Updates :

        ওয়ানডে থেকে অবসরে বিশ্বকাপে দ্রুততম সেঞ্চুরিয়ান ও’ব্রায়ান

        উড়োজাহাজের মালিক যেসব বলিউড নায়িকা

        ইরানের নতুন প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম রায়িসি

        ঢাকায় বাসা থেকে বাবা-মা-মেয়ের লাশ উদ্ধার

        পেরুতে বাস উল্টে ১৩০০ ফুট খাদে, ২৭ জনের প্রাণহানি

        রেস্টুরেন্টে ‘নির্দিষ্ট ধূমপান এলাকা’ নিষিদ্ধ করতে আইন সংশোধন চান বাংলাদেশ রেস্তোরাঁ মালিক সমিতি

        নিউসামের উপর চড়াও হওয়ার অভিযোগে আটক এক ব্যক্তি

        ক্যালিফোর্নিয়ায় তীব্র তাপদাহ: জরুরি অবস্থা জারি

        কী আছে পুতিনের সাড়ে ৪ হাজার কোটি টাকার বিমানে?

        নেইমারের রেকর্ড ভাঙার অপেক্ষায় কিংবদন্তি পেলে

        একইদিন মাঠে নামছে আর্জেন্টিনা ও পর্তুগাল

        প্রথমবার একসঙ্গে তৌসিফ-ইরফান, মধ্যমণি তানহা

        দ্বিতীয় মেয়াদে জাতিসংঘের মহাসচিব গুতেরেস

        স্ত্রী হত্যার দায়ে সিলেটের নতুন কারাগারে প্রথম ফাঁসি কার্যকর

        পাকিস্তানি বংশোদ্ভূত নারীকে ট্রেড কমিশনের চেয়ারপার্সন করলেন বাইডেন

        ইসরায়েলি ড্রোন ভূপাতিত করলো ফিলিস্তিনিরা

        পুলিশ হেফাজতেই থাকছেন ত্ব-হা আদনান

        আবু ত্ব-হা আদনানকে পাওয়া গেছে

        অ্যারিজোনায় বন্দুক হামলায় মৃত ১, আহত ১২

        কাজ না খুঁজলে দেওয়া হবে না কর্মহীন ভাতা: নিউসাম

প্রস্তাবিত বাজেটে কোনো দুর্বলতা নেই: অর্থমন্ত্রী

প্রস্তাবিত বাজেটে কোনো দুর্বলতা নেই: অর্থমন্ত্রী

প্রস্তাবিত ২০২১-২২ অর্থবছরের বাজেটে কোনো দুর্বলতা নেই বলে দাবি করেছেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল। তিনি বলেন, নিম্ন আয়ের মানুষদের যদি আমরা চিহ্নিত করতে পারি এবং অর্থনীতির মূল ধারায় নিয়ে আসতে পারি তাহলে আগামীতে আমাদের অর্থনীতি আরও সমৃদ্ধ হবে।

বুধবার দুপুরে ভার্চুয়াল পদ্ধতিতে অর্থনৈতিক বিষয় সংক্রান্ত মন্ত্রীসভা কমিটির বৈঠক এবং সরকারি ক্রয় সংক্রান্ত মন্ত্রীসভা কমিটির বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে অর্থমন্ত্রী এ দাবি করেন। অর্থমন্ত্রীর সভাপতিত্বে বৈঠক দুটি অনুষ্ঠিত হয়।

এবারের বাজেটে কী দুর্বলতা ছিল এমন প্রশ্নের জবাবে অর্থমন্ত্রী বলেন, বাজেটে কোনো দুর্বলতা নেই। আমি নির্দিষ্ট কিছু উল্লেখ করবো না, বাজেটটি যখন বাস্তবায়ন শুরু হবে তখন আমরা দেখবো কারা উপকারভোগী। তিনি বলেন, আমরা বিশ্বাস করি এবং প্রধানমন্ত্রীও আমাদের নির্দেশ দিয়েছেন, সেটা হলো নিম্ন আয়ের মানুষদের যদি আমরা চিহ্নিত করতে পারি এবং অর্থনীতির মূল ধারায় নিয়ে আসতে পারি তাহলে আগামীতে আমাদের অর্থনীতি আরও সমৃদ্ধ হবে। এ নীতিতে আমরা বিশ্বাস করি এবং সেভাবে কাজ করে যাচ্ছি।

করোনার প্রভাবে দেশে নতুন করে এক কোটি থেকে আড়াই কোটি মানুষ দরিদ্র হয়েছে বেসরকারি গবেষণা প্রতিষ্ঠানের এই তথ্য উল্লেখ করে অর্থমন্ত্রীর কাছে জানতে চাওয়া হয়, দেশে দরিদ্র মানুষের সংখ্যা বেড়েছে এটি আপনি স্বীকার করেন কি না। এর জবাবে অর্থমন্ত্রী বলেন, নতুন দারিদ্রের এই হিসাব আমি স্বীকার করি না। যাদের কাছে তালিকা আছে ২ কোটি বা ১ কোটি বা ১০ জন, এই তথ্য তারা কোথায় পেয়েছে, আগে তা জানা দরকার।

অর্থমন্ত্রী বলেন, সরকারিভাবে গবেষণা করার জন্য বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরো (বিবিএস), বাংলাদেশ উন্নয়ন গবেষণা প্রতিষ্ঠান (বিআইডিএস) আছে। এসব প্রতিষ্ঠান থেকে যত দিন তথ্য পাওয়া না যাবে, তত দিন অন্য প্রতিষ্ঠানের তথ্য গ্রহণ করার সুযোগ নেই।

দেশের প্রবৃদ্ধির হার নিয়ে এক প্রশ্নের জবাবে অর্থমন্ত্রী বলেন, আগামী অর্থবছরে মোট দেশজ উৎপাদনের (জিডিপি) প্রবৃদ্ধির হার নিয়ে বিশ্বব্যাংক যে ৫ দশমিক ১ শতাংশ প্রাক্কলন করেছে, তার চেয়ে অনেক বেশি অর্জিত হবে। আগামী অর্থবছরের জন্য সরকারের লক্ষ্যমাত্রা ৭ দশমিক ২ শতাংশ। অর্থনীতির যে সাম্প্রতিক গতিধারা, তাতে এই অর্থবছরে জিডিপি প্রবৃদ্ধির ক্ষেত্রে দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর ওপরে থাকবে বাংলাদেশ।

শেয়ার করুন

পাঠকের মতামত