ সমর্থন জানালো ভারত

        রায়হান হত্যাকাণ্ড: আরেক পুলিশ সদস্য গ্রেপ্তার

        কুর্দিদের না সরালে সিরিয়ায় সামরিক হামলার হুমকি তুরস্কের

        মাল্টিব্রান্ড ইনফোটেক-এডিসন ইন্ডাস্ট্রিজের মধ্যে চুক্তি স্বাক্ষর

        ৮ ব্যক্তি ও ১ প্রতিষ্ঠান পেল স্বাধীনতা পুরস্কার

        ফ্রান্সে ফের লকডাউন জারি

        সৌদিআরবে বিলুপ্ত হচ্ছে কফিল পদ্ধতি

        এন্টিবডি ড্রাগ উৎপাদনের চুক্তি করলো যুক্তরাষ্ট্র

        ট্রাম্পের ২৭০ মিলিয়ন ডলার দেনা মওকুফ করলেন পাওনাদার!

        ধেয়ে আসছে হারিকেন জেটা, সতর্কতা সংকেত জারি

কমিউনিটি সচেতনতায় জ্যামাইকা ফ্রেন্ডস সোসাইটির ‘সেন্সাস এন্ড সমচা’ শীর্ষক ব্যতিক্রমী অনুষ্ঠান

কমিউনিটি সচেতনতায় জ্যামাইকা ফ্রেন্ডস সোসাইটির ‘সেন্সাস এন্ড সমচা’ শীর্ষক ব্যতিক্রমী অনুষ্ঠান

জ্যামাইকা বাংলাদেশ ফ্রেন্ডস সোসাইটি-জেবিএফএস নিউইয়র্কের অন্যতম সনামধন্য সামাজিক সংগঠন। নামে নয় কর্মের মধ্য দিয়ে সংগঠনটি প্রবাসী বাংলাদেশী সহ মূলধারার রাজনীতিক/জনপ্রতিনিধি সহ অন্যান্য কমিউনিটির কাছেও একটি দায়িত্বশীল এবং গ্রহণযোগ্য সংগঠনে পরিণত হয়েছে। প্রবাসে বাংলা ভাষা ও সংস্কৃতির বিকাশে বছরব্যাপী নানা অনুষ্ঠান আয়োজন ছাড়াও কমিউনিটির যেকোন বিপদ-আপদে জেবিএফএস অগ্রনী ভূমিকা রেখে চলেছে। বিশেষ করে মহামারী করোনাভাইরাস সময়ে সংগঠনটি দলমত নির্বিশেষে জ্যাইকাবাসীদের পাশে দাঁড়িয়ে দৃষ্টান্ত স্থপান করেছে। পরবর্তীতে চলতি বছরের সেন্সাস-২০২০ কার্যক্রম আর ফ্লু শট ভ্যাকসিন প্রদানে প্রবাসীদের সচেতন করতে নানা কর্মসূচী অব্যাহত রেখেছে। উল্লেখ্য, গত ৩০ সেপ্টেম্বর ছিলো সেন্সাস কার্যক্রমে অংশ নেয়ার শেষ দিন। কিন্তু এর সময়সীমা আরো এক মাস বৃদ্ধি করা হয়েছে। ফলে সেন্সাসে নাম অন্তর্ভূক্তি চলবে আগামী ৩১অক্টোবর পর্যন্ত। সেন্সাস কার্যক্রমে অংশগ্রহনকারী বা নাম অন্তর্ভূক্তির সকল তথ্য গোপন থাকবে।

যুক্তরাষ্ট্রের সেন্সাস-২০২০ কার্যক্রম আর ফ্লু শট ভ্যাকসিন প্রদান কর্মসূচী উপলক্ষে ফ্রেন্ডস সোসাইটির পক্ষ থেকে গত ২৭ সেপ্টেম্বর জ্যামাইকায় ‘সেন্সাস এন্ড সমচা’ শীর্ষক ব্যতিক্রমী কর্মসূচীর আয়োজন করা হয়। হিলসাইড এভিনিউস্থ মেজর মার্ক পার্কের কর্ণারে (১৭৩ ষ্ট্রীট) আয়োজিত কর্মসূচী চলে বেলা ২টা থকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত। এতে প্রবাসীরা সেন্সাসে নাম নিবন্ধন করেন ও ফ্লু শট ভ্যাকসিন নেন।

