আপডেট :

        বিশ্বের শীর্ষ ১০ ধনীর তালিকা থেকে ছিটকে গেলেন আদানি

        ৩১ লাখ ডলারে বিক্রি অ্যান্থনি ভ্যান ডাইকের ছবি

        বাংলাদেশ নিয়ে যা বললেন আইএমএফের সভাপ্রধান

        যুক্তরাষ্ট্রে কোভিড-১৯ জরুরি অবস্থা উঠে যাচ্ছে ১১ মে

        পেশোয়ারে মসজিদে বিস্ফোরণে নিহত বেড়ে ৮৩

        বাংলাদেশের ৪৭০ কোটি ডলার ঋণ অনুমোদন দিল আইএমএফ

        যুদ্ধাপরাধের দায়ে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত ২ আসামি রাজধানীতে গ্রেপ্তার

        ১৯১ অনলাইন নিউজ পোর্টাল বন্ধে চিঠি দেওয়া হয়েছে

        চট্টগ্রামে মেট্রোরেলের মাস্টার প্ল্যান ও সম্ভাব্যতা যাচাই কাজের উদ্বোধন

        এবার তারেক-জোবায়দাকে আদালতে হাজির হতে গেজেট প্রকাশ

        এক মাসে মেট্রোরেলে চড়েছে ৩ লাখ ৩৫ হাজার যাত্রী

        জ্বালানি তেল বিক্রিতে এশিয়ার জন্য ব্যাপক মূল্যছাড় সৌদি আরবের

        শীত কি আবারও আসছে?

        জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার ২০২১ পাচ্ছেন যারা

        দিল্লি যাবেন ড. মোমেন

        অনুর্ধ্ব-১৯ নারী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রথম শিরোপা ভারতের

        এবার পাইকারি ও খুচরায় বাড়ল বিদ্যুতের দাম

        বসন্ত ডাকছে ওই

        মোশন ভিউতে জি-টাইড কলিং স্মার্টওয়াচ

        হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাটের স্ক্রিনশট বন্ধ

আলোচনায় বাইডেনের 'অতিগোপনীয়' নথি

আলোচনায় বাইডেনের 'অতিগোপনীয়' নথি

মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সাবেক ব্যক্তিগত অফিস ও বাড়ি থেকে গোপনীয় সরকারি নথি উদ্ধারের ঘটনা পুরোনো। তবে উদ্ধার হওয়া নথিগুলোর মধ্যে কিছু ছিল 'অতিগোপনীয়', যা পুরো দেশে ব্যাপক আলোচনা-সমালোচনার জন্ম দিয়েছে। এ ঘটনা তদন্তে একজন সরকারি কৌঁসুলিকে দায়িত্ব দিয়েছে দেশটির বিচার বিভাগ। বিবিসির খবর।

যুক্তরাষ্ট্রের সংবাদমাধ্যম সিবিএসের বরাত দিয়ে খবরে বলা হচ্ছে, সাবেক প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার আমলে ভাইস প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন বাইডেন। গোপন নথিগুলো সেই সময়ের। আইন অনুযায়ী, চাকরি শেষ হলে কেন্দ্রীয় সরকারে দায়িত্ব পালনকারী ব্যক্তিদের স্বেচ্ছায় দাপ্তরিক নথি ও গোপন দলিলপত্র জমা দিতে হয়। তবে বাইডেন তা জমা দেননি।

বাইডেনের অফিস ও বাসা থেকে প্রায় ২০টি নথি উদ্ধার করা হয়। এর মধ্যে অফিসে পাওয়া ১০টি নথির মধ্যে ছিল 'অতিগোপনীয়' নথি। তাঁর ডেলাওয়ারের বাসায়ও ১০টির মতো নথি পাওয়া গেছে। বলা হচ্ছে, অতিগোপনীয় নথিগুলো কোনোভাবে ফাঁস হয়ে গেলে 'ভয়াবহ ক্ষতি' হতে পারত।

নথিগুলো উদ্ধারের খবর প্রথম গণমাধ্যমে আসে গত সোমবার। গত নভেম্বরে ওয়াশিংটনে বাইডেনের সাবেক প্রতিষ্ঠান 'পেন বাইডেন সেন্টার'-এর অফিস থেকে নথিগুলো উদ্ধার হয়। নথি উদ্ধারের বিষয়ে বাইডেন বলেন, তিনি গোপন নথি ও জিনিসপত্র উদ্ধারের ঘটনাটি গুরুত্বের সঙ্গে নিয়েছেন এবং বিষয়টি নিয়ে বিচার বিভাগকে পূর্ণ সহযোগিতা দিচ্ছেন।


এলএবাংলাটাইমস/আইটিএলএস

শেয়ার করুন

পাঠকের মতামত