Updates :

        মুম্বাইয়ে বহুতল ভবনে আগুন, ২০ তলা থেকে পড়ে মৃত্যু

        রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনবিরোধীরা বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করছে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

        লস এঞ্জেলেসে গ্যাসোলিনের মূল্য ২০১২ সালের পর সর্বোচ্চ বাড়লো

        ২০২২ সালেও চলতে পারে করোনা মহামারি: ডব্লিউএইচও

        লালমনিরহাটে আকস্মিক বন্যায় দিশেহারা মানুষ

        'ট্রুথ সোশ্যাল' নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ফিরছেন ট্রাম্প

        তালেবানের সাথে বৈঠক করল ভারত

        লস এঞ্জেলেস বন্দরে ক্রমশই বাড়ছে জাহাজের জট

        ফ্রি-ওয়েতে পাওয়া গেলো মানবদেহের অবশিষ্টাংশ

        বন্ধ হতে যাচ্ছে লস এঞ্জেলেসের ১০১নং ফ্রি-ওয়ে

        বেভারলি হিলসে শপিংমলে বন্দুক হামলায় আহত ১

        ক্যালিফোর্নিয়ার ৫৮ কাউন্টিতেই খরা সতর্কতা জারি

        ত্রিপুরার ভিডিওকে রংপুরের বলে অপপ্রচার চলছে : র‍্যাব

        নাম বদলে যাচ্ছে ফেসবুকের!

        এবার সাবমেরিন থেকে ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ উ. কোরিয়ার

        লস এঞ্জেলেসে ভয়াবহ সড়ক দুর্ঘটনায় মৃত ১, আহত ২

        টিকাগ্রহণ করলে কমতে পারে মুদ্রাস্ফীতি

        বাধ্যতামূলক টিকাগ্রহণের আদেশের বিরোধীতা করছে অভিভাবকরা

        হাইতিতে অপহৃত মিশনারি দল: জনপ্রতি ১ মিলিয়ন ডলার মুক্তিপণ দাবি

        লস এঞ্জেলেসে শেখ রাসেল দিবস উদযাপন

অভিনেতা ড. ইনামুল হক আর নেই

অভিনেতা ড. ইনামুল হক আর নেই

সোমবার (১১ অক্টোবর) রাজধানীর একটি হাসপাতালে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছেন ( ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।

অভিনয়শিল্পী সংঘের সাধারণ সম্পাদক আহসান হাবিব নাসিম জানান, বাসায়ই ছিলেন, হঠাৎ পালস পাওয়া যাচ্ছিল না। দ্রুত শান্তিনগর ইসলামী ব‌্যাংক হাসাপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। এ সময় চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন। আনুমানিক বেলা ৩টার দিকে মারা গেছেন তিনি।

ড. ইনামুল হকের মৃতদেহ কোয়ান্টামে নেওয়া হয়েছে। সেখানে গোসল শেষ করে নিয়ে যাওয়া হবে বেইলী রোডে। এরপর শিল্পকলা একাডেমিতে নেওয়া হবে। তবে কোথায় কখন দাফন করা হবে তা এখনো চূড়ান্ত হয়নি বলে জানিয়েছেন নাসিম।

বরেণ্য নাট্যজন লাকী ইনামের সঙ্গে ঘর বেঁধেছিলেন ড. ইনামুল হক। এ সংসারে হৃদি হক ও প্রৈতি হক নামে দুই কন্যা সন্তান রয়েছে।

নাট্যকার হিসেবে ড. ইনামুল হক'র পথচলা শুরু হয়েছিল ১৯৬৮ সালে। তার প্রথম লেখা নাটকের নাম 'অনেকদিনের একদিন'। আবদুল্লাহ আল মামুন নাটকটি প্রযোজনা করেছিলেন টেলিভিশনের জন্য। টেলিভিশনের জন্য ৬০টি নাটক লিখেছিলেন তিনি।

তার লেখা আলোচিত টিভি নাটকের মধ্যে রয়েছে 'সেইসব দিনগুলি' (মুক্তিযুদ্ধের নাটক), 'নির্জন সৈকতে' ও 'কে বা আপন কে বা পর'।

মঞ্চের জন্য তার লেখা প্রথম নাটকের নাম 'বিবাহ উৎসব'। এটি লিখেছিলেন উদীচীর জন্যে। তার নিজ দল নাগরিক নাট্যাঙ্গনের জন্য প্রথম লেখা নাটকের নাম 'গৃহবাসী'। ১৯৮৩ সালে লেখা হয় নাটকটি। ঢাকার মঞ্চে বেশ আলোচিত নাটক এটি।

ড. ইনামুল হক অভিনয় জীবন শুরু করেন ১৯৬৮ সালে। তার প্রথম অভিনীত টেলিভিশন নাটক ছিল 'মুখরা রমণী বশীকরণ'। এটি প্রযোজনা করেছিলেন মুস্তাফা মনোয়ার।

 

এলএবাংলাটাইমস/এলআরটি/ই

[এলএ বাংলাটাইমসের সব নিউজ আরও সহজভাবে পেতে ‘প্লে-স্টোর’ অথবা ‘আই স্টোর’ থেকে ডাউনলোড করুন আমাদের মোবাইল এপ।]

শেয়ার করুন

পাঠকের মতামত