উল্লেখিত কর্মসূচীতে বাংলাদেশী সেন্সাস কর্মকর্তা জাকিয়া আহমেদের নেতৃত্বে সেন্সাস টিম প্রবাসীদের নাম অন্তর্ভূক্তিতে সহায়তা করেন। এসময় তারা সেন্সাস বিষয়ক নানা তথ্যও সংশ্লিস্টদের অবহিত করেন। অপরেিদকে এস্টোরিয়ার নাইল সিটি ফার্মেসীর অভিজ্ঞজনরা ফ্লু শট ভ্যাকসিন প্রদানে প্রবাসীদের সহযোগিতা করেন। এসময় সংশ্লিস্টদের মাঝে ব্যথা নিরাময়ের বিভিন্ন সামগ্রী ও নানা উপহার সামগ্রী প্রদান করা হয়। সবশেষে এই কর্মসূচীতে উপস্থিত প্রবাসীদের মাঝে মাস্ক, হ্যান্ড স্যানিটাইজার ও স্কুল সামগ্রী বিতরণ করা হয়। জেবিএফএস’র কর্মকর্তা ও অতিথিগণ এসব সামগ্রী প্রবাসীদের হাতে তুলে দেন।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ ও জেবিএফসি’র কর্মকর্তারা সেন্সাসে-২০২০ এ নাম অন্তর্ভুক্তি গুরুত্ব এবং চলতি সময়ে ফ্লু ভ্যাকসিন নেয়ার প্রয়োজনীয়তা প্রবাসী বাংলাদেশী সহ অন্যান্য কমিটির কাছে তুলে ধরেন। তারা বলেন, নিজেদের অধিকার, কমিটির অধিকার তথা আমাদের নতুন প্রজন্মেও অধিকার রক্ষায় সেন্সাসে অংশ নেয়া নৈতিক দায়িত্ব। কেননা, এক একটি নাম প্রতিটি এলাকার জনগণের অংশগ্রহন আর অধিকারকে নিশ্চিত করবে। অতিথিগণ ফ্রেন্ডস সোসাইটির কর্মকান্ডেরও প্রশংসা করেন। এই কর্মসূচী চলাকালে প্রবাসীদের উৎসাহীত করতে ফ্রেন্ডস সোসাইটির প্রধান উপদেষ্টা এবিএম ওসমান গণি, সভপতি ফখরুল ইসলাম দেলোয়ার ও সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আল আমীন রাসেল নিজেও ফ্লু শট গ্রহণ করেন। কর্মসূচীটি আয়োজনে সার্বিক সহযোগিতায় ছিলো হেলথ ইন্স্যুরেন্স কোম্পানী ফিডেলিস কেয়ার। স্পন্সর ছিলেন কুইন্স ডেমোক্র্যাট পার্টির ডিষ্ট্রক্ট এট লার্জ এটর্নী মঈন চৌধুরী, ব্রঙ্কস কমিউনিটি বোর্ডের ভাইস চেয়ার মোহাম্মদ এন মজুমদার, এলাইড মর্টগেজ-এর মোহাম্মদ জান ফাহিম ও তরুণ রিয়েল এস্টেট ব্যবসায়ী কবীর মুন্সী। 

অনুষ্ঠানে জেবিএফএস’র প্রধান উপদেষ্টা এবিএম ওসমান গণি, উপদেষ্টা যথাক্রমে ডা. ওয়াজেদ এ খান, ছদরুন নূর, শাহ নেওয়াজ, রেজাউল করীম চৌধুরী, উপদেষ্টা ও জেএমসি’র সেক্রেটারী মনজুর আহমেদ চৌধুরী, উপদেষ্টা এবিএম সালাহউদ্দিন আহমেদ, বাংলা স্কুলের প্রতিষ্ঠাতা আমিনুল ইসলাম চুন্নু, জেএফসি’র প্রতিষ্ঠাতা ও বর্তমান সভাপতি মোহাম্মদ ফখরুল দেলোয়ার, সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আল আমীন রাসেল, সাবেক সভাপতি সাইফুল ইসলাম, সহ সভাপতি মান্নাফ তালুকদার, যুগাম সম্পাদক রিজু মোহাম্মদ, সাংগঠনিক সম্পাদক আনোয়ার হোসেন, কোষাধ্যক্ষ হামিদুর রহমান, সাহিত্য সম্পাদক আকতার বাবুল, ক্রীড়া সম্পাদক সুমন খান প্রমুখ কর্মকর্তা উপস্থিত ছিলেন।
এছাড়াও কমিউনিটির বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গের মধ্যে ডা. বর্ণালী হাসান, ডা. মাহফুজুল হাসান ডিডিএস, বাংলাদেশ সোসাইটির ট্রাষ্টি বোর্ডের সদস্য আজিমুর রহমান বোরহান, সাধারণ সম্পাদক রুহুল আমীন সিদ্দিকী, ডা. মাসুদুল হাসান, এটর্নী মইন চৌধুরী, জেএমসি’র ইমাম শামসে আলী, মসজিদ মিশন সেন্টারের (হাজী কাম্প মসজিদ) ইমাম মাওলানা হাফেজ রফিকুল ইসলাম ও সেক্রেটারী আখতার রহমান, জালালাবাদ এসোসিয়েশন অব আমেরিকা’র সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান সেফাজ, বিশিষ্ট লেখক ইশতিয়াক রুপু প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।


এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/এএল

শেয়ার করুন